বুধবার ১৯শে ডিসেম্বর, ২০১৮ ইং , ৫ই পৌষ, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ, ১১ই রবিউস-সানি, ১৪৪০ হিজরী

আনন্দ র‌্যালিতে উদযাপন বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয় দিবস

ফেব্রুয়ারি ২২, ২০১৮ | ১০:২০ অপরাহ্ণ

মনিরা মনি, অতিথি প্রতিবেদক

সূর্যোদয়ের রঙিন আভায় আলোকিত ছিল বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয় দিবসের প্রথম সকাল। গল্পের মতো সাতটি বছর পার করে ২২ ফেব্রুয়ারি (বৃহস্পতিবার) অষ্টম বছরে পা ফেলেছে এই ক্যাম্পাস। দিবসটির উদযাপনে মেতেছিলেন শিক্ষক-শিক্ষার্থীরা। ২০১১ সাল থেকে যাত্রা শুরু করে সোনালী সময় পার করে আসছে এই বিশ্ববিদ্যালয়।

২০১৮ সালটি এক অন্যরকম বছর। এ বছরই বিশ্ববিদ্যালয়ে নতুন দুটো বিভাগ যুক্ত হয়। গণযোগাযোগ ও সাংবাদিকতা বিভাগ ও বায়োকেমেস্ট্রি অ্যান্ড বায়ো টেকনোলোজি বিভাগ। বরিশাল বিভাগ তো বটেই পুরো দক্ষিণাঞ্চলে প্রথম কোনও বিশ্ববিদ্যালয় পেল সাংবাদিকতা বিভাগ। ফলে বিশ্ববিদ্যালয় দিবসে এই বিভাগের শিক্ষার্থীদের মধ্যে দেখা গেছে বাড়তি উচ্ছ্বাস।

জাতীয় পতাকা উত্তোলন ও আনন্দ র‌্যালীর মধ্য দিয়ে দিবসের প্রথম ভাগের অনুষ্ঠান শুরু হয়। এতে অংশ নেন বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য, শিক্ষকসহ সকল শিক্ষার্থী।

দিবসের দ্বিতীয় ভাগের অনুষ্ঠান শুরু হয় ২০১৭-১৮ সালের প্রথম বর্ষের শিক্ষার্থীদের নবীন বরণে। এতে উপস্থিত ছিলেন অনুষ্ঠানের বরিশাল মেট্রোপলিটন পুলিশ কমিশনার, বিশ্বিদ্যালয়ের সিন্ডিকেট সদস্য, অনুষদের ডিনবৃন্দ, বিভিন্ন বিভাগের চেয়ারম্যানসহ সকল শিক্ষক, বিশ্ববিদ্যালয়ের কর্মকর্তা-কর্মচারী। ছিলেন সংবাদ মাধ্যমের প্রতিনিধিরা ছাড়াও বরিশালের নানা পর্যায়ের সফল কয়েকজন মানুষ।

আমন্ত্রিত অতিথি হয়ে এসেছিলেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের মৃত্তিকা পানি ও পরিবেশ বিভাগের শিক্ষক অধ্যাপক শফিউর রহমান। বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয় আলোকিত মানুষ গড়ে তুলবে এই প্রত্যাশাই তিনি ব্যক্ত করেন তার বক্তৃতায়।

উপাচার্য অধ্যাপক ড. এস এম ইমামুল হক নবীনদের বিভন্ন বিষয়ে দিক নির্দেশনা দেন। তিনি বলেন, “বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয় মাদকমুক্ত, আর রাজাকারমুক্ত ক্যাম্পাস। বিশ্ববদ্যালয়ে যেসব নির্দেশনা আর পদক্ষেপ নেওয়া হয়েছে তা পূরণ করতে পারলে বিশ্ববিদ্যালয় সকলের চেয়ে এগিয়ে থাকবে।

মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের মধ্য দিয়ে দিবসটির উদযাপন শেষ হয়।

সারাবাংলা/এমএম

আনন্দ র‌্যালিতে উদযাপন বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয় দিবস
আনন্দ র‌্যালিতে উদযাপন বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয় দিবস
আনন্দ র‌্যালিতে উদযাপন বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয় দিবস