শনিবার ২৬ মে, ২০১৮ , ১২ জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৫, ১০ রমযান, ১৪৩৯

চারুকলায় এসে দেখি ফাগুনের আগুন

ফেব্রুয়ারি ১৩, ২০১৮ | ১২:০৬ অপরাহ্ণ

শাহ্ ওমর, স্টাফ করেসপন্ডেন্ট 

ঢাকা: ‘ওরে ভাই ফাগুন লেগেছে বনে বনে। শীতের রুক্ষ দিনের অবসান ঘটিয়ে ‘আজি বসন্ত জাগ্রত দ্বারে’! প্রকৃতিতে বসন্ত এলে তাকে বরণ করে নেওয়ার মূল আয়োজনটা কিন্তু ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের চারুকলা অনুষদের বকুলতলাতে করা হয়।

‘এসো মিলি প্রাণের উৎসবে’ এই শ্লোগানের মধ্যদিয়ে এবারের বসন্তবরণ উৎসব শুরু হয়েছে। জাতীয় বসন্ত উদযাপন পরিষদ প্রতি বছরের মতো এবারও বসন্ত উৎসব-১৪২৮ এর আয়োজন করেছে।

সকাল সাতটায় বসন্তকথন পর্বের মধ্য দিয়ে উৎসবের উদ্বোধন করা হয়। এরপর আবির বিনিময়, রাখীবন্ধনের পরে মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়।

এরপর একটু একটু কর সে উৎসব ছড়িয়ে পড়তে থাকে সমস্ত ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে। চারিদিকে শুধু দেখা যায় বাসন্তীরঙা পোশাকে শোভিত তরুণ-তরণীদের। তরুণরা বাসন্তীরঙা পাঞ্জাবি আর তরুণীরার বাসন্তী শাড়ির সঙ্গে হলুদ গাঁধার ফুল খোঁপায় গুঁজে ফাল্গুনের সাঁজে ভোর থেকেই চারুকলার বকুল তলাতে মিলিত হতে শুরু করে।

বসন্ত উৎসবে অংশনিতে এসেছিলেন, সাংস্কৃতিক ব্যক্তিত্ব হাসান ইমাম। তিনি সারাবাংলা বলেন, ‘ঋতুরাজ বসন্ত আমাদের দেশের সংস্কৃতিক এবং রাজনৈতিক ইতিহাসের বিশেষ গুরুত্ব বহন করে। আমি মনে করি প্রত্যেক মানুষেরই বসন্ত উৎসবে মেতে ওঠা উচিৎ।’

বসন্ত উৎসব উদযাপন ফোরামের সহসভাপতি সফিউদ্দিন আহমেদ বলেন, ‘ঝগড়া বিবাদ যাই থাকুক, পরিচয় যেটাই হোক এই দিনটিতে আমরা ববকিছু ভুলে একসঙ্গে আনন্দে মেতে উঠি।’

‘চলুন না! ভ্যালেন্টাইন ডের নামে ব্যবসা না করে, আমরা বর্ষামঙ্গল উৎসব, বসন্ত উৎসব এগুলা পালন করি, বলেন, সাংস্কৃতিক ব্যক্তিত্ব সৈয়স আশরাফ।

সারাবাংলা/এসও/এমআই

আরও পড়ুন