রবিবার ১৮ ফেব্রুয়ারি, ২০১৮, ৬ ফাল্গুন, ১৪২৪, ১ জমাদিউস-সানি, ১৪৩৯

Live Score

বাংলাদেশে বিনিয়োগে তুরস্ককে এফবিসিসিআইয়ের আহ্বান

ফেব্রুয়ারি ১৪, ২০১৮ | ৯:৩৭ অপরাহ্ণ

সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট

ঢাকা: বাংলাদেশের সম্ভাবনাময় খাতে তুরস্ককে যৌথ বিনিয়োগের আহ্বান জানিয়েছে ব্যবসায়ীদের শীর্ষ সংগঠন ফেডারেশন অব বাংলাদেশ চেম্বার্স অব কমার্স অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রি (এফবিসিসিআই)। এ সময় তুরস্কের প্রযুক্তি ও সম্ভাবনাময় শিল্প কারখানাগুলো বাংলাদেশে স্থাপনেরও আহ্বান জানানো হয়।

রাজধানীর মতিঝিলে এফবিসিসিআই ভবনে বুধবার তুরস্ক-বাংলাদেশ বিজনেস কাউন্সিল (টিবিবিসি) নেতৃবৃন্দের মধ্যে অনুষ্ঠিত এক আলোচনায় এফবিসিসিআইয়ের নেতারা এ আহ্বান জানান।

দ্বিপাক্ষিক আলোচনায় এফবিসিসিআই সভাপতি শফিউল ইসলাম বলেন, ‘গত কয়েক বছর ধরেই বাংলাদেশের প্রবৃদ্ধি ধারাবাহিকভাবে ৬ শতাংশের উপরে রয়েছে। যা গত দু’ বছরে ৭ শতাংশে উন্নীত হয়েছে। নিন্ম-মধ্যম আয়ের দেশ থেকে আগামী ২০২১ সালের মধ্যেই বাংলাদেশ মধ্যম আয়ের দেশে পরিণত হতে যাচ্ছে।’

এ সময় তিনি সরকারের দেওয়া আকর্ষণীয় বিনিয়োগ সুবিধা বিশেষত ট্যাক্স হলিডে, দ্বৈত কর ও করপোরেট করের সুবিধা গ্রহণ করে তুরস্কের ব্যবসায়ীদের বাংলাদেশের সম্ভাবনাময় খাতে বিনিয়োগের আহ্বান জানান। এক্ষেত্রে বিশেষ অর্থনৈতিক অঞ্চল বা অন্য অঞ্চলকেও তারা প্রাধান্য দিতে পারেন বলে উল্লেখ করেন তিনি।

আলোচনায় বাংলাদেশ ও তুরস্কের মধ্যে বিদ্যমান সম্পর্ক অত্যন্ত ইতিবাচক বলে উল্লেখ করেন তুরস্ক-বাংলাদেশ বিজনেস কাউন্সিলের চেয়ারপার্সন মিজ. লোরা গক পণ্য আমদানির বিষয়ে গভীর আগ্রহ প্রকাশ করেন। তিনি দ্বিপাক্ষিক বাণিজ্য আরও উন্নত করতে উভয়পক্ষকে নিবিড়ভাবে কাজ করার আহ্বান জানান।

এফবিসিসিআই সিনিয়র সহ-সভাপতি শেখ ফজলে ফাহিম বলেন, ‘এফবিসিসিআই ও টিবিবিসি’র সমঝোতা পর্যালোচনা করে ভবিষ্যৎ কর্মপন্থা নির্ধারণ করা হবে। এতে দু’ দেশের সম্ভাবনাময় বাজার ও বিনিয়োগের সম্ভাব্য খাতগুলো চিহ্নিত করা সম্ভব হবে।’ এ সময় তিনি বাংলাদেশের ক্রমবর্ধমান উন্নয়ন কর্মকাণ্ড আরও দ্রুততর করতে তুরস্কের প্রযুক্তি ও বিশেষজ্ঞ-জ্ঞান শেয়ারের ওপরও গুরুত্ব দেন।

দ্বিপাক্ষিক আলোচনায় বাংলাদেশে তুরস্ক দূতাবাসের কমার্শিয়াল কাউন্সিলর মি. মুরাত ইয়ারাত ও টিবিবিসির সহকারী সমন্বয়ক মিজ. তুলিন এ্যভসিসহ এফবিসিসিআইয়ের শীর্ষ নেতারা অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন।

সারাবাংলা/ইএইচটি/আইজেকে