মঙ্গলবার ২৩শে অক্টোবর, ২০১৮ ইং , ৮ই কার্তিক, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ, ১২ই সফর, ১৪৪০ হিজরী

হুট করে পাওয়া অধিনায়কত্ব নিয়ে ভাবছেন না মাহমুদউল্লাহ

ফেব্রুয়ারি ১৪, ২০১৮ | ৪:৩০ অপরাহ্ণ

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট

প্রশ্নটা করতে যেন কিছুটা বিব্রত হয়ে পড়লেন নিজেও। মাহমুদউল্লাহর জন্য ব্যাপারটা খুব একটা সুখকর হওয়ার কথা নয়। দুই দিন আগেও নিশ্চিত ছিলেন না, টি-টোয়েন্টির অধিনায়ক তিনিই থাকবেন। নিয়মিত সহ-অধিনায়ক হিসেবে তা তামিম ইকবালের কাছেও যেতে পারত। শেষ পর্যন্ত মাহমুদউল্লাহই আগামীকাল শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে দুই ম্যাচ টি-টোয়েন্টি সিরিজের প্রথম ম্যাচে টস করতে নামবেন।

সহ-অধিনায়ক হিসেবে টেস্টের দায়িত্বটা পাওয়ার কথা তারই। কিন্তু টি-টোয়েন্টিতে সহ-অধিনায়ক হিসেবে তা তামিমও পেতে পারতেন। এই সিরিজের আগে সহ-অধিনায়ক হিসেবে আনুষ্ঠানিকভাবে কিছু বলা না হলেও কয়েক মাস আগে বিসিবি সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন নিজেই বলেছিলেন, টি-টোয়েন্টিতে সহ-অধিনায়ক থাকছেন তামিম।

কাল অবশ্য তামিম সংবাদ সম্মেলনে এসে দাবি করে গেলেন, অধিনায়কত্ব কে পাচ্ছেন সেটা এমন কোনো বড় ব্যাপার নয়। তবে মাহমুদউল্লাহও মুখে বললেন, হুট করে অধিনায়কত্ব পাওয়ার ব্যাপারটা তার মাথায় ছিল না, ‘না, আমি ওভাবে জিনিসটা চিন্তা করি না। আমি শুধু দায়িত্বটাই পালন করার চেষ্টা করছি। টি-টোয়েন্টি শর্ট ফরম্যাটের ক্রিকেট। আপনি যদি স্কিলগুলো কাজে লাগাতে পারেন, সেটা গুড এনাফ । আমি নিজের দায়িত্বটা পালন করার চেষ্টা করব।’

টি-টোয়েন্টির অধিনায়কত্ব তার জন্য নতুন কিছু নয় অবশ্য। বিপিএলে গত তিন মৌসুম ধরেই নিয়মিত অধিনায়ক, সীমিত শক্তির দল নিয়েও প্রতিবারই নেতৃত্বের ঝলক দেখিয়েছেন। জাতীয় দলেও কি সেই মাহমুদউল্লাহকে দেখা যাবে? খুলনার অধিনায়কের কণ্ঠে সেই আত্মবিশ্বাস আছে ভালোমতোই, ‘যেহেতু আমি দায়িত্ব পেয়েছি আমি আমার তরফ থেকে চেষ্টা করব। যেভাবে চেষ্টা করি প্লেয়ারদের কাছ থেকে বেস্ট আউটপুট বের করে নেওয়ার।’

বিপিএলের কথা মনে করিয়ে দিতে নিজের অধিনায়কত্বের প্রসঙ্গও চলে এলো, ‘আপনি বিপিএলের কথা বললেন, আমি সব সময় বিশ্বাস করি টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটে আপনি যদি প্লেয়ারদের মোটিভেট ও ফ্রিডমটা না দিতে পারেন, পারফর্ম করার সুযোগ সেক্ষেত্রে অনেক কম। আমি চেষ্টা করব অফ দ্য ফিল্ড ও অন দ্য ফিল্ড সেইম জিনিসটা। আমাদের দলে যেহেতু নতুন মুখ আছে বেশ কজন। ওদের উপর যাতে কম চাপ দেওয়া যায়। ওদেরকে পারফর্ম করার সুযোগটা দেব। সেটা ছোট ইনফরমেশনের মাধ্যমে হোক, উপস্থিত বুদ্ধির মাধ্যমে হোক। দলে বেশ কজন অভিজ্ঞ প্লেয়ার আছে। আমরা সবাই মিলে চেষ্টা করব বেস্ট ক্রিকেটটা যেন খেলতে পারি।’

কথাবার্তায় যেমন পরিণত চিন্তার ছাপ আছে, অধিনায়ক হিসেবেও তো সেই মাহমুদউল্লাহকে দেখতে চাইবে বাংলাদেশ।

সারাবাংলা/এএম/এমআরপি

হুট করে পাওয়া অধিনায়কত্ব নিয়ে ভাবছেন না মাহমুদউল্লাহ
হুট করে পাওয়া অধিনায়কত্ব নিয়ে ভাবছেন না মাহমুদউল্লাহ
হুট করে পাওয়া অধিনায়কত্ব নিয়ে ভাবছেন না মাহমুদউল্লাহ