শনিবার ২০ জুলাই, ২০১৯ ইং , ৫ শ্রাবণ, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ, ১৬ জিলক্বদ, ১৪৪০ হিজরী

বিজ্ঞাপন

ক্যাট ফাইট!

সেপ্টেম্বর ১৫, ২০১৮ | ১:৪৪ অপরাহ্ণ

এন্টারটেইনমেন্ট ডেস্ক ।।

বলিউডের নায়িকাদের মধ্যে সম্পর্ক কেমন? সমালোচকরা বলেন, দেখা হলে পরস্পরের সঙ্গে তারা যে হাসি বিনিময় করেন তার বেশির ভাগই মেকি। অধিকাংশ ক্ষেত্রেই তাদের মধ্যে প্রতিযোগিতা এতটাই মারাত্মক রকমের যে, অনেকে একজন আরেকজনের মুখও দেখেন না। এমনকি একে অপরের সম্পর্কে বানিয়ে বলতেও পিছপা হন না তারা। কেউ আবার একজন আছেন শুনলে সেদিকে পা-ই মাড়ান না। বলিউডের তেমনই কিছু ‘ক্যাট ফাইট’-এর গল্প শোনা যাক।

ঝামেলার সূত্রপাত ‘অ্যায়েতরাজ’ ছবিকে ঘিরে। এরপর থেকে কারিনা কাপুর আর প্রিয়ঙ্কা চোপড়ার সম্পর্ক শীতল। ‘অ্যায়েতরাজ’ ছবিতে  পিগি চপস একটু বেশিই প্রশংসিত হয়েছিলেন। এরপর করিনা নাকি নানা জায়গায় বলেছিলেন, প্রিয়াঙ্কা ‘ফেক অ্যাকসেন্ট’ ব্যবহার করেন। অভিনয়টাই জানেন না।

বিজ্ঞাপন

অভিষেক বচ্চন আর রানি মুখার্জির প্রেমের খবর তো কম-বেশি সবার জানা। শোনা গিয়েছিল তারা বিয়েও করবেন। বচ্চন পরিবারও রানিকেই চেয়েছিল। কিন্তু তা হয়নি। শেষমেষ ঐশ্বরিয়া রাইয়ের সঙ্গে সাত পাকে বাঁধা পড়েন জুনিয়র বচ্চন। বিয়েতে ডাকতেও পারেননি রানিকে। অ্যাশ নাকি সেসময় হুমকি দিয়েছিলেন, রানির সঙ্গে যোগাযোগ রাখলে তিনি বিয়েই করবেন না অভিষেককে। এরপর থেকেই  রানি-অ্যাশের মুখ দেখাদেখি কার্যত বন্ধ।

ঝামেলার শুরু রণবীর কাপুরকে কেন্দ্র করে। সেসময় প্রেম করছেন রণবীর-দীপিকা। কিন্তু রণবীরের যে স্বভাব, সোনম কাপুরের সঙ্গেও ঘনিষ্টতা ছিল তার। বিষয়টি পছন্দ ছিল না দীপিকার। রণবীর কাপুরকে নিয়ে নাকি দু’জনের মধ্যে রীতিমতো ঝগড়া হয়েছিল, তাও মুখোমুখি! দীপিকার সঙ্গে রণবীরের সম্পর্কের কারণেই নাকি সোনম-রণবীরের ঘনিষ্ঠতা কমে গিয়েছিল বলে অভিযোগ করেন সোনম।

 

এখানেও রণবীর কাপুর। সোনমকে ঠেকাতে পারলেও ক্যাটরিনাকে ঠেকাতে পারলেন না দীপিকা। ক্যাটরিনার জন্যই নাকি দীপিকা আর রণবীরের প্রেম ভেঙে গিয়েছিল। তাই পরস্পরকে একেবারে সহ্য করতে পারেন না তারা।

প্রিয়াঙ্কা আর ক্যাটরিনার ঝামেলার শুরু এক অনুষ্ঠানের শো-স্টপার হওয়া নিয়ে। সেখানে ক্যাটরিনা শো স্টপার হলে প্রিয়াঙ্কা জানান, তিনি ছেড়ে দেওয়াতেই নাকি কাজ পেয়েছেন ক্যাট সুন্দরী। প্রিয়াঙ্কার মন্তব্যের কড়া জবাব দিতে ছাড়েননি ক্যাটরিনা। এরপর যা হবার তাই হলো। দুজনের সম্পর্কে তিক্ততার শুরু।

পুনম পান্ডে ঘোষণা দিয়েছিলেন, ভারতীয় দল ক্রিকেট বিশ্বকাপ জিতলে ‘স্ট্রিপ ডান্স’ করবেন। চিত্রাঙ্গদা তখন খোঁচা দিয়ে বলেছিলেন, পুনম কবাডি ম্যাচের জন্যও একই কাজ করতে পারেন। সব লোকের দৃষ্টি আকর্ষনের ফন্দি। এরপর এ নিয়ে সোশ্যাল মিডিয়ায় দু’জনের মধ্যে ভালই ঝামেলা বাঁধে। যা পরবর্তীতে দুজনের সম্পর্কেও প্রভাব ফেলে।

কারিনা কাপুর আর বিপাশা বসু পরস্পরকে নাকি এক্কেবারে সহ্য করতে পারেন না। ‘আজনবি’ ছবির সেটে করিনা নাকি চড় মেরেছিলেন বিপাশাকে। বলেছিলেন ‘কালি বিল্লি’।

কান চলচ্চিত্র উৎসবে একই ব্র্যান্ডের শুভেচ্ছা দূত হওয়া থেকে ঝামেলার শুরু। সোনম কাপুরতো ‘আন্টি’ বলে ডেকেছিলেন ঐশ্বরিয়া রাইকে। সোনমের মুখে আন্টি ডাক শোনার জন্য মোটেও প্রস্তুত ছিলেন না সাবেক বিশ্ব সুন্দরী অ্যাশ। সোনমের মন্তব্যে তিনি এতটাই ক্ষিপ্ত হয়েছিলেন যে সোনমের সঙ্গে রেড কার্পেটে হাঁটতেই অস্বীকার করেছিলেন।

সোনাক্ষী আর জারিন খানের মধ্যে খটোমটোর শুরু সামান্য একটা গান নিয়ে। ‘রেডি’ ছবিতে ‘ক্যারেকটার ঢিলা’ গানটিতে জারিন জনপ্রিয়তা পাওয়ায় সোনাক্ষী তুমুল ক্ষেপে গিয়েছিলেন। কারণ গানটি তিনি করতে চেয়েছিলেন।

জয়া বচ্চন আর রেখা। বি টাউনের সবচেয়ে বড় ক্যাট ফাইট বোধ হয় এই দুই অভিনেত্রীর মধ্যেই ছিল। আর অমিতাভের সঙ্গে রেখার সম্পর্কের গুঞ্জন শোনার পর থেকেই জয়া নাকি বিভিন্ন জায়গায় রেখার নামে নানা রকম কথা বলতেন। রেখাও নাকি জয়াকে একেবারেই পছন্দ করতেন না। এখন কি করেন? কে জানে! সময়তো আর কম গড়ায়নি।

বিদেশি পত্রিকা অবলম্বনে


আরও পড়ুন :  জাহ্নবী’র ব্যস্ত সূচী


সারাবাংলা/পিএম

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন