বিজ্ঞাপন

ইজতেমার প্রতি ইঞ্চি জায়গা সিসিটিভির আওতায় থাকবে: আইজিপি

February 13, 2019 | 5:27 pm

।। স্টাফ করেসপন্ডেন্ট ।।

বিজ্ঞাপন

টঙ্গী থেকে: বিশ্ব ইজতেমাকে ঘিরে যেন কোনো অপ্রীতিকর ঘটনা ঘটতে না পারে, সেজন্য মাঠ ও এর আশপাশের সব এলাকায় সিসিটিভি স্থাপন করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন পুলিশের মহাপরিদর্শক (আইজিপি) ড. মোহাম্মদ জাবেদ পাটোয়ারী। তিনি বলেন, ‘ইজতেমার প্রতি ইঞ্চি জায়গা আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর নজরদারিতে থাকবে।’ বুধবার (১৩ ফেব্রুয়ারি) দুপুরে টঙ্গীর পৌরসভা মাঠে ‘বিশ্ব ইজতেমা-২০১৯’ উপলক্ষে আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি নিয়ে আয়োজিত ফলোআপ সভায় তিনি এসব কথা বলেন।

আইজিপি বলেন, ‘ইজতেমায় এবার আমরা নিরাপত্তা ব্যবস্থা অন্যান্য বারের চেয়ে অনেকগুণ বাড়িয়েছি।  আমাদের নিরাপত্তা বাহিনী ইতোমধ্যে কাজ শুরু করেছে। সমস্ত টঙ্গীতে থাকবে নিরাপত্তা সিসিটিভি। এবার আমরা সিসিটিভি কাভারেজ অনেকগুণ বাড়িয়েছি। আপনারা মনে রাখবেন, দিনে ২৪ ঘণ্টা, সপ্তাহে ৭ দিনই সিসিটিভি কাভারেজের মাধ্যমে আপনাদের প্রত্যেকটি ইঞ্চি আমরা কাভার করার চেষ্টা করব।’

বিজ্ঞাপন

বিদেশি মেহমানদের প্রসঙ্গে আইজিপি বলেন, ‘বিদেশ থেকে যারা আসছেন, তাদের প্রত্যেকের তালিকা আমাদের কাছে আছে।  প্রতি মুহূর্তে তালিকা আপডেট করা হচ্ছে।  কাজেই নিরাপত্তা নিয়ে শঙ্কিত হওয়ার কোনো কারণ নেই।  এছাড়া সিসিটিভির বাইরে ওয়াচ টাওয়ারের র‌্যাবের হেলিকপ্টার টহল থাকবে। সাদা পোশাকে গোয়েন্দা নজরদারি শুরু হয়ে গেছে।  সবাই নিশ্চিন্তে ইজতেমা আসবেন।’

 আরও পড়ুন: ইজতেমা নিয়ে কেউ অপপ্রচার চালালে কঠোর ব্যবস্থা: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

বিজ্ঞাপন

এ সময়  র‌্যাবের ডিজি বেনজীর আহমেদ বলেন, ‘প্রতি বছর আমরা যেসব নিরাপত্তা নিয়ে কাজ করি। এবার তার চেয়ে বাড়তি নিরাপত্তা ব্যবস্থা থাকবে। ইজতেমাকে শান্তি-শৃঙ্খলার মধ্যে দিয়ে শেষ করতে সব প্রস্তুতি আমাদের আছে। কিন্তু আমার ডানে-বাঁয়ে যে দুই গ্রুপ বসে আছে, তাদের ওপর নির্ভর করছে ইজতেমা কতটুকু শান্তি শৃঙ্খলায় অনুষ্ঠিত হবে, তা।  তবে আমি স্পষ্ট করে বলতে চাই, কেউ যদি কোনো অনিয়ম করতে চায়, সেটি সঙ্গে সঙ্গে প্রতিহত করা হবে।’ কাজেই আপনারা সর্বাত্মকভাবে আমাদেরকে সহযোগীতা করুন। যাতে সুদৃঢ় মুসলিম হিসেবে বাংলাদেশের যে সুনাম সেটি অক্ষুণ্ন থাকে।

ফলো আপ সভায় যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী এবং স্থানীয় এমপি জাহিদ আহসান রাসেলের সঞ্চালনায় আরও উপস্থিত ছিলেন গাজীপুর সিটি মেয়র মো. জাহাঙ্গীর আলম, পুলিশ কমিশনার ওয়াইএম বেলালুর রহমান, তাবলিগের মাওলানা জোবায়েরপন্থীদের মধ্যে ইঞ্জিনিয়ার মেজবাহ উদ্দিন আহমেদ, মাহফুজুর রহমান, মুফতি নেছার উদ্দিন, মুফতি নূরুল ইসলাম ও মোস্তফা এবং সা’দপন্থীদের মধ্যে ইঞ্জিনিয়ার মুহিবুল্লাহ, হাজী মোহাম্মদ হোসেন, হারুন অর রশীদ, শহীদ উল্লা, মনির হোসেন, মুফতী ফয়সাল ও আতাউল্লাহ প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

বিজ্ঞাপন

সারাবাংলা/এসএইচ/এমএনএইচ

বিজ্ঞাপন

Tags:

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন