শনিবার ২৩ মার্চ, ২০১৯ ইং , ৯ চৈত্র, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ, ১৪ রজব, ১৪৪০ হিজরী

বিজ্ঞাপন

তামিম-রিয়াদদের নিয়ে কোয়াবের উদ্বেগ

মার্চ ১৫, ২০১৯ | ৭:১১ অপরাহ্ণ

।। স্পোর্টস করেসপন্ডেন্ট।।
ঢাকা: নিউজিল্যান্ডের ক্রাইস্টচার্চে মসজিদে সন্ত্রাসী হামলার ঘটনায় তীব্র নিন্দা ও গভীর উদ্বেগ জানিয়েছে ক্রিকেটার্স ওয়েলফেয়ার এসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ (কোয়াব)। এবং দ্রুত বাংলাদেশি ক্রিকেটারদের দেশে ফিরিয়ে আনার আহ্বান জানিয়েছে ক্রিকেট সংগঠনটি।

আজ শুক্রবার (১৫ মার্চ) সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে কোয়াব জানায়, ‘আজ নিউজিল্যান্ডের স্থানীয় সময় দুপুরে ১টা ৪০ মিনিটে জুম্মার নামাজ আদায়ের উদ্দেশ্যে দলের সিনিয়র ক্রিকেটাররা টিম বাসযোগে স্থানীয় সেই মসজিদের কাছাকাছি পৌঁছে গিয়েছিলেন। কিন্তু ভাগ্য সুপ্রসন্ন বলতে হয় যে, ঘটনা ঘটার কিছু সময় পর তারা (তামিম-মুশফিক-মাহমুদউল্লারা) সেখানে গিয়ে এমন পরিস্থিতি দেখে দ্রুত মসজিদস্থল ত্যাগ করে ছিলেন।’

`আমরা জানতে পেরেছি তারা প্রাথমিকভাবে ম্যাচ ভেন্যু’র ড্রেসিং রুমে আশ্রয় নিয়েছিলেন। পরে স্থানীয় নিরাপত্তা বাহিনীর নিরাপত্তা সহয়তায় টিম গাড়ি বহরযোগে হোটেলে পৌঁছেছে বাংলাদেশ ক্রিকেট দল। আমরা এখন পর্যন্ত জানতে পেরেছি এ ঘটনায় অন্তত ৪০ জন মানুষ নিহত হয়েছেন। যাদের মধ্যে দুইজন বাংলাদেশি নাগরিকের নিহত হওয়ার কথা জানতে পেরেছি।‘

হতাহতের এ খবরে শোক প্রকাশ করেছে কোয়াব। বন্ধুকধারীর এমন হীন হামলায় যারা প্রাণ হারিয়েছেন, তাদের পরিবারের প্রতি গভীর শোক প্রকাশ করছে কোয়াব। এছাড়াও শোকসন্তপ্ত প্রতিটি পরিবারের প্রতি গভীর সমবেদনা জানিয়েছে সংগঠনটি।

কোয়াব এই ভেবে আরো উদ্বিগ্ন যে, অল্পের জন্য বাংলাদেশের দলের ক্রিকেটাররা নিশ্চিত বন্ধুকধারীর গুলির আক্রমনের কবল থেকে রক্ষা পেয়েছেন। এ জন্য সৃষ্টার কাছে কৃপাধন্য কোয়াব।

বিজ্ঞাপন

ক্রাইস্টচার্চের উদ্ভূত এই পরিস্থিতিতে দ্রুতই ক্রিকেটারদের দেশে ফিরিয়ে আনার জন্য সবরকম ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি) ও সংশ্লিষ্ট রাষ্ট্রীয় কর্তা-ব্যক্তিদের আহ্বান জানিয়েছে কোয়াব।

ক্রিকেটাররা আমাদের দেশের জাতীয় সম্পদ। তাদের নিরাপত্তা ও নিরাপদ রাখার জন্য সব রকম প্রস্তুতি গ্রহণ প্রয়োজন। ইতোমধ্যে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড ও নিউজিল্যান্ড ক্রিকেট বোর্ড যৌথভাবে আগামীকালের তৃতীয় ও শেষ টেষ্ট ম্যাচটি না খেলার সিন্ধান্ত নিয়েছে। উদ্বূত পরিস্থিতিতে ম্যাচটি পরিত্যক্ত ঘোষণা করেছে কিউই বোর্ড।

এই ঘটনায় আন্তর্জাতিক ক্রিকেট সংস্থা `আইসিসির‘ দৃষ্টি আকর্ষণ করে কোয়াব আহ্বান জানায়, `ক্রিকেটের নিয়ন্ত্রক সংস্থা-‘আইসিসি’ সামনের দ্বিপক্ষীয় কোনো ক্রিকেট সিরিজ অথবা বৈশ্বিক কোনো ক্রিকেট টুর্নামেন্টে ক্রিকেটারদের নিরাপত্তা দেয়ার নিশ্চিয়তা ব্যাপারে জোড়ালো ভূমিকা রাখবে। আশা করি ‘আইসিসি’ ক্রিকেটারদের আন্তর্জাতিক সংগঠন ‘ফেডারেশন অব ইন্টারন্যাশনাল ক্রিকেটারর্স এসোসিয়েশন (ফিকা)কে সঙ্গে নিয়ে নিরাপত্তা ও নিরাপদ রাখার ব্যাপারগুলো নিয়ে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিবে। কেননা খেলার মাঠে ক্রিকেটারদের নিরাপত্তা ও নিরাপদ রাখার নিশ্চিয়তা সবার আগে।‘

সারাবাংলা/জেএইচ

তামিম-রিয়াদদের নিয়ে কোয়াবের উদ্বেগ
বিজ্ঞাপন

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন