বিজ্ঞাপন

৬৮ লাখ টাকার ভ্যাট ফাঁকি, সাভারে বনফুলের বিরুদ্ধে মামলা

April 2, 2019 | 8:01 pm

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট

ঢাকা: সাভারের বনফুল মিষ্টি দোকানের বিপুল পরিমাণে ভ্যাট ফাঁকির তথ্য উদঘাটন করেছে ঢাকা পশ্চিম ভ্যাট কমিশনারেটের একটি দল। প্রতিষ্ঠানটির ২০১৩ থেকে ২০১৮ সালের অডিট রিপোর্টে ৬৮ লাখ টাকার ভ্যাট ফাঁকির তথ্য পাওয়া গেছে। সুদে-আসলে এখন প্রতিষ্ঠানটিকে এক কোটি টাকা পরিশোধ করতে হবে। ভ্যাট ফাঁকির অভিযোগে বনফুল মিষ্টির বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করা হয়েছে।

বিজ্ঞাপন

মঙ্গলবার (২ এপ্রিল) বিকেলে সারাবাংলাকে এসব তথ্য নিশ্চিত করেছেন ঢাকা পশ্চিম ভ্যাট কমিশনারেটের কমিশনার ড. মইনুল খান।

তিনি জানান, বনফুলের মিষ্টির দোকানটি জামুর, রিশিপারা, হেমায়েতপুর, সাভারে অবস্থিত। ডেপুটি কমিশনার ফেরদৌসী মাহবুবের নেতৃত্বে গঠিত অডিট দল প্রতিষ্ঠানটিতে গত তিন বছরের নিরীক্ষা করা হয়। এতে দেখা যায়, বনফুল মিষ্টির দোকান বিভিন্ন সময়ে মিষ্টি ও বেকারি বিস্কুট তৈরিতে বিভিন্ন ধরনের উপকরণ কিনেছে, কিন্তু অধিকাংশ ক্ষেত্রেই সেগুলোতে ভ্যাট দেয়নি।

বিজ্ঞাপন

মইনুল খান আরও জানান, অডিট রিপোর্টে আরও দেখা যায়, কোম্পানির ফান্ড থেকে বিভিন্ন স্থাপনা, নির্মাণ ও ব্যবস্থাপনা সংক্রান্তে খরচের উপরও উৎসে ভ্যাট কর্তন করেনি। অডিট রিপোর্টে মোট ভ্যাট ফাঁকির পরিমাণ দাঁড়িয়েছে ৬৮ লাখ টাকা। সময়মতো ভ্যাট পরিশোধ না করায় ভ্যাট আইনের ধারা ৩৭ অনুযায়ী মাসিক ২ শতাংশ হারে সুদ আদায়যোগ্য প্রায় ৩২ লাখ টাকা। সুদসহ প্রতিষ্ঠানটিকে এক কোটি টাকা পরিশোধ করতে হবে। নিরীক্ষার সময়কাল জানুয়ারি ২০১৩ থেকে জুন ২০১৮ বলে জানান তিনি।

মইনুল খান জানান, ঢাকা পশ্চিম ভ্যাট কর্তৃপক্ষ অডিট রিপোর্টের আলোকে আজ দাবিনামা সম্বলিত নোটিশ জারি করেছে। একইসঙ্গে প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে ভ্যাট ফাঁকির অভিযোগে মামলা দায়ের করা হয়েছে।

সারাবাংলা/এসজে/টিআর

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন