বিজ্ঞাপন

বিরতি থেকে ফিরে আবাহনী ও আরামবাগের জয়

April 8, 2019 | 8:10 pm

স্পোর্টস করেসপন্ডেন্ট

প্রায় এক মাসের বিরতি থেকে ফিরেই জয় পেয়েছে ঢাকা আবাহনী ও আরামবাগ ক্রীড়া সংঘ। বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগ ফুটবলের (বিপিএল) ১০ম রাউন্ডে হোম ম্যাচে তিন পয়েন্ট নিয়েই মাঠ ছেড়েছে দুই দল। বিপিএলের ডিফেন্ডিং চ্যাম্পিয়নরা নেপালের মানাং মার্শিয়াংদিকে হারিয়ে লিগে ফিরে জয়ের ধারা অব্যাহত রেখেছে। চট্টগ্রাম আবাহনীকে ২-০ গোলে হারায় ঢাকা আবাহনী। আর টিম বিজেএমসিকে ২-১ গোলে হারায় আরামবাগ।

বিজ্ঞাপন

সোমবার (৮ এপ্রিল) বঙ্গবন্ধু জাতীয় স্টেডিয়ামে বৃষ্টির মধ্যেই দুই আবাহনীর লড়াই শুরু হয়। প্রথমার্ধেই ম্যাচ পকেটে পুড়ে নেয় ঢাকা আবাহনী। গোলের যাত্রা শুরু করেন নবীব নেওয়াজ জীবন। ১১ মিনিটে মিন ইয়োকের পাস থেকে বল জালে জড়িয়ে লিড নেয় ধানমন্ডির জায়ান্টরা। আক্রমণের ধার বাড়িয়ে ৯ মিনিটের মাথায় ব্যবধান দ্বিগুণ করে মারিও লেমসের শিষ্যরা। এবার জীবনের পাস থেকে সানডে সিজোবার গোল। এই দুই গোলেই পরাস্ত বন্দরনগরীর দল চট্টগ্রাম আবাহনী।

এদিকে, ময়মনসিংহের রফিক উদ্দিন ভূইয়া স্টেডিয়ামে পল এমিল ও রবিউল হাসানের গোলে বিজেএমসিকে ২-১ ব্যবধানে হারায় আরামবাগ ক্রীড়া সংঘ। শেষ দিকে বিজেএমসির ব্যবধান কমানো গোলটি পেনাল্টি থেকে করেন স্যামসন ইলিয়াসু।

বিজ্ঞাপন

ফলে, ঘরের মাঠে জয় নিয়েই মাঠ ছেড়েছে আরামবাগ ক্রীড়া সংঘ। ম্যাচের পুরো আলো কেড়েছেন রবিউল হাসান। কম্বোডিয়ার বিপক্ষে একমাত্র গোলদাতা বাংলাদেশ জাতীয় দলের এই তরুণ ফুটবলার গোল করার পাশাপাশি সতীর্থদের দিয়ে গোল করিয়েছেন।

বিরতি থেকে ফিরে আবাহনী ও আরামবাগের জয়

বিজ্ঞাপন

ম্যাচের চার মিনিটের মাথায় টিম বিজেএমসির জালে বল জড়িয়েছে আরামবাগ। রবিউলের পাস থেকে জালের দেখা পান পল এমিল। মতিঝিলের ক্লাবটির দ্বিতীয় গোলটি এসেছে তার চার মিনিট পরেই। ৮ মিনিটের মাথায় এবার রকির পাস থেকে দুর্দান্ত গোল করেন অধিনায়ক রবিউল। তাতে ব্যবধান দ্বিগুণ হলেও শঙ্কা কাটেনি মারুফুল হকের শিষ্যদের। ৮১ মিনিটে স্যামসন ইলিয়াসুর পেনাল্টি থেকে গোল ভয় ধরিয়ে দেয় আরামবাগ শিবিরে। তবে শেষ পর্যন্ত তিন পয়েন্ট নিয়েই রফিক উদ্দীন ভূঁইয়া স্টেডিয়াম ছাড়েন রবিউলরা।

এ জয়ে পূর্ণ তিন পয়েন্ট নিয়ে টেবিলে নিজেদের অবস্থান সুসংহত রেখেছে ঢাকা আবাহনী। দুইয়ে অবস্থান করছে আকাশী-হলুদরা। চট্টগ্রাম আবাহনী আছে ৮ এ। অন্যদিকে পাঁচে উঠে এলো আরামবাগ। এ হারে তলানিতেই থাকতে হচ্ছে টিম বিজেএসিকে।

বিজ্ঞাপন

সারাবাংলা/জেএইচ/এমআরপি

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন