শনিবার ২৫ মে, ২০১৯ ইং , ১১ জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ, ১৯ রমজান, ১৪৪০ হিজরী

বিজ্ঞাপন

এশিয়ায় একীভূত হচ্ছে টেলিনর-আজিয়াটা

মে ৬, ২০১৯ | ৭:২০ অপরাহ্ণ

আন্তর্জাতিক ডেস্ক

মালয়েশিয়া-ভিত্তিক টেলিকম গ্রুপ আজিয়াটার সঙ্গে মিলে একক প্রতিষ্ঠান হিসেবে এশিয়ায় ব্যবসা পরিচালনার বিষয়ে আলোচনা শুরু করেছে নরওয়েজিয়ান-ভিত্তিক টেলিকম অপারেটর টেলিনর। সোমবার (৬ মে) একথা জানিয়েছে টেলিনর। আলোচনা সফল হলে নতুন একীভূত প্রতিষ্ঠানটি নয় দেশে ব্যবসা পরিচালনা করবে। খবর বার্তা সংস্থা এএফপির।

বাংলাদেশের দুই প্রধান মোবাইল অপারেটরের মালিকানা-প্রতিষ্ঠান হচ্ছে টেলিনর ও আজিয়াটা। এর মধ্যে বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় মোবাইল ফোন অপারেটর গ্রামীণফোনের মূল প্রতিষ্ঠান হচ্ছে টেলিনর। আর গ্রাহক সংখ্যায় দ্বিতীয় অবস্থানে থাকা মোবাইল ফোন অপারেটর আজিয়াটার নিয়ন্ত্রণে রয়েছে রবি।

এক বিবৃতিতে টেলিনর জানিয়েছে, আজিয়াটার সঙ্গে আলোচনা সফল হলে, এশিয়ায় একটি একক কোম্পানি হিসেবে আত্মপ্রকাশ করবে তারা। নতুন অবকাঠামো, একীভূত সেবা নিয়ে নয় দেশে ব্যবসা পরিচালনা করবে তারা। ওই প্রতিষ্ঠানের ৫৬.৫ শতাংশের মালিক হবে টেলিনর ও ৪৩.৫ শতাংশের মালিক হবে আজিয়াটা। তবে এই সংখ্যায় পরিবর্তন আসতে পারে।

বিজ্ঞাপন

উল্লেখ্য, নরডিক দেশগুলো ও এশিয়ার পাশাপাশি ইউরোপের পূর্বাঞ্চলেও ব্যবসা পরিচালনা করে টেলিনর। প্রতিষ্ঠানটি জানিয়েছে, নতুন যৌথ ব্যবসার গ্রাহক হবেন প্রায় ৩০ কোটি মানুষ। এতে একীভূত প্রতিষ্ঠানটি হবে এশিয়ার সবচেয়ে বড় টেলিকম অপারেটর প্রতিষ্ঠানগুলোর একটি।

টেলিনর গ্রুপের চেয়ারম্যান গুন ওয়েরস্টেড বিবৃতিতে বলেন, একসঙ্গে আমরা একটি শীর্ষ ও বৈচিত্রতাপূর্ণ প্যান-এশিয়ান টেলিকম ও অবকাঠামো প্রতিষ্ঠান গড়ার লক্ষ্যে আলোচনায় বসছি।

বর্তমানে এশিয়ার মধ্যে বাংলাদেশ, থাইল্যান্ড, পাকিস্তান ও মিয়ানমারে ব্যবসা রয়েছে টেলিনরের। অন্যদিকে আজিয়াটার ব্যবসা রয়েছে মালয়েশিয়া, বাংলাদেশ, কম্বোডিয়া, নেপাল, শ্রীলংকা ও ইন্দোনেশিয়ায়।

উল্লেখ্য, আজিয়াটার আওতাধীন রবি, নতুন এই চুক্তির বাইরে থাকবে। বাংলাদেশে রবির ব্যবসা আজিয়াটা স্বাধীনভাবে তাদের ব্যবসা পরিচালনা করতে পারবে।

যৌথ মালিকানার নতুন প্রতিষ্ঠানটির সদরদফতর স্থাপন করা হবে মালয়েশিয়ার রাজধানী কুয়ালালামপুরে। একীভূত হলে তারা একসঙ্গে ৬০ হাজার মোবাইল টাওয়ার পরিচালনা করবে।

সোমবার এই ঘোষণার পর আজিয়াটার শেয়ারের দাম ২.৩ শতাংশ বৃদ্ধি পেয়েছে।

সারাবাংলা/আরএ

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন