শনিবার ২৫ মে, ২০১৯ ইং , ১১ জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ, ১৯ রমজান, ১৪৪০ হিজরী

বিজ্ঞাপন

ইফতারে পুরান ঢাকার ঐতিহ্য

মে ৭, ২০১৯ | ৫:১৮ অপরাহ্ণ

চার শতাব্দির ঢাকা শহরের ইফতারে ইতিহাসটাও সমবয়সী। ঐতিহ্যবাহী এই ইফতারিগুলো এখন শুধু পুরান ঢাকাতেই পাওয়া যায়। আর পুরান ঢাকা মানেই চকবাজার, রায়সাহেব বাজার ও নাজিরাবাজার। পুরো রমজান মাসজুড়ে এসব বাজারে পাওয়া যাবে মজাদার সব ইফতার। এগুলোর মধ্যে রয়েছে, আস্ত মুরগির কাবাব, মোরগ মুসাল্লম, বটিকাবাব, টিকাকাবাব, কোফ্তা, চিকেন কাঠি, শামিকাবাব, শিকের ভারী কাবাব, সুতিকাবাব, কোয়েল পাখির রোস্ট, কবুতরের রোস্ট, জিলাপি, শাহি জিলাপি, নিমকপারা, সমুচা, আলাউদ্দিনের হালুয়া, হালিম, দইবড়া, সৌদি পানীয় লাবাং, কাশ্মীরি সরবত, ইসবগুলের ভুসি ও ৩৬ উপকরণের মজাদার ‘খাবার বড়বাপের পোলারা খায়’সহ হরেক পদ। পুরান ঢাকার ঐতিহ্যবাহী ইফতারি বাজারের ছবিগুলো তুলেছেন সারাবাংলার ফটো করেসপন্ডেন্ট সুমিত আহমেদ

নানা জাতের মুরগির রোস্টের মধ্যে দেশি মুরগি ৩০০ টাকা, পাকিস্তানি ও ব্রয়লার মুরগির রোস্ট ২২০ থেকে ২৫০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে।

রয়েছে হরেক পদের কাবাব।

 

কোয়েল পাখির রোস্ট বিক্রি হচ্ছে প্রতি পিস ৬০ টাকায়।

 

পাওয়া যায় বিভিন্ন ধরণের কোফতা, কাবাব ও চপ।

 

দুপুরের পর থেকে ইফতার কিনতে ভিড় করে ক্রেতারা।

 

বড় বাপের পোলারা খায় বিক্রি হচ্ছে প্রতি কেজি ৫০০ টাকা করে

 

প্রচণ্ড গরমে ইফতার তালিকায় ফলের চাহিদাও রয়েছে প্রচুর

 

 

 

 

সারাবাংলা/এমআই

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন