মঙ্গলবার ১২ নভেম্বর, ২০১৯ ইং , ২৮ কার্তিক, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ, ১৪ রবিউল-আউয়াল, ১৪৪১ হিজরি

বিজ্ঞাপন

‘খালেদা জিয়ার মুক্তির বিষয়ে সংসদে জোরালো ভূমিকা রাখবো’

মে ২০, ২০১৯ | ৫:৪৪ অপরাহ্ণ

স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট

ঢাকা: বিএনপির সহ-আন্তর্জাতিক বিষয়ক সম্পাদক ও সংরক্ষিত নারী আসনের প্রার্থী ব্যারিস্টার রুমিন ফারহানা বলেছেন, মামলার মেরিট বিবেচনায় বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া তাৎক্ষণিক জামিন পাওয়ার যোগ্য। অথচ তাকে অন্যায়ভাবে আটক রাখা হয়েছে। তাই সংসদে গিয়ে খালেদা জিয়ার মুক্তির বিষয়ে জোরালো ভূমিকা রাখবো।

বিজ্ঞাপন

সোমবার (২০ মে) নির্বাচন কমিশনে মনোনয়নপত্র জমা দেওয়া শেষে সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপকালে তিনি এ কথা বলেন।

রুমিন ফারহানা বলেন, ‘বেগম খালেদা সত্তোর্ধ্ব একজন মানুষ, যিনি তিনবারের সাবেক প্রধানমন্ত্রী এবং বাংলাদেশের একমাত্র নেত্রী যিনি কোনোদিন কোনো আসন থেকে নির্বাচনে পরাজিত হননি। বাংলাদেশের আরেক নাম এখন বেগম খালেদা জিয়া। তার আশুমুক্তির জন্য আমরা আমাদের সর্বাত্মক চেষ্টা চালিয়ে যাব।’

বাংলাদেশ এখন গণতন্ত্রহীনতায় ভুগছে উল্লেখ করে তিনি বলেন, ‘নির্বাচন কমিশন কিভাবে একটা নির্বাচন করছে, দেশবাসী তা দেখেছেন। বাংলাদেশের মানুষ এখন তার ভোটের অধিকারবঞ্চিত। বাংলাদেশের মানুষ আজ কথা বলতে ভয় পাই, তাদের বাক স্বাধীনতা, চিন্তার স্বাধীনতা কেড়ে নেওয়া হয়েছে। এই বিষয়গুলো নিয়ে আমি সংসদে কাজ করবো।’

বিএনপির মাত্র ৭ জন সংসদ সদস্য সংসদে কতটুকু জোরালো ভূমিকা রাখতে পারবেন এমন প্রশ্নে রুমিন ফারহানা বলেন, ‘বাংলাদেশের সংবিধানই এমন, ১৪৯টি আসনে জয়লাভ করলেও কোনো পরিবর্তন আনার সুযোগ নেই। যতক্ষণ না পর্যন্ত আপনি ১৫১টি আসন না পাচ্ছেন। সুতরাং সাতটি আসন কম হলেও আমরা সংসদে আমাদের কথা বলবো, সোচ্চার থাকবো। প্রতিদিনের অনিয়ম-অনাচার জনগণের দুর্ভোগ মানুষের অধিকার নিয়ে আমরা সংসদে কথা বলবো।’

খালেদা জিয়ার মুক্তির বিষয়ে সংসদে কতটুকু ভূমিকা রাখতে পারবেন এমন প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, ‘সংসদে আমরা বলার যে সুযোগটা পাব, সীমিত সে সুযোগের পূর্ণ ব্যবহার করবো। খালেদা জিয়াকে অন্যায়ভাবে রাজনৈতিক মামলায় আটক রাখা হয়েছে এবং সরকারের সবোর্চ্চ মহল থেকে একপ্রকারে তা স্বীকারও করে নেওয়া হয়েছে। ফলে তার মুক্তি সরকারের হাতে।’

মনোনয়নপত্র জমা দিলেন রুমিন ফারহানা

রুমিন ফারহানা আরও বলেন, ‘যে দায়িত্ব আমাকে দেওয়া হয়েছে সেজন্য আমি বিএনপির চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া এবং বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমান এবং বিএনপির শীর্ষ নেতাদের কাছে কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করছি। আমি সততার সঙ্গে নিষ্ঠার সঙ্গে এই দায়িত্ব পালন করবো।’

এর আগে, দুপুরে জাতীয় সংসদের সংরক্ষিত নারী আসনের জন্য মনোনয়নপত্র জমা দেন বিএনপির সহ-আন্তর্জাতিক বিষয়ক সম্পাদক ব্যারিস্টার রুমিন ফারহানা। এসময় বিএনপি চেয়ারপারসনের মিডিয়া উইং কর্মকর্তা শায়রুল কবির খান তার সঙ্গে উপস্থিত ছিলেন

সারাবাংলা/জিএস/এমও

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
গণতন্ত্রের জীবন্ত পোস্টার নূর হোসেনডেঙ্গু নিয়ন্ত্রণে ব্যর্থতা খুঁজতে বিচার বিভাগীয় তদন্তের নির্দেশ৮ ডিসেম্বর জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার প্রদান করবেন প্রধানমন্ত্রীসৌদি আরবে নারীদের না পাঠানোর দাবি, ঘেরাও কর্মসূচিতে পুলিশের বাধামালয়েশিয়ায় শ্রমবাজার চালুর সিদ্ধান্ত আসতে পারে নভেম্বরের শেষেচট্টগ্রামের সেই আওয়ামী লীগ নেতা ফের কারাগারেম্যাচ ফিক্সিংয়ে জড়িতদের শ্রীলঙ্কায় ১০ বছর কারদণ্ড!‘বাংলাদেশের কর্মক্ষম জনশক্তিই বিনিয়োগের মূল আকর্ষণ’কণ্ঠ: শুধু সিনেমা নয়, একটি হেরে না যাওয়ার গল্পচট্টগ্রাম-সিলেটের সঙ্গে ট্রেন চলাচল শুরু, ৮ ট্রেনের সূচিতে বিঘ্ন সব খবর...
বিজ্ঞাপন