সোমবার ১৬ সেপ্টেম্বর, ২০১৯ ইং , ১ আশ্বিন, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ, ১৬ মুহাররম, ১৪৪১ হিজরি

বিজ্ঞাপন

খেলা দেখার জন্য কিডনি বিক্রি!

জুন ১৩, ২০১৯ | ৫:২৮ অপরাহ্ণ

বিশ্বকাপ ডেস্ক

বিশ্বকাপে প্রিয় দলের খেলা দেখার জন্য অনেক ভক্তই অনেক কিছু করে থাকেন। কেউ মাঠে গিয়ে দলকে অনুপ্রেরণা দেন, আবার কেউ ঘরে বসে প্রার্থণা করেন প্রিয় দলের জয়ের জন্য। কিন্তু বিশ্বকাপে প্রিয় দলের খেলা দেখতে যাওয়ার জন্য নিজের কিডনি বিক্রি করে দিতে চাওয়া ক্রিকেট ভক্ত বিশ্বে এখন পর্যন্ত একজনই। শুধু তাই নয়, স্টেডিয়ামে গিয়ে খেলা দেখতে না পারলে আত্মহত্যা করার হুমকিও দিয়েছিলেন সেই ভক্ত।

বিজ্ঞাপন

২০০৭ সালের ১৩ মার্চ ওয়েস্ট ইন্ডিজে অনুষ্ঠিত নবম বিশ্বকাপের শুরুতে ভারতের খেলা দেখতে যাওয়ার জন্য এমনটাই ইচ্ছে প্রকাশ করেছিলেন ভারতের ঝাড়খণ্ডের জামশেদপুরের তরুণ শর্মা।

মহেন্দ্র সিং ধোনি ও ইরফান পাঠানের ভক্ত তরুণ শর্মা কাজ করতেন একটি শাড়ির দোকানের কর্মচারি হিসেবে। যার মাসিক ইনকাম ছিল ৩০০০ রুপি। ওয়েস্ট ইন্ডিজ বিশ্বকাপের খেলা দেখতে যাওয়ার জন্য খরচ হিসেবে তরুণ শর্মাকে একটি ট্রাভেল এজেন্সি আট রাতের খরচ হিসেবে মোট ২,৫০,০০০ রুপি দিতে হবে বলে জানায়।

নিজের সামর্থ্যের বাইরে হওয়াতে তখন তরুণ শর্মা ঘোষণা দিয়ে জানান, তিনি ভারতের ক্রিকেটের কোনো মুহূর্ত মিস করতে চান না। আর তাই তার একটি কিডনি তিনি বিক্রি করতে চান বলে জানান সংবাদমাধ্যমকে। তিনি বলেন, ‘যে কেউ একটি কিডনির সাহায্যে বাঁচতে পারেন। কিন্তু ওয়েস্ট ইন্ডিজে গিয়ে ভারতের বিশ্বকাপ ম্যাচ দেখার সুযোগ সবাই সবসময় পাবে না।’

তিনি আরও জানান, তাকে যদি কিডনি বিক্রি করতে দেওয়া না হয় তাহলে আত্মহত্যা করবেন।

বিজ্ঞাপন

ফ্রান্সের এক গণমাধ্যমকে এই ক্রিকেট ভক্ত ফোনে জানান, যদি খেলা দেখার কোনো ব্যবস্থা না হয় তবে তিনি নদীতে ঝাপ দিয়ে আত্মাহুতি দেবেন।

ভারতের আইন অনুযায়ী, অনুমতি নিয়ে কিডনি প্রতিস্থাপন শুধুমাত্র আত্মীয়তার মাঝেই করা যাবে। এছাড়া কোনোভাবেই কিডনি ক্রয়-বিক্রয় করা ভারতের আইনে সম্পূর্ণভাবে বেআইনী। এমন আইনের কথা তরুণ শর্মাকে জানানো হলে তিনি বলেন, ‘এমন আইন বানানো হয় যাতে মানুষকে তার স্বপ্ন পূরণ থেকে দূরে রাখা যায়। আমি নিশ্চিত ভারত এবার বিশ্বকাপ জিতবে। একজন ভক্ত হিসেবে নিজের দেশকে বিশ্বকাপ শিরোপা জিততে দেখার চাইতে বড় আর কি হতে পারে?’

ভারতীয় ও আন্তর্জাতিক গণমাধ্যমে এই সংবাদ প্রচার হলে তরুণ শর্মাকে ঘিরে সেখানকার স্থানীয় পুলিশ নেয় বাড়তি নিরাপত্তা ব্যবস্থা। স্থানীয় পুলিশ কর্মকর্তা এফ কে এন কুজুর তখন সাংবাদিকদের বলেন, ‘আমরা পুরো বিষয়টাতে নজর রেখে যাচ্ছি। আইন বিরুদ্ধ কোনো কিছুই আমরা হতে দিবো না।’

তরুণ শর্মা নিজের বাসার সামনেও একটি দান বাক্স রাখেন যাতে তার স্বপ্ন পূরণে সবাই তাকে সাহায্য করে।

উল্লেখ্য, ২০০৭ সালের ১৭ মার্চ ভারত নিজেদের প্রথম ম্যাচে বাংলাদেশের বিপক্ষে নামে। সেই ম্যাচে বাংলাদেশ ভারতকে ৫ উইকেটে হারিয়ে দেয়। এর পরে বারমুডাকে হারালেও শ্রীলঙ্কার কাছে হেরে গ্রুপ পর্ব থেকেই বিদায় নেয় ভারত।

বাংলাদেশের দর্শকরা বিশ্বকাপের সব ম্যাচ অনলাইনে কোনো ধরনের সাবস্ক্রিপশন ফি বা চার্জ ছাড়াই দেখতে পারবেন র‍্যাবিটহোলের ওয়েবসাইট www.rabbitholebd.com-এ। এছাড়া র‍্যাবিটহোলের অ্যাপেও দেখা যাবে প্রতিটি ম্যাচ। অ্যাপটি অ্যান্ড্রয়েড ব্যবহারকারীরা ডাউনলোড করতে পারবেন https://goo.gl/UNCWS2 (শুধুমাত্র বাংলাদেশ) এই লিংকে ক্লিক করে। তাছাড়া আইওএস ব্যবহারকারীরা ডাউনলোড করতে পারবেন https://goo.gl/vJjyyL (শুধুমাত্র বাংলাদেশ) এই লিংকে ক্লিক করে।

সারাবাংলা/এসবি/এমআরপি

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন