বুধবার ১৭ জুলাই, ২০১৯ ইং , ২ শ্রাবণ, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ, ১৩ জিলক্বদ, ১৪৪০ হিজরী

বিজ্ঞাপন

ডিআইজি মিজান ও বাছিরকে দুদকে তলব

জুন ২৪, ২০১৯ | ৯:১১ অপরাহ্ণ

ঢাকা: ঘুষ কেলেঙ্কারির অভিযোগ খতিয়ে দেখতে পুলিশের আলোচিত উপ-মহাপরিদর্শক (ডিআইজি) মিজানুর রহমান ও দুর্নীতি দমন কমিশনের (দুদক) সাময়িক বরখাস্তকৃত পরিচালক এনামুল বাছিরকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য তলব করেছে দুদক।

সোমবার (২৪ জুন) রাতে দুদকের উপ-পরিচালক ও জনসংযোগ কর্মকর্তা প্রণব কুমার ভট্টাচার্য সারাবাংলাকে তথ্যটি জানিয়েছেন।

প্রণব কুমার ভট্টাচার্য জানান, সোমবার বিকেলে এক তলবি নোটিশে তাদেরকে আগামী ১ জুলাই দুদকের প্রধান কাযার্লয়ে হাজির হতে বলা হয়েছে। ওইদিন ঘুষের সত্যতা জানতে তাদেরকে জিজ্ঞাসাবাদ করা হবে। দুদকের পরিচালক শেখ মো. ফানাফিল্লা, সহকারী পরিচালক গুলশান আনোয়ার প্রধান ও সালাহউদ্দিন আহমেদ অভিযোগটি অনুসন্ধান করছেন। অবৈধ সম্পদ অর্জনের অভিযোগে ডিআইজি মিজানের অভিযোগের তদন্ত করছিলেন দুদকের পরিচালক এনামুল বাছির। এরই মধ্যে এনামুল বাছির বিরুদ্ধে ডিআইজি মিজান ৪০ লাখ টাকা ঘুষ নেওয়ার অভিযোগ করেন। এপরিপ্রেক্ষিতে দুদক অভিযোগ তদন্তে একটি কমিটি গঠন করে এনামুল বাছিরকে সাময়িক বরখাস্ত করে। যদিও পরিচালক এনামুল বাছির দাবি করেন তিনি ঘুষ নেননি।

২০১৮ সালের ৩ মে অবৈধ সম্পদ অর্জনের অভিযোগে ডিআইজি মিজানকে জিজ্ঞাসাবাদ করে দুদক। প্রথমে অনুসন্ধান কর্মকর্তা ছিলেন দুদকের উপ-পরিচালক ফরিদ আহমেদ পাটোয়ারী। পরে এই দায়িত্ব পান এনামুল। পরে অনুসন্ধান কর্মকর্তা হিসেবে নিয়োগ পান দুদকের আরেক পরিচালক মো. মঞ্জুর মোরশেদ।

বিজ্ঞাপন

এদিকে ৩ কোটি ৭ লাখ টাকার সম্পদেরর তথ্য গোপন এবং ৩ কোটি ২৮ লাখ টাকা অবৈধ সম্পদের অভিযোগ স্ত্রী, ভাই ও ভাগ্নেসহ পুলিশের উপ-মহাপরিদর্শক (ডিআইজি) মিজানুর রহমানের বিরুদ্ধে আজ মামলা করেছে দুদক।

সারাবাংলা/এসজে/পিটিএম

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন