শুক্রবার ১৫ নভেম্বর, ২০১৯ ইং , ১ অগ্রহায়ণ, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ, ১৭ রবিউল-আউয়াল, ১৪৪১ হিজরি

বিজ্ঞাপন

এবার ভাগ্য বদলাবে মাশরাফিদের?

জুন ২৭, ২০১৯ | ২:৩৬ পূর্বাহ্ণ

মহিবুর রহমান, স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট

বিজ্ঞাপন

লন্ডন থেকে: বড় মঞ্চে বাংলাদেশ-ভারত ম্যাচ মানেই যেন জয়ের নিঃশ্বাস দূরত্বে থেকে বাংলাদেশের হার। সেটা যতটা না টিম ইন্ডিয়ার ক্রিকেটীয় নৈপুন্যে তার চাইতে বেশি ভাগ্যের সহায়তায়। ভাগ্যদেবীর যত প্রশন্ন দৃষ্টি তা যেন ওই দলটির দিকেই নিবদ্ধ থাকে! মাশরাফিদের দিকে ফিরে তাকানোর সামান্য ইচ্ছে ও যেন তার নেই! এবারের বিশ্বকাপে তাই দলটির সঙ্গে দ্বৈরথে ভাগ্যদেবীর প্রশন্ন দৃষ্টি কামনা করছেন মেহেদি হাসান মিরাজ।

২০১৬ টি টোয়েন্টি বিশ্বকাপের কথা। বেঙ্গালুরুর চিন্বাস্বামী স্টেডিয়ামে শেষ বলে জয়ের জন্য টাইগারদের প্রয়োজন ছিল মাত্র ১ রান। উইকেটে থাকা শুভাগত হোম ও মোস্তাফিজুর রহমান কাঙ্খিত ১টি রান দলকে এনে দিতে পারেননি! ২০১৮ এশিয়া কাপ ও একই বছর নিদাহাস ট্রফিতেও একই চিত্র নাট্যের মঞ্চায়ন।

বিশ্বকাপের চলতি আসরের বাঁচা-মরার ম্যাচে ২ জুলাই বার্মিংহামে সেই দলটির বিপক্ষে নামছে ভাগ্যবিড়ম্বিত টাইগাররা। যেখানে ভাগ্যের সহায়তা পেলে ভারত বধ কঠিন হবে না বলে মনে করেন লাল সবুজের এই অফস্পিনিং অলরাউন্ডার।

বিজ্ঞাপন

‘ভারতের সঙ্গে যত ম্যাচই খেলেছি আমরা কিন্তু খুব কাছে গিয়ে হেরেছি। আসলে বলব যে আমাদের ভাগ্যটা কম সহায়তা করেছে। সৃষ্টিকর্তা যদি আমাদের সাথে থাকে তাহলে আমরা এই ম্যাচটা জিততে পারব’

         পড়ুন: মাতৃভূমিকেই হুঙ্কার দিলেন টাইগারদের ভারতীয় কোচ

বুধবার (২৬ জুন) বার্মিংহামের টিম হোটেলে তিনি একথা বলেন।

তবে ভাগ্যের সহায়তা পেলেই যে ভারত বধ অনায়াসে হবে না তাও মনে করিয়ে দিলেন মিরাজ। সেটা অন্য কোনো কারণে নয়, কোহলিদের দাপুটে পারফরম্যান্স দেখে। কেননা বিশ্বকাপের এবারে একমাত্র অজেয় দল ভারত। ৫ ম্যাচ খেলে যারা একটিতেও হারেনি।

কিন্তু তাই বলে চাপ নিচ্ছেন না স্টিভ রোডস শিষ্যরা। মাঠের লড়াইয়ে নিজেদের সেরাটি দিতে পারলে আরেকবার ভারত বধের মহাকাব্য লেখা যাবে সেটা মিরাজের চাইতে আর কে জানে? ‘অবশ্যই ভারত কঠিন প্রতিপক্ষ। তারা ডমিনেট করে খেলছে, ভাল ক্রিকটে খেলছে। তাই বলে আমরা ওরকম চাপ নিচ্ছি না। আমাদের সহজাত খেলা খেলেই ভাল কিছু করতে পারি।’ যোগ করেন মিরাজ।

তাহলে একের ভেতরে হবে দুই কাজ। বিশ্বকাপে সেমি ফাইনালের আশা যেমন থাকবে তেমনি পরাশক্তি এই দলটির কাছে টাইগারদের হারের বৃত্তও ভাঙবে। কেননা ধোনি, কোহলিদের বিরুদ্ধে বাংলাদেশ সব শেষে জয় পেয়েছিল আজ থেকে চার বছরেরও বেশি সময় আগে। ২০১৫ এর জুনে ঘরের মাঠে তিন ম্যাচ সিরিজের ওয়ানডেতে স্বাগতিক টাইগাররা জিতেছিল ২-১ এ।

বাংলাদেশের দর্শকরা বিশ্বকাপের সব ম্যাচ অনলাইনে কোনো ধরনের সাবস্ক্রিপশন ফি বা চার্জ ছাড়াই দেখতে পারবেন র‍্যাবিটহোলের ওয়েবসাইট www.rabbitholebd.com-এ। এছাড়া র‍্যাবিটহোলের অ্যাপেও দেখা যাবে প্রতিটি ম্যাচ। অ্যাপটি অ্যান্ড্রয়েড ব্যবহারকারীরা ডাউনলোড করতে পারবেন https://goo.gl/UNCWS2 (শুধুমাত্র বাংলাদেশ) এই লিংকে ক্লিক করে। তাছাড়া আইওএস ব্যবহারকারীরা ডাউনলোড করতে পারবেন https://goo.gl/vJjyyL (শুধুমাত্র বাংলাদেশ) এই লিংকে ক্লিক করে।

সারাবাংলা/এমআরএফ/জেএএম

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন