বৃহস্পতিবার ১৭ অক্টোবর, ২০১৯ ইং , ২ কার্তিক, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ, ১৭ সফর, ১৪৪১ হিজরি

বিজ্ঞাপন

ফিরোজ রশীদের পুত্রবধূ গুলিবিদ্ধ, রহস্যজনক বলছে পুলিশ

জুলাই ৮, ২০১৯ | ৪:১৭ অপরাহ্ণ

সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট

ঢাকা: জাতীয় পার্টির প্রেসিডিয়াম সদস্য ও সংসদ সদস্য কাজী ফিরোজ রশীদের পুত্রবধূর শরীরে গুলি লাগার ঘটনায় রহস্য দেখা দিয়েছে।

বিজ্ঞাপন

ফিরোজ রশীদের পরিবার সূত্রের বরাত দিয়ে ধানমন্ডি থানার এসআই জিল্লুর রহমান সোমবার (৮ জুলাই) সারাবাংলাকে জানান, রোববার (৭ জুলাই) দিবাগত রাত ৮টার দিকে ধানমন্ডি ৯/১ সড়কের বাসায় এমপি ফিরোজ রশীদের পুত্রবধূ মেরিনা শোয়েব গুলিবিদ্ধ হন। স্বামীর অস্ত্র দিয়ে মেরিনা নিজের শরীরে গুলি করেন। গুলিটি তার পেটে লেগেছে। আহতাবস্থায় উদ্ধার করে ফিরোজের পুত্রবধূকে ল্যাবএইড হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

জিল্লুর রহমান জানান, রাতেই ল্যাবএইড হাসপাতালে তার শরীর থেকে গুলি বের করা হয়েছে। তিনি এখন আশঙ্কামুক্ত। তবে কী কারণে তিনি স্বামীর অস্ত্র নিয়ে নিজের শরীরে গুলি করলেন তা নিয়ে তদন্ত চলছে।

এদিকে থানা পুলিশের অন্য একজন কর্মকর্তা নাম প্রকাশ না করার শর্তে সারাবাংলাকে বলেন, ‘মেরিনা শোয়েব গুলিবিদ্ধ হওয়ার সময় নিশ্চয় বাসায় কেউ ছিলেন। কেননা মেরিনার শরীরে গুলি সামনে থেকে নয়, পেছন থেকে লেগেছে। তিনি নিজে গুলি করলে গুলি পেছন থেকে লাগার কথা না। নিশ্চয় এখানে কোনো রহস্য আছে।’

বিজ্ঞাপন

এ ব্যাপারে ল্যাবএইড হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ প্রকাশ্যে কোনো বক্তব্য দিচ্ছে না। হাসপাতাল সূত্রে জানা গেছে, মেরিনা শোয়েব অনেক বেশি অসুস্থ। তার শরীরে এখনও গুলি রয়েছে। একটু সুস্থ হলে শরীর থেকে ‍গুলি বের করার জন্য অস্ত্রোপচার করা হবে।

এ ব্যাপারে কাজী ফিরোজ রশীদের বক্তব্য জানতে তার মোবাইল ফোনে একাধিকবার কল করা হলেও তাকে পাওয়া যায়নি।

সারাবাংলা/ইউজে/একে

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন