রবিবার ২১ জুলাই, ২০১৯ ইং , ৬ শ্রাবণ, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ, ১৭ জিলক্বদ, ১৪৪০ হিজরী

বিজ্ঞাপন

জরিমানা গুণে নিষেধাজ্ঞা এড়ালেন জ্যাসন রয়

জুলাই ১২, ২০১৯ | ১০:৫৮ পূর্বাহ্ণ

বিশ্বকাপ ডেস্ক

২৭ বছর পর বিশ্বকাপের ফাইনালের টিকিট নিশ্চিত হয়েছে ইংলিশদের। শেষটা সেই ১৯৯২ সালে পাকিস্তানের বিপক্ষে। এরপর ২০১৯ সালে ঘরের মাঠে ফাইনালের দেখা মিললো। আর এই ফাইনালে উঠে আসার পেছনে সব থেকে বেশি ভূমিকা রাখা ইংলিশদের ভেতর ওপেনার জ্যাসন রয়ের নাম থাকবে শীর্ষেই।

কেমন হতো যদি তাকে ছাড়াই বিশ্বকাপের ফাইনালে খেলতে হতো ইংলিশদের? এমন অবস্থা তৈরি হয়েছিল অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে সেমি ফাইনালের ম্যাচের পর। আর্চার-উডদের বোলিং তোপের সামনে মাত্র ২২৩ রানে গুটিয়ে যায় অজিরা। আর জয়ের লক্ষ্যে উড়ন্ত সূচনা করেন দুই ইংলিশ ওপেনার জ্যাসন রয় এবং জনি বেয়ারেস্ট্রো।

টানা তৃতীয় ম্যাচে পঞ্চাশ পেরনো ইনিংস রয়ের ব্যাট থেকে। ইংলিশদের দলীয় সংগ্রহ তখন ১ উইকেট হারিয়ে ১৪৭ রান, খেলা চলছে ২০তম ওভারের। জ্যাসন রয় স্ট্রাইকে আছেন মাত্র ৬৪ বলে ৮৫ রান করে। ওভারের চতুর্থ বলে প্যাট কামিন্সের বল রয়ের ব্যাটের কাছ ঘেষে চলে গেল অজি উইকেটরক্ষক অ্যালেক্স ক্যারির হাতে। ক্যারি আর কামিন্সের আবেদনে সাড়া দিলেন আম্পায়ার কুমার ধর্মসেনা।

আম্পায়ার ধর্মসেনার এমন সিদ্ধান্তে বেশ অবাক রয়। কারণ বল তার ব্যাট ছুঁয়ে যায়নি। পরের রিপ্লেতেও দেখা মিলেছে আম্পায়ারের সিদ্ধান্তটি ভুলই ছিল। তাই তো সাথে সাথে চ্যালেঞ্জ ছুঁড়ে দিয়ে চাইলেন রিভিউ। কিন্তু হায়! রিভিউ তো নেই। এর আগেই সতীর্থ জনি বেয়ারেস্ট্রোর রিভিউ নিয়ে হেরে শেষ করে গেছেন তা। অগত্যায় হেঁটে বের হয়ে যেতে হলো মাঠ থেকে। তবে যাওয়ার আগে বিতর্কে জড়িয়ে পড়লেন ধর্মসেনার সাথে।

বিজ্ঞাপন

বেশ উত্তপ্ত বাক্যও বিনিময় করলেন আম্পায়ারের সাথে। আর এতেই তৈরি হয়েছিল সন্দেহ যে রয় হয়তো নিষেধাজ্ঞায় পড়তে পারেন। কারণ, অনফিল্ড আম্পায়ার ভুল সিদ্ধান্ত দিলেও তার সাথে খারাপ আচরণ করা যাবে না। তাই তো চিন্তায় কপাল কুচকে গিয়েছিল ইংলিশ দলপতিরও।

শেষ পর্যন্ত অবশ্য কেবল জরিমানা গুণেই পার পেয়ে গেলেন এই যাত্রায়। তবে নামের পাশে যোগ হয়েছে ২ ডিমেরিট পয়েন্ট। আইসিসির কোড অব কন্ড্যাক্ট লঙ্ঘন করায় ৩০ শতাংশ ম্যাচ ফী এবং ২ ডিমেরিট পয়েন্ট গুণতে হয়ছে জ্যাসন রয়কে।

এ সম্পর্কে অধিনায়ক ইয়ন মরগান বলেন, ‘আসলে ওই ঘটনার সময় আমি টয়লেটে ছিলাম। তাই ঘটনাটি আমি পরবর্তীতে শুনেছি। আমি ওকে ছাড়া ফাইনাল খেলতে হবে এটা ভাবতে পারি না।’

বিশ্বকাপের ফাইনালে ১৪ জুলাই লর্ডসে মুখোমুখি হবে নিউজিল্যান্ড এবং ইংল্যান্ড। বাংলাদেশ সময় দুপুর সাড়ে তিনটায় শুরু হবে ম্যাচটি।

বাংলাদেশের দর্শকরা বিশ্বকাপের সব ম্যাচ অনলাইনে কোনো ধরনের সাবস্ক্রিপশন ফি বা চার্জ ছাড়াই দেখতে পারবেন র‍্যাবিটহোলের ওয়েবসাইট www.rabbitholebd.com-এ। এছাড়া র‍্যাবিটহোলের অ্যাপেও দেখা যাবে প্রতিটি ম্যাচ। অ্যাপটি অ্যান্ড্রয়েড ব্যবহারকারীরা ডাউনলোড করতে পারবেন https://goo.gl/UNCWS2 (শুধুমাত্র বাংলাদেশ) এই লিংকে ক্লিক করে। তাছাড়া আইওএস ব্যবহারকারীরা ডাউনলোড করতে পারবেন https://goo.gl/vJjyyL (শুধুমাত্র বাংলাদেশ) এই লিংকে ক্লিক করে।

আরও পড়ুন: নতুন চ্যাম্পিয়ন পাচ্ছে ক্রিকেট বিশ্ব

সারাবাংলা/এসএস

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন