রবিবার ২১ জুলাই, ২০১৯ ইং , ৬ শ্রাবণ, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ, ১৭ জিলক্বদ, ১৪৪০ হিজরী

বিজ্ঞাপন

নকআউট আর সেমিতে অনন্য স্মিথ

জুলাই ১২, ২০১৯ | ৪:০৪ অপরাহ্ণ

বিশ্বকাপ ডেস্ক

প্রথম সেমি ফাইনালে ভারতকে ১৮ রানে হারিয়ে ফাইনালে উঠেছে নিউজিল্যান্ড। আর দ্বিতীয় সেমি ফাইনালে ডিফেন্ডিং চ্যাম্পিয়ন অস্ট্রেলিয়াকে ৮ উইকেটে উড়িয়ে ফাইনালের টিকিট কেটেছে স্বাগতিক ইংল্যান্ড। দ্বিতীয় সেমিতে হারলেও বিশ্বকাপের নকআউট আর সেমি ফাইনালে অনন্য দুটি কীর্তি গড়েছেন অজি তারকা স্টিভ স্মিথ।

বিশ্বকাপের নকআউট পর্বে প্রথম কোনো ব্যাটসম্যান হিসেবে একটানা চারটি ফিফটি প্লাস ইনিংস খেলেছেন স্মিথ। আর বিশ্বকাপের সেমি ফাইনালে সর্বোচ্চ রানের তালিকায় ঢুকে গেছেন দুই নম্বরে।

ইংল্যান্ডের বিপক্ষে দ্বিতীয় সেমি ফাইনালে তিন নম্বরে ব্যাট হাতে নামেন স্মিথ। সতীর্থ যাওয়া-আসার মিছিলে একাই লড়েছেন ইংলিশ বোলারদের বিপক্ষে। ক্যারিয়ারের নবম সেঞ্চুরি পাননি তবে তুলে নিয়েছেন ২৩তম ফিফটি। খেলেছেন ৮৫ রানের দুর্দান্ত এক ইনিংস। আর এই ইনিংসের মধ্যদিয়ে দারুণ এক কীর্তি গড়েছেন স্মিথ।

বিশ্বমঞ্চে প্রথম কোনো ব্যাটসম্যান হিসেবে নকআউটে টানা চারটি ফিফটি প্লাস ইনিংস খেলেছেন স্মিথ। অজি সাবেক এই দলপতি ২০১৫ বিশ্বকাপের কোয়ার্টার ফাইনালে পাকিস্তানের বিপক্ষে করেছিলেন ৬৫ রান। সেই আসরের সেমি ফাইনালে ভারতের বিপক্ষে করেন ১০৫ রান। আর একই আসরের ফাইনালে নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে খেলেছেন হার না মানা ৫৬ রানের ইনিংস। আর এই বিশ্বকাপের নকআউটে (সেমি ফাইনাল) ইংল্যান্ডের বিপক্ষে খেললেন ৮৫ রানের ইনিংস।

বিজ্ঞাপন

ভারতের ব্যাটিং কিংবদন্তি শচীন টেন্ডুলকার বিশ্বকাপের নকআউটে ৭টি ম্যাচ খেলে চারটিতে ফিফটি প্লাস ইনিংস খেলেছিলেন। পাকিস্তানের জাভেদ মিঁয়াদাদ নকআউটের পাঁচ ইনিংসের তিনটিতেই ফিফটি প্লাস ইনিংস খেলেছিলেন। নকআউটে ৬টি করে ইনিংস খেলে তিনটিতে ফিফটি প্লাস ইনিংস খেলেছিলেন ভারতের মহেন্দ্র সিং ধোনি এবং অস্ট্রেলিয়ার অ্যাডাম গিলক্রিস্ট।

এদিকে, সেমি ফাইনালের মঞ্চে সর্বোচ্চ রান করে চূড়ায় বসে আছেন শচীন। বিশ্বমঞ্চের সেমিতে ভারতীয় এই গ্রেটের নামের পাশে জমেছে ২৩৩ রান। এই তালিকায় শচীনের পরেই স্থান করে নিয়েছেন স্মিথ। সেমিতে স্মিথের রান ১৯০। ২ রান কম নিয়ে তিনে ইংলিশ কিংবদন্তি গ্রাহাম গুচ। চারে আছেন নিউজিল্যান্ড রস টেইলর (১৪৯ রান) এবং পাঁচে ভারতের মহেন্দ্র সিং ধোনি (১৪০ রান)।

আগামী রোববার (১৪ জুলাই) লর্ডসের ফাইনালে মুখোমুখি হবে নিউজিল্যান্ড-ইংল্যান্ড। গাজী টিভি ম্যাচটি সরাসরি সম্প্রচার করবে। বাংলাদেশ সময় দুপুর সাড়ে তিনটায় ম্যাচটি শুরু হবে।

বাংলাদেশের দর্শকরা বিশ্বকাপের সব ম্যাচ অনলাইনে কোনো ধরনের সাবস্ক্রিপশন ফি বা চার্জ ছাড়াই দেখতে পারবেন র‍্যাবিটহোলের ওয়েবসাইট www.rabbitholebd.com-এ। এছাড়া র‍্যাবিটহোলের অ্যাপেও দেখা যাবে প্রতিটি ম্যাচ। অ্যাপটি অ্যান্ড্রয়েড ব্যবহারকারীরা ডাউনলোড করতে পারবেন https://goo.gl/UNCWS2 (শুধুমাত্র বাংলাদেশ) এই লিংকে ক্লিক করে। তাছাড়া আইওএস ব্যবহারকারীরা ডাউনলোড করতে পারবেন https://goo.gl/vJjyyL (শুধুমাত্র বাংলাদেশ) এই লিংকে ক্লিক করে।

সারাবাংলা/এমআরপি

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন