সোমবার ৯ ডিসেম্বর, ২০১৯ ইং , ২৫ অগ্রহায়ণ, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ, ১১ রবিউস-সানি, ১৪৪১ হিজরি

বিজ্ঞাপন

দক্ষিণ কোরিয়ার আকাশে রাশিয়ার বিমান, ফাঁকা গুলি ছুঁড়ে সতর্ক

জুলাই ২৩, ২০১৯ | ১:৫৬ অপরাহ্ণ

আন্তর্জাতিক ডেস্ক

দক্ষিণ কোরিয়া অধিকৃত ডোকডো দ্বীপের আকাশসীমা লঙ্ঘন করায় রাশিয়ার একটি সামরিক বিমানকে সাবধান করতে গুলি ছুড়েছে দেশটি। ওই দ্বীপটি জাপান নিজেদের বলে দাবি করলেও তা সিউলের নিয়ন্ত্রণে রয়েছে। মঙ্গলবার (২৩ জুলাই) এই ঘটনা ঘটে। খবর বিবিসির।

বিজ্ঞাপন

দক্ষিণ কোরিয়ার অভিযোগ, রাশিয়ার সামিরক বিমান অন্তত দুইবার ডোকডো দ্বীপের আকাশে ঢুকে পড়ে। সিউলের পক্ষ থেকে গুলি ছুড়ে রাশিয়ার বিমানকে সতর্কবার্তা দেওয়া হয়। তবে মস্কো সরাসরি এই অভিযোগ অস্বীকার করেছে। দক্ষিণ কোরিয়া ও রাশিয়ার মধ্যে এই ধরনের ঘটনা এবারই প্রথম ঘটলো।

রাশিয়ার মতে, তাদের দুটি বিমান ওই অঞ্চলে অনুশীলন করতে গিয়েছে। তবে তা আন্তর্জাতিক সমুদ্রসীমায়। কোনো গোলাগুলির ঘটনা ঘটেনি।

দক্ষিণ কোরিয়া জানায়, দুটি রাশিয়ান টিইউ-৯৫ ও একটি এ-৫০ সমারিক বিমান আগাম তথ্য ছাড়াই ওই দ্বীপের আকাশে প্রবেশ করে। দুটি চাইনিজ এইচ-৬ বোম্বার বিমানকেও চিহ্নিত করেছে তারা।

বিজ্ঞাপন

দক্ষিণ কোরিয়ার সেনাবাহিনী জানিয়েছে, কোনো দেশের আকাশসীমায় প্রবেশের আগে সেটি ওই দেশকে জানাতে হয়। কিন্তু এক্ষেত্রে তা হয়নি। সে কারণেই তাকে ফাঁকা গুলি ছুঁড়ে সতর্ক করতে বাধ্য হন তারা।

এই ঘটনায় যথাযথ ব্যবস্থা নিতে রাশিয়ার সিকিউরিটি কাউন্সিলকে অনুরোধ করেছেন দক্ষিণ কোরিয়ার জাতীয় নিরাপত্তা প্রধান চুং ইউ ইয়ং।

রাশিয়া ও চীনের বিমানগুলো সাম্প্রতিক সময়ে প্রায়ই ওই অঞ্চলে অনুশীলনে বের হয়। তবে দক্ষিণ কোরিয়ার দাবি বিষয়ে চীন এখনো কোনো মন্তব্য করেনি।

১৯৫৪ সালে দক্ষিণ কোরিয়া ডোকডো দ্বীপের দখল নেয়।

সারাবাংলা/এসএমএন/এনএইচ

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন