সোমবার ২৬ আগস্ট, ২০১৯ ইং , ১১ ভাদ্র, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ, ২৪ জিলহজ, ১৪৪০ হিজরি

বিজ্ঞাপন

কুসংস্কারবিরোধী ওয়েব সিরিজ ‘জাল ভেজাল’

আগস্ট ৩, ২০১৯ | ৩:৫৪ অপরাহ্ণ

এন্টারটেইনমেন্ট করেসপন্ডেন্ট

যুগের সঙ্গে তাল মিলিয়ে এগিয়ে গেছে সমাজ। এগিয়ে গেছে সভ্যতা। এগিয়েছে লাল সবুজের এই দেশও। তবু এ দেশের প্রত্যন্ত কিছু অঞ্চলে রয়ে গেছে কুসংস্কারের ছায়া। যেগুলো এখনও অন্ধকারে নিমজ্জিত করে রেখেছে গ্রামের সহজ-সরল মানুষকে। সমাজের সেসব কুসংস্কার দূর করতেই ইউএসএআইডি’র সহযোগিতায় ‘জাল ভেজাল’ নামে একটি ওয়েব সিরিজ নির্মিত হয়েছে।

শুক্রবার (২ আগস্ট) আনুষ্ঠানিকভাবে এটি অন্তর্জালে উন্মুক্ত করা হয়েছে। দেশের প্রথম সারির অডিও ভিডিও প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান জি সিরিজের ইউটিউব চ্যানেলে দেখা যাচ্ছে ওয়েব সিরিজটি।


আরও পড়ুন :  হৃত্বিক রোশনের বিপরীতে অভিনয় করতে চান নুসরাত ফারিয়া


এদিন বিকালে রাজধানীর বেইলি রোডস্থ একটি রেস্তোঁরায় অনুষ্ঠানের মাধ্যমে মুক্তি পায় ওয়েব সিরিজটি। এসময় উপস্থিত ছিলেন জি সিরিজের কর্ণধার নাজমুল হক ভুঁইয়া খালেদ, সঙ্গীত তারকা রাশেদ উদ্দিন আহমেদ তপু, ওয়েব সিরিজের নির্মাতা সাজু আহসান ও এর নাট্যকার মেজবাহ উদ্দিন সুমনসহ ইউএসএআইডির বাংলাদেশি কর্মকর্তারা।

অনুষ্ঠানে নাজমুল হক ভুঁইয়া খালেদ বলেন, এই ওয়েব সিরিজের মাধ্যমে আমরা সমাজে একটি সচেতনতামূলক বার্তা দিতে চাচ্ছি। ইউএসএআইডি’কেও ধন্যবাদ, জি সিরিজের সঙ্গে এমন একটি কাজ করার জন্য।

বিজ্ঞাপন

সাজু আহসান বলেন, আমাদের গ্রাম অঞ্চলের একটি কুসংস্কার নিয়ে এই ওয়েব সিরিজ। যেখানে মা ও মাতৃত্বের গুরুত্ব তুলে ধরা হয়েছে। আমাদের সমাজে এখনও অদক্ষ দাই ও ওঝা দ্বারা নানা জটিল সমস্যার সমাধানের চেষ্টা করা হয়। যেগুলো আমাদের জন্যই ক্ষতিকর। সেই সব কুসংস্কার থেকে বেরিয়ে আসার জন্যই আমাদের এই প্রয়াস। আশা করি এই ওয়েব সিরিজটি সমাজে কিছু মানুষকে হলেও সচেতন করবে।

নাট্যকার মেজবাহ উদ্দিন সুমন বলেন, গ্রামীন সমাজের একটি কুসংস্কার দূর করার জন্য এই ওয়েব সিরিজ লেখা। ইউএসএআইডি’কে ধন্যবাদ, তারা এমন একটি কাজে আমাদেরকে সঙ্গে রেখেছে। আমাদের কাজটি যদি একটি মানুষকেও সচেতন করে, সেখানেই আমাদের সার্থকতা।


আরও পড়ুন :  

.   মুখোমুখি আমির-অক্ষয়

.   নোবেল বিতর্কে মুখ খুললেন শ্রীকান্ত আচার্য

.   বাইশে শ্রাবণ স্মরণে ‘সমুখে শান্তি পারাবার’


সারাবাংলা/আরএসও/

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন