বিজ্ঞাপন

১৯ পাতা চিঠি লিখে পরিবারের ৫ সদস্যকে খুন, ঘাতকের আত্মহত্যা

August 3, 2019 | 3:32 pm

আন্তর্জাতিক ডেস্ক

ভারতের পাঞ্জাবের উপবিভাগ ভাগপুরানার নাথুয়ালা গারবি গ্রামে সন্দ্বীপ সিং (২৭) নামের এক ব্যক্তি ১৯ পাতার চিঠি লিখে, তার পরিবারের ৫ সদস্যকে হত্যার পর আত্মহত্যা করেছেন। শনিবার (৩ আগস্ট ) স্থানীয় সময় সকালে এ ঘটনা ঘটে বলে জানিয়েছে ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস।

বিজ্ঞাপন

ঐ ব্যক্তি আত্মহত্যা করার আগে তার বাবা মানজিত সিং, মা বিন্দার কর, দাদী গৌরদ্বীপ কর, বোন আমানজত কর এবং ৩ বছর বয়সী ভাগ্নী মানিত করকে পিস্তল থেকে গুলি ছুঁড়ে মেরে ফেলেন। এ ঘটনায় তার দাদা গুরুচরন সিংকে গুলিবিদ্ধ অবস্থায় ফরিদকোট মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

ভাগপুরানার পুলিশ সুপার (তদন্ত) হরিন্দরপাল সিং ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেসকে জানিয়েছেন, সন্দ্বীপ সিং আত্মহত্যার আগে একটি ১৯ পাতার চিঠি লিখে গিয়েছেন। সেখানে তিনি উল্লেখ করেছেন তার মতের বিরুদ্ধে পরিবার থেকে ঠিক করা পাত্রীকে বিয়ে করতে বাধ্য হওয়ার কারণে তিনি মানসিকভাবে বিপর্যস্ত।

বিজ্ঞাপন

তবে এই হত্যাকাণ্ডের কারণ সম্পর্কে এখনই কিছু বলা যাচ্ছে না।

সারাবাংলা/একেএম

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন