রবিবার ১৫ সেপ্টেম্বর, ২০১৯ ইং , ৩১ ভাদ্র, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ, ১৫ মুহাররম, ১৪৪১ হিজরি

বিজ্ঞাপন

মিয়ানমারে সশস্ত্র হামলায় নিহত ১৫

আগস্ট ১৫, ২০১৯ | ১০:১৬ অপরাহ্ণ

আন্তর্জাতিক ডেস্ক

মিয়ানমারের মান্দালয় অঞ্চলের শান প্রদেশে সশস্ত্র হামলায় সেনা, পুলিশ ও সাধারণ নাগরিকসহ ১৫ জনের মৃত্যু হয়েছে। বৃহস্পতিবার (১৫ আগস্ট) এই হামলার ঘটনা ঘটে।

বিজ্ঞাপন

সকালে মিয়ানমার মিলিটারি ডিফেন্স সার্ভিস টেকনোলোজিক্যাল একাডেমিতে প্রথম আক্রমণ করা হয়।

উদ্ধারকর্মীতদের বরাত দিয়ে মিয়ানমারের সংবাদমাধ্যম ইরাবতি জানিয়েছে, নং চাও শহরের গোক টুইন ব্রিজ এলাকার একটি পুলিশ আউট পোস্টে হামলায় সাত সেনা সদস্য ও তিন পুলিশ নিহত হয়।

ইউ থান জাও নামের ওই স্বেচ্ছাসেবক বলেন, আমরা সাত সেনা সদস্য ও তিন পুলিশের মৃতদেহ উদ্ধার করেছি। এছাড়া গুরুতর আহত অবস্থায় তিনজনকে উদ্ধার করে হাসপাতালে নেওয়া হয়েছে। এ ঘটনার পর নিরাপত্তা রক্ষাকারী বাহিনীর সদস্যরা ওই এলাকায় নিরাপত্তা ব্যবস্থা জোরদার করেছে।

বিজ্ঞাপন

একজন পুলিশ অফিসার ও ট্রাক ড্রাইভারকে কায়ুকমি হাসপাতালে চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে বলে জানান ইউ থান। এছাড়া তিনি বলেন, ‘পরিস্থিতি এখন স্বাভাবিক, তবে গোক ব্রিজ ধ্বংস করা হয়েছে বলে সেদিক দিয়ে চলাচলা করা যাচ্ছে না।’

সামরিক মুখপাত্র ব্রিগেডিয়ার জেনারেল জাও মিন ইরাবতিকে ঘটনার সত্যতা স্বীকার করলেও কতজন সেনা সদস্য নিহত হয়েছে তা বলেননি।

তিনি বলেন, আক্রমণ শুরু হলে আমাদের বাকি সৈন্যরা সেখানে এসে পড়ে। পুলিশরা ততক্ষণে মারা গেছেন, আমাদের কয়েকজন সৈনিকও ততক্ষণে মারা গেছেন।’

হামলার দায় স্বীকার করে নর্দান অ্যালায়েন্সের সহযোগী আরাকান আর্মির মুখপাত্র খাইন তু খাই বলেন, বৃহস্পতিবারের হামলায় তাদের যোদ্ধারা অংশ নেন। তিনি বলেন, ‘বার্মা সেনাবাহিনীর বিরুদ্ধে জবাব দিতেই আমরা এই হামলা করেছি। আমাদের কমরেডদের ওপর হামলার জন্য এই জবাব দেওয়া হয়েছে।’

সারাবাংলা/এমআই

Advertisement
বিজ্ঞাপন

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন