বুধবার ২০ নভেম্বর, ২০১৯ ইং , ৬ অগ্রহায়ণ, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ, ২২ রবিউল-আউয়াল, ১৪৪১ হিজরি

বিজ্ঞাপন

মেহজাবিন অভিনয় ছাড়বেন, তবে…

আগস্ট ২২, ২০১৯ | ১:২৭ অপরাহ্ণ

এন্টারটেইনমেন্ট করেসপন্ডেন্ট

মেহজাবিন হাসেন। কেউ কথা বললে মিষ্টি করে হেসে উত্তর দেন। সামনে দাঁড়িয়ে সেই হাসি দেখলে মনেই হবে না, এই মেয়েটি কখনো কাঁদেন। কিন্তু মেহবাজিন কাঁদেন। কেঁদে কেঁদে বুক ভাসান। মনে হবে, অযুত বছরের লুকায়িত কষ্ট কাতর আঁখি জলে ভাসিয়ে দিচ্ছেন।

বিজ্ঞাপন

তবে মেহেজাবিন বাস্তবে কাঁদেন না। কাঁদেন পর্দায়। তার অভিনীত বেশিরভাগ নাটকে তাকে কাঁদতে দেখা যায়। এটা নিয়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে তাকে নিয়ে ব্যাঙ্গ করা করা। যাকে বলায় হয় ‘ট্রল’।


আরও পড়ুন :  ‘ওয়ান্স আপন আ টাইম ইন হলিউড’ ঢাকায় শুক্রবার থেকে


এই সময় ব্যাঙ্গ বা ট্রল মোটেই পাত্তা দেন না মেহজাবিন। তিনি মনে করেন, খুব কম সংখ্যক মানুষ তাকে ট্রল করে, যা উদ্দেশ্যপ্রণোদিত। মেহজাবিন বলেন, ‘যারা ট্রল করছে তারা সংখ্যায় কম। তার থেকে অনেক বেশি মানুষ আমার নাটক দেখছে। প্রশংসা করছে। যেদিন দেখব, প্রশংসাকারীর চেয়ে ট্রলকারী মানুষের সংখ্যা বেশি হয়ে গেছে সেদিন অভিনয় ছেড়ে দেব।’

বিজ্ঞাপন

সদ্য অতিবাহিত ঈদুল আজহায় মেহজাবিন প্রায় ২৪টি নাটকে অভিনয় করেছেন। এরমধ্যে কিছু নাটকের মান নিয়েও প্রশ্ন তুলেছে কেউ কেউ। এ প্রসঙ্গে তিনি বলেন, ‘মানহীন নাটক হলে তো মানুষ নাটক দেখত না। আর নাটক যদি মানহীন হয়েই থাকে, তাহলে কেনো সেগুলো মানহীন হলো—এটা নিয়ে তো এত জবাবদিহি করার কিছু নেই।’

এসময় তিনি প্রশ্ন ছুঁড়ে দিয়ে বলেন, ‘কেনো সবাইকে নাটক নিয়ে বিস্তারিত বলতে হবে? অভিনেত্রী হিসেবে এটা অন্তত বুঝি যে, কোনটা মানসম্পন্ন আর কোনটা মানহীন।’


আরও পড়ুন :  ‘মানসম্মত ও গল্পনির্ভর চলচ্চিত্র নির্মাণের তাগিদ অনুভব করছি’


বিজ্ঞাপন

সারাবাংলা/আরএসও/পিএ

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন