বৃহস্পতিবার ১৭ অক্টোবর, ২০১৯ ইং , ২ কার্তিক, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ, ১৭ সফর, ১৪৪১ হিজরি

বিজ্ঞাপন

গ্যালাক্সি নোট টেন প্লাসে বাড়তি আগ্রহ, বন্ধ প্রি-অর্ডার

আগস্ট ২৯, ২০১৯ | ১০:০৮ অপরাহ্ণ

সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট

ঢাকা: দেশের বাজারে এসেছে স্যামসাং ‘গ্যালাক্সি নোট টেন প্লাস’। অগ্রিম বুকিং দেওয়া গ্রাহকদের হাতে এখন ডিভাইসটি তুলে দেওয়া হচ্ছে। প্রায় দেড় লাখ টাকা দামের সেটটির প্রতি ক্রেতাদেরও বাড়তি আগ্রহ লক্ষ্য করা গেছে। ৩১ আগস্ট পর্যন্ত ডিভাইসটি প্রি-অর্ডার করা যাবে এমন ঘোষণা থাকলেও এরই মধ্যে প্রি-অর্ডার বন্ধ হয়ে গেছে। আর আগামী মাস থেকে ডিভাইসটি প্রি-অর্ডার ছাড়াই স্যামসাংয়ের ব্র্যান্ড শপ থেকে কেনা যাবে। মোবাইল মার্কেটের একাধিক দোকান ও স্যামসাংয়ের সংশ্লিষ্টদের সঙ্গে কথা বলে এসব তথ্য জানা গেছে।

বিজ্ঞাপন

বসুন্ধরা সিটি শপিং মলের স্যামসাংয়ের অনুমোদিত ব্র্যান্ড শপ ওয়েস্টার্ন ক্রেইজ নামের একটি দোকানের স্টোর ম্যানেজার ইসরাফিল আদনান সারাবাংলাকে বলেন, ‘গ্যালাক্সি নোট টেন প্লাসের প্রি-অর্ডার শেষ। যারা আগে অর্ডার করেছিলেন এখন তাদের সেট সরবরাহ করা হচ্ছে।’

নোট নাইনের চেয়ে নোট টেন প্লাসের প্রতি মানুষ দ্বিগুণ আগ্রহ দেখাচ্ছে জানিয়ে তিনি বলেন, ‘বসুন্ধরায় সবচেয়ে বড় স্যামসাংয়ের এই দোকানটি ২৫ থেকে ৩০টি নোট টেন প্লাসের প্রি অর্ডার পেয়েছিল। এর মধ্যে ৭০ শতাংশ ডেলিভারি দেওয়া শেষ হয়েছে।’

বিজ্ঞাপন

বসুন্ধরা শপিং মলের বায়োজীদ টেলিকমের ম্যানেজার জমশেদ আলম জানান, ‘আমরা পাঁচটি প্রি-অর্ডার পেয়েছিলাম। গ্রাহকের কাছে সবগুলো ডিভাইসই তুলে দেওয়া হয়েছে। ৩১ তারিখ পর্যন্ত প্রি-অর্ডার দেওয়ার সময় ছিল। কিন্তু চাহিদার চেয়ে সরবরাহ কম থাকায় কোম্পানি নির্দিষ্ট সময়ের আগেই প্রি-অর্ডার বন্ধ করে দিয়েছে।’

ইস্টার্ন প্লাজার স্যামসাং-এর শো রুম আর কে ইলেক্ট্রনিকসের ম্যানেজার রুহুল আমিন রাজু জানান, ‘আমরা ২২টি নোট টেন প্লাসের অর্ডার পেয়েছি। এখন পর্যন্ত অর্ধেক ডেলিভারি দিয়েছি। কোম্পানি এখনো বাকিগুলো দেয়নি। আস্তে আস্তে বাকিগুলো ডেলিভারি দেওয়া হবে।’

তবে বসুন্ধরা সিটি ও ইস্টার্ন প্লাজাসহ বিভিন্ন মোবাইল মার্কেটে অপেক্ষাকৃত ছোট দোকানগুলোতে গ্যালাক্সি নোট টেন প্লাসের দেখা মেলেনি।

দেশে সেটটির প্রি-অর্ডার শুরু হয় গত কয়েক মাস আগে থেকে। ৩১ আগস্ট পর্যন্ত প্রি-অর্ডার নেওয়ার কথা থাকলেও সরবরাহ কম থাকায় তা বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে। সেপ্টেম্বরের প্রথম সপ্তাহ থেকে অগ্রিম বুকিং দেওয়া ছাড়াই ডিভাইসটি কেনা যাবে বলে জানিয়েছেন বিক্রেতারা।

জানতে চাইলে স্যামসাং বাংলাদেশের হেড অব মোবাইল মো. মূয়ীদুর রহমান বলেন, ‘আমরা অত্যন্ত আনন্দের সঙ্গে জানাতে চাই যে, প্রিঅর্ডারের ক্ষেত্রে ক্রেতাদের কাছ থেকে আমরা অভাবনীয় সাড়া পেয়েছি। মূলত উদ্ভাবনী ফিচারের কারণেই নতুন এই ডিভাইসটির জন্য ক্রেতাদের বাঁধভাঙ্গা উচ্ছ্বাস, যা সত্যিই চোখে পড়ার মতো। ইতোমধ্যে প্রথম ধাপের প্রি-অর্ডার করা ক্রেতাদের গ্যালাক্সি নোট টেন প্লাস হস্তান্তর শুরু হয়ে গিয়েছে।’

স্যামসাং গ্যালাক্সি নোট টেন প্লাসের ডিসপ্লে বেশ বড়। ছয় দশমিক আট ইঞ্চির অ্যামোলেড ডিসপ্লের সেটটিতে ১২ মেগাপিক্সেলের ডুয়েল অ্যাপারচার লেন্স, ১৬ মেগাপিক্সেলের ওয়াইড অ্যাঙ্গেল লেন্স, ১২ মেগাপিক্সেলের টেলিফটো লেন্স রয়েছে।

এছাড়া, ব্লার ব্যাকগ্রাউন্ড ও পোর্ট্রেইট ভিডিওর জন্য আছে থ্রিডি ডেপথ সেন্সিং ক্যামেরা। সেলফির জন্য রয়েছে ১০ মেগাপিক্সেল লেন্স। প্রসেসরে আছে কোয়ালকমের স্ন্যাপড্রাগন ৮৫৫। এর দাম ১ লাখ ৪৪ হাজার ৫০০ টাকা।

এদিকে, স্যামসাং ও গ্রামীণফোন যৌথভাবে বাজারে এনেছে গ্যালাক্সি নোট টেন প্লাস।

সম্প্রতি গ্রামীণফোন (জিপি) হাউসে ডিভাইসটি উন্মোচন করা হয়। স্যামসাংয়ের সঙ্গে গ্রামীণফোনের অংশীদারিত্বের ফলে অপারেটরটির ব্যবহারকারীরা ২০ জিবি ডেটা বিনামূল্যে সাত দিন মেয়াদে ব্যবহার করতে পারবেন। এছাড়াও, গ্রাহকরা ১৯৮ টাকায় সাত দিন মেয়াদে ২০ জিবি কিনতে পারবেন। গ্রাহকরা অফারগুলো তিন মাসে ১২ বার নিতে পারবেন।

সারাবাংলা/ইএইচটি/এমআই

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন