মঙ্গলবার ২৪ সেপ্টেম্বর, ২০১৯ ইং , ৯ আশ্বিন, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ, ২৪ মুহাররম, ১৪৪১ হিজরি

বিজ্ঞাপন

মুন্সীগঞ্জে ভুয়া ম্যাজিস্ট্রেট ও সাংবাদিকসহ গ্রেফতার ৭

সেপ্টেম্বর ১১, ২০১৯ | ৩:৫৮ পূর্বাহ্ণ

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট

মুন্সীগঞ্জ: মুন্সিগঞ্জে ভূয়া ম্যাজিস্ট্রেট, পত্রিকার ফটোগ্রাফারসহ ৫ সাংবাদিক ও মাইক্রোবাস চালককে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। লৌহজং উপজেলার নাগেরহাট বাজার এলাকা থেকে আটকের পর তাদের মুন্সীগঞ্জ কারাগারে পাঠানো হয়েছে।

বিজ্ঞাপন

আটককৃতদের মধ্যে-ভূয়া ম্যাজিস্ট্রেট মো. লোকমান হোসেন (৫৮), গাড়ি চালক মো. কবীর হোসেন (২৮), ক্যামেরাম্যান মো. কবির (৪২), কথিত সাংবাদিক নাজমুল হক (৩৬), সুমন শেখ (২২), মো. রাজ্জাক (৪০) ও শহিদুল ইসলাম সোহেল (৩৫)।

মঙ্গলবার (১০ সেপ্টেম্বর) মুন্সীগঞ্জ আদালত তাদেরকে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দেন।

এর আগে গ্রেপ্তারকৃত প্রত্যেকের ৫ দিনের রিমান্ড চেয়ে আবেদন করা হয়। রিমান্ড শুনানী না হওয়ায় আদালত তাদেরকে কারাগারে পাঠানোর নির্দশ দেন।

বিজ্ঞাপন

গত সোমবার সন্ধ্যায় তাদেরকে উপজেলার নাগেরহাট বাজার থেকে গ্রেপ্তার করা হয়। এ সময় তাদের ব্যবহৃত একটি মাইক্রোবাস (ঢাকা মেট্রো চ ১৫-১৬৯৮) জব্দ করা হয়।  ওই দিন রাতেই তাদের বিরুদ্ধে লৌহজং থানায় মামলা হয়।

এ সময় নাগেরহাট বাজারের ব্যবসায়ীরা জানান, তারা ৭জন একটি মাইক্রোবাস নিয়ে বাজারের কয়েকটি মিষ্টির দোকানে মিষ্টি খায় এবং ভেজাল বিরোধী অভিযান চালায়। মিষ্টিতে ভেজাল আছে বলে দোকান মালিকদেরকে জেল জরিমানার ভয় দেখায়। দোকানিদের সন্দেহ হলে বাজারের লোকজন জড়ো হলে ভুয়া ম্যাজিস্ট্রেট ও সাংবাদিক টিম পালিয়ে যাওয়ার চেষ্টার প্রস্তুতি নিলে দোকানদাররা তাদের আটক করে থানায় খবর দেয়।

এ বিষয়ে লৌহজং থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. আলমগীর হোসাইন জানান, একজন ভূয়া ম্যাজিস্ট্রেট ও কয়েকজন ভূয়া সাংবাদিকসহ ৭ জন মিষ্টির দোকানে গিয়ে ১৫ হাজার টাকা চাঁদা দাবি করলে দোকানিদের সন্দেহ হয় এবং তাদের আটক করে। খবর পেয়ে পুলিশ উপস্থিত হয় ও তাদের থানায় নিয়ে আসে। পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, দৈনিক চৌকস পত্রিকার সাংবাদিক বলে তারা নিজেদের পরিচয় দেয়।

সারাবাংলা/ এজেডকে/আরএফ

Advertisement
বিজ্ঞাপন

Tags:

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন