বিজ্ঞাপন

‘উদ্ধারকারি’ ছবির সিক্যুয়ালে কঙ্গনা

September 19, 2019 | 12:31 pm

এন্টারটেইনমেন্ট ডেস্ক

বেশ ক’বছর ধরে কঙ্গনা রানাউতের হিট ছবি নেই। পরপর সব ছবি ব্যর্থ। ফলে কঙ্গনা ফিরছেন পুরনো হিসেবে।

বিজ্ঞাপন

অতীতে কঙ্গনা রানাউতের ক্যারিয়ার যতবারই ঝুঁকির মুখে পড়েছে ‘তনু ওয়েডস মনু’ সিরিজ ততবারই সামাল দিয়েছে তার ক্যারিয়ার। ‘কাইট্‌স’, ‘নক আউট, ‘নো প্রবলেম’... এসব ছবির ব্যর্থতার ভারে কঙ্গনা যখন ক্লান্ত, তখন আনন্দ এল রাইয়ের ‘তনু ওয়েডস মনু’ তাকে হিটের মুখ দেখায়।

এরপর ২০১২-’১৪ সালে এসে আবারও খারাপ সময় আসে কঙ্গনার ক্যারিয়ারে। সঙ্গে যোগ হয়েছিল হৃতিক রোশনের সঙ্গে ব্যর্থ প্রেমের চাপ। সবমিলিয়ে লেজেগোবরে অবস্থা। সে সময় আবারও উদ্ধারকারির ভূমিকায় ‘তনু ওয়েডস মনু রিটার্নস’। ছবির সিক্যুয়াল দিয়ে আবারও ঘুরে দাঁড়ান কঙ্গনা।

বিজ্ঞাপন

পাঁচ-ছয় বছর পর  এই মুহূর্তে কঙ্গনা আবারও চাপে। গত তিন বছর যাবত তার কোনও হিট ছবি নেই। শুধুমাত্র বিতর্কের জোরে খবরে টিকে আছেন নায়িকা। এই রকম যখন পরিস্থিতি তখন আবারও কঙ্গনাকে উদ্ধার করতে এগিয়ে আসছে ‘তনু ওয়েডস মনু’ ফ্র্যাঞ্চাইজ়ি। শোনা যাচ্ছে, সিরিজের তৃতীয় ছবি করতে যাচ্ছেন পরিচালক আনন্দ এল রাই। ছবির নামও ঠিক হয়েছে- ‘তনু ওয়েডস মনু এগেন’। খবর বলছে,  ‘তনু ওয়েডস মনু এগেন’ এ থাকছেন কঙ্গনা।

‘তনু ওয়েডস মনু রিটার্নস’-এর সময় থেকেই তৃতীয় ছবির পরিকল্পনা ছিল আনন্দের। কিন্তু দ্বিতীয় ছবির শুটিংয়ের সময় পরিচালককে বেশ নাকাল করেছিলেন কঙ্গনা। সেসব খবর গণমাধ্যমেও এসেছিলো। অনেকটা বাধ্য হয়েই তৃতীয় ছবিটি মুলতুবি করে দেন আনন্দ। কঙ্গনার ওপর বীতশ্রদ্ধ আনন্দ তৃতীয় ছবি নিয়ে আর এগোননি।

মাঝে অনেক সময় পার হয়েছে। জানা গেছে আনন্দ আর কঙ্গনার মধ্যকার সমস্যাও অনেকটা মিটে গেছে। দু’জনের ঝামেলা মেটানোর দায়িত্ব নিয়েছেন প্রযোজক শৈলেশ আর সিংহ। যিনি ‘তনু ওয়েডস মনু’  সিরিজ়ের প্রথম ছবির প্রযোজক ছিলেন এবং ইদানিংকালে কঙ্গনার অনেকগুলো ছবি প্রযোজনা করেছেন। প্রযোজকের সঙ্গে আনন্দেরও ভালো সম্পর্ক। তার মধ্যস্থতাতেই পরিচালক আর নায়িকার শীতল সম্পর্কের বরফ গলেছে। যে কারণে ঝুঁকির মুখে থাকা কঙ্গনার ক্যারিয়ারে আবারও উদ্ধকারির ভূমিকায় নামছে ‘তনু ওয়েডস মনু’  সিরিজের নতুন ছবি ‘তনু ওয়েডস মনু এগেন’।

আগামী বছরের শুরুতে ছবির শুটিং শুরু হওয়ার কথা রয়েছে।

সারাবাংলা/পিএম

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন