বুধবার ১১ ডিসেম্বর, ২০১৯ ইং , ২৭ অগ্রহায়ণ, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ, ১৩ রবিউস-সানি, ১৪৪১ হিজরি

বিজ্ঞাপন

‘মুশফিকের চেয়ে লিটন ভালো ফিল্ডার’

সেপ্টেম্বর ২৩, ২০১৯ | ৬:৫৩ অপরাহ্ণ

স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট

উইকেট কিপিংয়ে মুশফিক কেন? লম্বা সময় ধরে বাংলাদেশের ক্রিকেটে বহুল আলোচিত প্রশ্ন এটি। তবে প্রশ্নটি মোটেও অহেতুক নয়। স্ট্যাম্পের পেছনে গ্লাভস হাতে ততটা সপ্রতিভতা দেখাতে পারেননি বলেই প্রশ্নটি উঠেছিল। দুঃখজনক হলেও সত্য, কিপিংয়ের সেই অতৎপর ধারাবাহিকতা আজও ধরে রেখেছেন বাংলাদেশ ক্রিকেটের মিস্টার ডিপেন্ডেবল খ্যাতি পেয়ে যাওয়া এই মিডল অর্ডার ব্যাটসম্যান।

বিজ্ঞাপন

বিশ্বকাপ থেকে শুরু করে সদ্য সমাপ্ত আফগানিস্তান টেস্ট এমনকি চলতি ত্রিদশীয় সিরিজেও তার গ্লাভস ফসকে বল চলে যাওয়া, এজ বল ছেড়ে দেওয়া, দুই পায়ের মাঝ দিয়ে বল ছুটে যাওয়া ছিল নিয়মিত ঘটনা। কিন্তু তারপরেও তার গ্লাভসেই আস্থা রাখছে বাংলাদেশ টিম ম্যানেজমেন্ট।

কিন্তু কেন? আরেক উইকেটরক্ষক ব্যাটসম্যান লিটন দাস তো দলে আছেনই। এরপরেও কেন মুশফিকে নির্ভরশীলতা বাংলাদেশের?

আলোচিত সেই প্রশ্নটিই সোমবার (২৩ সেপ্টেম্বর) করা হয়েছিল বাংলাদেশ দলের হেড কোচ রাসেল ডমিঙ্গোকে। জবাবে তিনি বলেছেন, মুশফিক ভালো ফিল্ডার হলে তাকে বদলে লিটনকেই গ্লাভস তুলে দেওয়া হতো। যেহেতু লিটন তার চেয়ে প্রতিশ্রুতিশীল ফিল্ডিং করে থাকেন সেহেতু মুশফিককে উইকেটের পেছনে রাখার পক্ষপাতি বাংলাদেশ টিম ম্যানেজমেন্ট। তাছাড়া তার কিপিংও নাকি দলের কর্তাব্যক্তিদের বেশ পছন্দ!

বিজ্ঞাপন

হেড কোচ জানান, ‘এই মুহূর্তে লিটনের কিপিংয়ের সম্ভাবনা নেই। লিটন মাঠে যেভাবে নিজেকে মেলে ধরে, আমরা তাতে সন্তুষ্ট। সে দারুণ ফিল্ডার, মুশির চেয়ে ভালো ফিল্ডার। আমার মতে, যতজন ভালো ফিল্ডারকে আমরা পাই, তত দলের জন্য ভালো। লিটন-আফিফ-শান্তর মতো ফিল্ডাররা যে ৫-৬ রান বাঁচায় মাঠে, সেটি খুবই গুরুত্বপূর্ণ। মুশি সম্প্রতি দুয়েকটি বল মিস করেছে বটে। তবে মুশি যেভাবে কিপিং করে, তাতে এমনিতে আমরা খুশি। স্ট্যাম্পের পেছনে সে দারুণ প্রাণবন্ত, অনেক অভিজ্ঞ, স্ট্যাম্পের পেছন থেকে খুব ভালো দেখতে পারে বলে অধিনায়ককে কার্যকর কিছু পরামর্শ দিতে পারে সে। সে কিপিং করলে অনেক সুবিধা পাই আমরা।’

বিজ্ঞাপন

সারাংলা/এমআরএফ/এমআরপি

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন