বুধবার ২২ জানুয়ারি, ২০২০ ইং

ডেঙ্গু: ২৪ ঘণ্টায় ঢাকায় ভর্তি ৯৮, ঢাকার বাইরে ২৪৪ জন

সেপ্টেম্বর ৩০, ২০১৯ | ৩:৩০ পূর্বাহ্ণ

সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট

ঢাকা: শনিবার (২৮ সেপ্টেম্বর) সকাল ৮টা থেকে রোববার (২৯ সেপ্টেম্বর) সকাল ৮টা পর্যন্ত ২৪ ঘণ্টা সময়ে ৩৪২ জন নতুন রোগী বিভিন্ন হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন। এর মধ্যে ঢাকা মহানগরীতে ডেঙ্গু আক্রান্ত হয়ে ৯৮ জন ভর্তি হলেও ঢাকার বাইরে ২৪৪ জন রোগী ডেঙ্গু আক্রান্ত হয়ে বিভিন্ন হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন।

বিজ্ঞাপন

রোববার (২৯ সেপ্টেম্বর) স্বাস্থ্য অধিদফতরের হেলথ ইমার্জেন্সি অপারেশন সেন্টার ও কন্ট্রোল রুমের সহকারী পরিচালক ডা. আয়শা আক্তার এ সব তথ্য জানান।

তিনি জানান, ডেঙ্গু জ্বরে আক্রান্ত হয়ে এ বছর এখন পর্যন্ত ৮৭ হাজার ৬০৫ জন রোগী বিভিন্ন হাসপাতালে চিকিৎসা নিয়েছেন। হাসপাতাল থেকে সুস্থ হয়ে ছাড়পত্র নিয়ে বাড়ি ফিরে গেছেন ৮৫ হাজার ৭৯৮ জন। বর্তমানে বিভিন্ন হাসপাতালে চিকিৎসাধীন আছেন এক হাজার ৫৭৭ জন রোগী।

বিজ্ঞাপন

তিনি আরও জানান, বর্তমানে ঢাকার বিভিন্ন সরকারি ও বেসরকারি হাসপাতালে ভর্তি আছেন ৫৮৩জন রোগী। ঢাকার বাইরে বিভিন্ন হাসপাতালে চিকিৎসা নিচ্ছেন ৯৯৪ জন।

এদিকে চলতি বছরে এখন পর্যন্ত সম্ভাব্য ডেঙ্গু রোগে আক্রান্ত হয়ে ২৩১ জনের মৃত্যুর খবর পেয়েছে স্বাস্থ্য অধিদফতরের রোগতত্ত্ব, রোগনিয়ন্ত্রণ ও গবেষণা ইনস্টিটিউট (আইডিসিআর)। এর মধ্যে ডেঙ্গুতে মৃত্যু পর্যালোচনা কমিটি ১৩৬টি মৃত্যু পর্যালোচনা করেছে। তার মধ্যে ৮১ জনের ডেঙ্গু আক্রান্ত হয়ে মৃত্যুর খবর নিশ্চিত করা গেছে।

গত ২৪ ঘণ্টায় ঢাকা শহরের বিভিন্ন হাসপাতালে ভর্তি হওয়া ডেঙ্গু রোগীর মধ্যে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে (ঢামেক) ২৫ জন, এসএমসি ও মিটফোর্ড হাসপাতালে ১৩ জন, ঢাকা শিশু হাসপাতালে ২ জন, শহীদ সোহরাওয়ার্দী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ১০ জন ভর্তি হয়েছেন।

এছাড়াও বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয়ে (বিএসএমএমইউ) ৪ জন, মুগদা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ৩ জন, পিলখানা বিজিবি হাসপাতালে ১ জন, কুর্মিটোলা জেনারেল হাসপাতালে ১০ জন রোগী ভর্তি হয়েছেন।

অন্যদিকে, ঢাকা শহরের বিভিন্ন বেসরকারি হাসপাতালে নতুনভাবে ডেঙ্গু আক্রান্ত হয়ে ভর্তি হয়েছেন ২৯ জন রোগী।

পাশাপাশি ঢাকা বিভাগের জেলা শহরগুলোতে ৫১ জন, চট্টগ্রাম বিভাগে ৩৭ জন ও খুলনা বিভাগে ৮১ জন, রংপুর বিভাগে ১০ জন, রাজশাহী বিভাগে ২১ জন, বরিশাল বিভাগে ৩৬ জন, সিলেট বিভাগে ১ জন, ময়মনসিংহ বিভাগে ৭ জন ডেঙ্গু রোগে আক্রান্ত হয়ে হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন।

সারাবাংলা/এসবি/একে

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন