বুধবার ১৩ নভেম্বর, ২০১৯ ইং , ২৯ কার্তিক, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ, ১৫ রবিউল-আউয়াল, ১৪৪১ হিজরি

বিজ্ঞাপন

রোনালদোর নামে নামকরণ হবে লিসবনের স্টেডিয়াম

অক্টোবর ১৩, ২০১৯ | ১২:৫২ অপরাহ্ণ

স্পোর্টস ডেস্ক

ক্রিস্টিয়ানো রোনালদো পর্তুগাল ফুটবলের জীবন্ত কিংবদন্তি। পর্তুগালের সর্বকালের সেরা ফুটবলার হিসেবে তার নাম উচ্চারিত হচ্ছে ইউরোপ জুড়েই। অবশ্য কেবল পর্তুগালই নয়, পুরো বিশ্ব জুড়েই চলছে রোনালদোর গুণগান। ফুটবল ইতিহাসের সেরাদের সেরা হিসেবে উঠেছে রোনালদোর নাম। কতশত রেকর্ড ভেঙেছেন আর গড়েছেন নতুন রেকর্ড। রেকর্ড ভাঙা আর গড়ার তালিকায় আরও একটি পালকযুক্ত করতে যাচ্ছেন রোনালদো। ইতিহাসের ষষ্ঠ ফুটবলার হিসেবে ক্যারিয়ারের ৭০০ গোলের মাইলফলক স্পর্শ করার দ্বারপ্রান্তে রোনালদো।

বিজ্ঞাপন

উয়েফা ইউরোর বাছাই পর্বে লুক্সেমবার্গের বিপক্ষে গোল করে ৬৯৯ গোল পূর্ণ করেন রোনালদো। আর ইউক্রেনের বিপক্ষে একটি গোল করতে পারলেই ষষ্ঠ ফুটবলার হিসেবে বনে যাবেন ৭০০ গোলদাতা। আর রোনালদোর এমন কীর্তিকে সম্মাননা জানাতে শৈশবের ক্লাব স্পোর্টিং লিসবন তাদের ক্লাবের স্টেডিয়ামের নাম পরিবর্তন করে রোনালদোর নামে রাখতে চায়।

স্টেডিয়ামের নাম পরিবর্তনের এমন কথা জানিয়েছেন স্পোর্টিং লিসবনের বর্তমান প্রেসিডেন্ট ফ্রেডেরিকো ভারান্ডাস। এর আগেই অবশ্য নিজের জন্মস্থানে রোনালদোর নামে নামকরণ হয়েছে এয়ারপোর্টের। এখন আবার শৈশবের ক্লাবের স্টেডিয়ামের নামটাই তার নামে হতে যাচ্ছে। বর্তমানে লিসবন স্টেডিয়ামের নাম ক্লাবের প্রতিষ্ঠাতা জোসে আলভালাদের নামে।

বর্তমান প্রেসিডেন্ট ফ্রেডেরিকো ভারান্ডাস বলেন, ‘আসলে এটা এমন একটি প্রস্তাব যা নিয়ে আমরা ভাবছি। ক্রিস্টিয়ানো আমাদের ক্লাবের সর্বকালের সেরা ফুটবলা হয়েই থাকবেন। আমরা অনেক গর্ববোধ করি যে ক্রিস্টিয়ানো আমাদের ক্লাবে থেকেই বেড়ে উঠেছে। আর আমরা সম্মানিতবোধ করি যে বিশ্বের সেরা ফুটবলারের নামের সাথে আমাদের ক্লাবের নামযুক্ত আছে বলে।’

পরিশ্রম অধ্যবসায় আর ইচ্ছাশক্তি দিয়ে বিশ্ব জয় করা সম্ভব আর তা করে দেখিয়েছেন ক্রিস্টিয়ানো রোনালদো। আর তাই তো তরুণ ফুটবলারদের রোল মডেল হিসেবে নাম উচ্চারিত হয় তারই। এ সম্পর্কে লিসবনের প্রেসিডেন্ট বলেন, ‘আমাদের ক্লাবের তরুণদের আমরা রোনালদোকে উদাহরণ হিসেবে দেখায়। ও কীভাবে পরিশ্রম করত, কীভাবে অনুশীলন করত সবকিছুই তরুণদের জন্য উদাহরণ।’

বর্তমানে স্পোর্টিং লিসবনের স্টেডিয়ামের নাম ক্লাবটির প্রতিষ্ঠাতার নামে, স্তাদিও জোসে আলভালাদে। তবে এই নাম পরিবর্তন হয়ে হতে পারে ‘সিআর৭ অ্যারেনা’ অথবা ‘ক্রিস্টিয়ানো রোনালদো স্টেডিয়াম’। আরও গুঞ্জন উঠেছে ক্লাবের প্রতিষ্ঠাতার নামের সাথে স্টেডিয়ামের নামে জুড়ে দেওয়া হতে পারে রোনালদোর নামও। সেক্ষেত্রে এই স্টেডিয়ামের নামমকরণ করা হবে ‘এস্তাদিও জোসে আলভালাদে সিআর৭’।

তবে এখনও এই নিয়ে অফিসিয়ালি কোনো ঘোষণা দেয়নি স্পোর্টিং লিসবন কর্তৃপক্ষ। ইউক্রেনের বিপক্ষে এক গোল করতে পারলেই ৭০০ গোলদাতাদের ক্লাবের ষষ্ঠ ফুটবলার হিসেবে নাম লেখাবেন ক্রিস্টিয়ানো রোনালদো। এই তালিকায় সবার শীর্ষে আছে অস্ট্রিয়ান তারকা জোসেফ বিকান (৮০৫) এরপর আছেন দুই ব্রাজিলিয়ান কিংবদন্তি রোমারিও এবং পেলে। আর তারপরেই আছেন ফেরেঙ্ক পুসকাস আর জার্ড মুলার।

বিজ্ঞাপন

সারাবাংলা/এসএস

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন