মঙ্গলবার ১২ নভেম্বর, ২০১৯ ইং , ২৮ কার্তিক, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ, ১৪ রবিউল-আউয়াল, ১৪৪১ হিজরি

বিজ্ঞাপন

মালয়েশিয়া থেকে আনা ১৩ টন মেয়াদোর্ত্তীণ ফুচকা জব্দ

অক্টোবর ২২, ২০১৯ | ১:৪৮ অপরাহ্ণ

স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট

চট্টগ্রাম ব্যুরো: মালয়েশিয়া থেকে আমদানি করা ১৩ মেট্রিক টন মেয়াদোর্ত্তীণ কাঁচা ফুচকা জব্দ করেছে চট্টগ্রাম কাস্টমস কর্তৃপক্ষ। চট্টগ্রাম বন্দরের এনসিটি নেভাল ইয়ার্ডে কাঁচা ফুচকার চালানটি আসার পর ১০ মাস আগে এর মেয়াদ শেষ হওয়ার প্রমাণ পায় কাস্টমসের প্রিভেন্টিভ টিম।

বিজ্ঞাপন

মঙ্গলবার (২২ অক্টোবর) কায়িক পরীক্ষা শেষে প্রিভেন্টিভ টিম পুরো চালানের সব কাঁচা ফুচকাই মেয়াদোত্তীর্ণ বলে প্রতিবেদন দিলে সেটি জব্দের নির্দেশ দেন সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তা।

চট্টগ্রাম কাস্টমসের উপ-কমিশনার নুরউদ্দিন মিলন সারাবাংলাকে বলেন, ‘আমদানি করা ১৩ টন ফুচকার পুরো চালানটিই মেয়াদোত্তীর্ণ। আমদানি নীতি আদেশ অনুযায়ী সেটি খালাসযোগ্য নয়। কারণ সেটি খালাস হয়ে বাজারে গেলে জনস্বাস্থ্যের জন্য মারাত্মক হুমকি সৃষ্টি হতে পারে। চালানটি জব্দ করা হয়েছে। পরে সেটি ধ্বংস করা হবে।’

কাস্টমসের প্রিভেন্টিভ টিমের সদস্য সহকারী রাজস্ব কর্মকর্তা রাসেল মাহমুদ জুয়েল ও মো. নুরুজ্জামান সবুজ।

রাসেল মাহমুদ জুয়েল সারাবাংলাকে জানান, গত ৩ অক্টোবর পানিপুরী তৈরির জন্য কাঁচামাল হিসেবে কাঁচা ফুচকার চালান নিয়ে এমভি কেপ এরাক্সস নামে একটি জাহাজ মালয়েশিয়া থেকে চট্টগ্রাম বন্দরে আসে। ওইদিনই চট্টগ্রামের খাতুনগঞ্জের কুমিল্লা শিপিং নামে একটি সিএন্ডএফ প্রতিষ্ঠান চালানটি খালাসের জন্য কাস্টমসে বিল অব এন্ট্রি দাখিল করেন। গোপন সংবাদের ভিত্তিতে কাস্টমসের পক্ষ থেকে চালানটির খালাস বন্ধ রাখার নির্দেশনা দেওয়া হয়।

এরপর গত রোববার (২০ অক্টোবর) চালানটির কায়িক পরীক্ষা শুরু করেন কাস্টমসের প্রিভেন্টিভ টিমের সদস্যরা। দুইদিন ধরে পরীক্ষায় দেখা যায়, আমদানি করা কাঁচা ফুচকার মেয়াদ শেষ হয়েছে ২০১৯ সালের ২৪ জানুয়ারি। পুরো চালানের সব পণ্যের মেয়াদই এই সময়ে শেষ হয়েছে বলে জানিয়েছেন কাস্টমস কর্মকর্তা জুয়েল।

বিজ্ঞাপন

সারাবাংলা/আরডি/এমও

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন