বিজ্ঞাপন

রুম্পার প্রেমিক সৈকতকে ৭ দিনের রিমান্ডে চায় পুলিশ

December 8, 2019 | 1:44 pm

সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট

ঢাকা: স্ট্যামফোর্ড ইউনিভার্সিটির শিক্ষার্থী রুবাইয়াত শারমিন রুম্পা হত্যা মামলায় তার প্রেমিক আবদুর রহমান সৈকতকে গ্রেফতার দেখিয়ে সাতদিনের রিমান্ড চেয়ে আদালতে পাঠিয়েছে পুলিশের গোয়েন্দা শাখা (ডিবি)।

বিজ্ঞাপন

এর আগে শনিবার (৭ ডিসেম্বর) রাতে সৈকতকে আটক করে ডিবি। প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদ শেষে রমনা থানায় দায়ের করা মামলায় রোববার (৮ ডিসেম্বর) সৈকতকে গ্রেফতার দেখানো হয়েছে।

ঢাকা মহানগর গোয়েন্দা পুলিশের (দক্ষিণ) সহকারী কমিশনার (এসি) আরেফীন রহমান সারাবাংলাকে এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

পুলিশের সহকারী কমিশনার বলেন, ‘আমরা সৈকতকে রিমান্ডে চাই। রিমান্ড পেলে রুম্পার মৃত্যুর বিষয়ে অধিকতর জিজ্ঞাসাবাদ করা হবে।’

বিজ্ঞাপন

গোয়েন্দা সূত্রে জানা যায়, ২২ বছর বয়সী সৈকত আদমজী ক্যান্টনমেন্ট কলেজের বিবিএ ক্লাসের ছাত্র। সৈকত স্বীকার করেছে, রুম্পা তার প্রেমিকা ছিলেন। ঘটনার দিন সন্ধ্যায় রুম্পার সঙ্গে তার কথা হয়েছে।

সৈকত একসময় স্টামফোর্ড ইউনিভার্সিটির ছাত্র ছিল। পরে সে অন্য একটি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে ভর্তি হয়।

রুম্পা হত্যা মামলাটির তদন্তভার ডিবিতে আনা হয়েছে।

বিজ্ঞাপন

সূত্র জানায়, রুম্পার সঙ্গে গত কয়েক মাস ধরে সৈকতের প্রেমের সম্পর্ক চলছিল। কিন্তু সম্প্রতি তাদের মধ্যে দূরত্ব তৈরি হয়। প্রেমের সম্পর্কের বিচ্ছেদ মেটাতেই ঘটনার দিন সন্ধ্যায় রুম্পা সৈকতের ফোন পেয়ে ওই ভবনে যায়। সিসিটিভি ফুটেজে সৈকত ও রুম্পার প্রবেশের দৃ্শ্য ধরা পড়েছে। এরপর রাত সোয়া ১০টার দিকে রুম্পার মরদেহ দুই ভবনের ফাকা গলিতে পড়ে থাকা অবস্থায় উদ্ধার করে পুলিশ।

সারাবাংলা/ইউজে/একে

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন