বিজ্ঞাপন

অসহায় জনতার পাশে গোলরক্ষক সোহেল

April 1, 2020 | 8:54 pm

স্পোর্টস করেসপন্ডেন্ট

ঢাকা: দেশের ফুটবলের খোঁজখবর যারা নিয়মিত রাখেন তারা নিশ্চয়ই জেনে থাকবেন শহীদুল আল সোহেলের কথা। বাংলাদেশ জাতীয় দলের গোলরক্ষক তিনি। বেশ কয়েকবারই সংবাদমাধ্যমের শিরোনাম হয়েছেন তিনি মাঠের পারফরম্যান্স দিয়ে। লাল-সবুজদের প্রতিনিধিত্ব করার সময় সাফ চ্যাম্পিয়নশিপসহ বিভিন্ন ম্যাচে 'খারাপ পারফরম্যান্সের' কারণে খলনায়কে পরিণত হয়েছিলেন এই গোলরক্ষক। এবার শিরোনাম হচ্ছেন অন্য কারণে।

বিজ্ঞাপন

সমর্থকদের চোখে মাঠের সেই 'খলনায়ক' এবার নায়কের ভূমিকায়। করোনাক্রান্তিতে বিপর্যস্ত হয়ে পড়া অসহায় খেটে খাওয়া মানুষদের পাশে দাঁড়িয়েছেন ঢাকা আবাহনীর গোলরক্ষক।

করোনাভাইরাসের কারণে পুরো দেশেই থমথমে অবস্থা। প্রায় লকডাউন হয়ে পরায় সকল মানুষ এখন হোম কোয়ারেন্টাইনে থাকছেন! দেশের খেলাধুলা বন্ধ। তাই নিজ শহর পতেঙ্গাতেই অবস্থান করছেন সোহেল। তবে এমন অবস্থায় অসহায়দের পাশে দাঁড়াতে ভোলেননি এ ফুটবলার।

বিজ্ঞাপন

এলাকায় গরীব অসহায়দের মানবিক সাহায্যের কাজে নিয়োজিত থাকা 'এক টাকার ফান্ড' সংগঠনের সঙ্গে যুক্ত হয়েছেন সোহেল। দুস্থ মানুষদের খাবারসহ নিত্যপ্রয়োজনীয় পণসামগ্রী পৌঁছে দিতে সংগঠনের হয়ে কাজ করছেন তিনি।

সংগঠনের সঙ্গে এক হয়ে দুস্থ পরিবারদের পাশে দাঁড়িয়েছেন তিনি। এ বিষয়ে এক সংবাদমাধ্যমকে জানালেন তার সহায়তার বিষয়টি, এ সময় সবচেয়ে বেশি ক্ষতিগ্রস্থ কিন্তু রাস্তায় থাকা মানুষগুলো। অনেকে আছে দিন আনে দিন খায়…ফকির ও পাগলও আছে, যারা এ মুহূর্তে খুবই কষ্টে আছে। আমাদের মহল্লায় কিছু বড়-ছোটভাইদের একটা সংগঠন আছে ‘এক টাকার ফান্ড’ নামে। সেটার মাধ্যমে এই অসহায়দের জন্য কিছু করার চেষ্টা করছি আমিও।”

গত সপ্তাহ ধরে কাজটি নিরবে করে যাচ্ছেন সোহেল। নিরবেই কাজগুলো করে যেতে চান তিনি, এখন দোকানপাট বন্ধ। রাস্তার পাগলগুলো বা রাস্তায় ঘুমানো মানুষগুলো খাবার পাচ্ছে না। গত পাঁচ-ছয়দিন ধরে ওদেরকে আমরা একবেলা খাবার দিচ্ছি। প্রতিদিন এক-দেড়শ মানুষকে খাবার দিচ্ছি আমরা। এটা হয়তো বেশি কিছু না, কিন্তু আমরা নিজেদের সামর্থ্য অনুযায়ী চেষ্টা করে যাচ্ছি। এগুলো আমি আসলে বলতে চাই না। এর আগে কাউকে বলিওনি। এগুলো নীরবে করতেই ভালো লাগে আমার।'

সঙ্গে সামর্থ্যবান মানুষদের অসহায়দের পাশে দাঁড়ানোর অনুরোধ করেন তিনি।

সারাবাংলা/জেএইচ

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন