বিজ্ঞাপন

‘আগে সীমান্তে অত্যাচার থামাও, পরে ভারত-পাকিস্তান সিরিজ’

April 25, 2020 | 6:00 pm

স্পোর্টস ডেস্ক

করোনাভাইরাসের প্রভাবে বন্ধ হয় আছে সব ধরনের ক্রিকেট। তারও আগে থেকে নির্দিষ্ট করে বলতে গেলে ২০০৭ সালের পর থেকে ভারত-পাকিস্তানের মধ্যে দ্বিপাক্ষিক ক্রিকেট সিরিজ বন্ধ হয়ে আছে। করোনা মহামারির মধ্যে পাকিস্তানের সাবেক গতি তারকা শোয়েব আখতার প্রস্তাব দেন ভারত-পাকিস্তানের মধ্যে পুনরায় চালু করা হোক ক্রিকেট সিরিজ। আর সেই সিরিজের প্রাপ্য অর্থ দুই দেশের দুঃস্থ মানুষের সাহায্যে ব্যয় করা হোক। তবে ভারতের সাবেক ক্রিকেটাররা সে বিষয়ে বরাবরই দ্বিমত পোষণ করে আসছেন। এবার সে মিছিলে যুক্ত হলেন কিংবদন্তী অলরাউন্ডার কপিল দেব।

বিজ্ঞাপন

ভারত পাকিস্তানের মধ্যকার সিরিজ পুনরায় শুরু হওয়ার কোনো সম্ভাবনায় দেখছেন না কপিল। আর পুনরায় এই সিরিজ চালু করার আগে কপিল জানালেন, 'আগে পাকিস্তান আমাদের সীমান্তে হত্যা বন্ধ কর, এরপর দ্বিপাক্ষিক সিরিজ নিয়ে ভাবনা চিন্তা করা যাবে।'

সম্প্রতি স্পোর্টস টক নামক এক ইউটিউব চ্যানেলে সাক্ষাৎকার দেন কপিল দেব। সেখানে ক্রিকেট পুনরায় চালুর ব্যাপারে কথা বলেন। তবে ক্রিকেটের আগে স্কুল কলেজ আগে খোলার কথা বলেছেন এই কিংবদন্তী ক্রিকেটার। তিই বলেন, 'আমি এখনে আরো গুরুত্বপূর্ণ বিষয় নিয়ে ভাবছি। আপনাদের কি মনে হয় ক্রিকেটই এখন সব থেকে বড় বিষয়? ক্রিকেটের থেকে আমি বাচ্চাদের স্কুল কলেজ খোলার ব্যাপারে বেশি চিন্তিত।'

বিজ্ঞাপন

৬১ বছর বয়সী কপিল দেব সম্প্রতি ভারত-পাকিস্তানের মধ্যকার দ্বিপাক্ষিক সিরিজের আলোচনা নিয়ে বলেন, 'পাকিস্তান যদি ভারতের সঙ্গে সিরিজ খেলতে এতই ব্যস্ত হয়ে পড়ে তাহলে সবার আগে তাদের সীমান্তে ভারতের বিপক্ষে চালানো সকল কর্মকান্ড বন্ধ করতে হবে। আর ভারতের বিপক্ষে সীমান্তে কার্যক্রমে পাকিস্তান যত অর্থ খরচ করছে সেগুলো যেন দুঃস্থদের মধ্যে দান করে। আমরা হয়তো আবেগের বশবর্তী হয়ে বলতে পারি যে 'হ্যাঁ' চলো ভারত-পাকিস্তানের মধ্যে সিরিজ খেলি। কিন্তু এখন এই সিরিজ খেলাটা সব থেকে গুরুত্বপূর্ণ ব্যাপার না। আর যদি সত্যিই তাদের টাকার প্রয়োজন হয় তাহলে আগে সীমান্তে ভারতের বিপক্ষে চালানো সকল কার্যক্রম বন্ধ করতে হবে।'

সারাবাংলা/এসএস

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন