বিজ্ঞাপন

আসছে ঘূর্ণিঝড় আম্ফান, বাড়তে পারে বৃষ্টি

April 30, 2020 | 5:53 pm

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট

ঢাকা: বাংলাদেশের উপকূল থেকে দূর সমুদ্রে ঘূর্ণি বাতাস প্রবল হতে শুরু করলেও এখনো জন্ম নেয়নি ঘূর্ণিঝড় আম্ফান। স্যাটেলাইট থেকে পাওয়া বিভিন্ন ছবি ও ভিডিও বিশ্লেষণ করে আবহাওয়াবিদরা বলছেন, প্রবল হতে থাকা ঘূর্ণাবর্তটি ঘূর্ণিঝড় হয়ে উঠতে আরও কয়েকদিন সময় লাগতে পারে। তবে ভারতীয় আবহাওয়াবিদরা জানাচ্ছেন, মে মাসের প্রথম সপ্তাহে বঙ্গোপসাগরে আঘাত হানতে পারে ঘূর্ণিঝড় আম্ফান।

বিজ্ঞাপন

তবে ঘূর্ণিঝড় জন্ম নিতে দেরি করলেও সারা দেশে চলমান বৃষ্টির প্রভাব আগামী দুই দিনে আরও বাড়বে। বঙ্গোপসাগর থেকে উড়ে আসা মেঘ সারাদেশেই এখন বৃষ্টি ঝরিয়ে যাচ্ছে। এই সময়ে সুন্দরবন থেকে দক্ষিণে ভারতের উড়িষ্যা উপকূলে একটি লঘুচাপও সক্রিয় রয়েছে।

এই লঘুচাপটি নিম্নচাপে পরিণত হয়ে বঙ্গোপসাগরে বাংলাদেশ ও ভারতীয় উপকূলের কাছাকাছি হলে এর প্রভাবে বাংলাদেশের খুলনা, বরিশাল ও চট্টগ্রাম বিভাগে ভারি বৃষ্টির সম্ভাবনা আছে। এছাড়াও এই নিম্নচাপটির ঘূর্ণিঝড় আম্ফানে রূপ নেওয়ার সম্ভাবনাও রয়েছে।

বিজ্ঞাপন

বন্যা পূর্বাভাস ও সতর্কীকরণ কেন্দ্রের এক বিশেষ বার্তায় বলা হয়েছে, নিম্নচাপের প্রভাবে ৪ থেকে ৭ মে চট্টগ্রাম ও বরিশাল বিভাগে ভারি বর্ষণ হতে পারে। সে সময় উপকূলীয় এলাকায় স্বাভাবিকের চেয়ে বেশি উচ্চতার জোয়ার থাকবে।

সমুদ্রে শক্তি সঞ্চয় করছে ‘আম্ফান’, নিম্নচাপ ও ঝড়ের আশঙ্কা

আবহাওয়াবিদ বজলুর রশীদ বলেন, ‘আম্ফান এখনও সৃষ্টি হয়নি। তবে বাতাসের বর্তমান গতিপ্রবাহ দেখে মনে হচ্ছে এটি ঘূর্ণিঝড় হয়ে উঠতে আরও কয়েকদিন লাগবে। তাছাড়া এটি নিয়ে এখনও শঙ্কার কিছু নেই।’

তবে ভারতীয় আবহাওয়াবিদরা জানাচ্ছেন, মে মাসের প্রথম সপ্তাহে বঙ্গোপসাগরে আঘাত হানতে পারে ঘূর্ণিঝড় আম্ফান। এটি কোন দেশের উপকূলে আঘাত করবে সেটি এখনই বলা মুশকিল। তাদের দাবি ভারতের আন্দামান সাগরে আগামী দুয়েকদিনের মধ্যে ঘূর্ণিঝড়টি তৈরি হতে পারে।

উল্লেখ্য, ‘আম্ফান’ হতে যাচ্ছে করোনাকালের প্রথম একটি ঘূর্ণিঝড়। এই ঘূর্ণিঝড়ের নাম রেখেছে থাইল্যান্ড।

সারাবাংলা/টিএস/এমও

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন