বিজ্ঞাপন

ক্ষমার বিরল দৃষ্টান্ত স্থাপন করলেন ইমরুল

May 28, 2020 | 7:05 pm

স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট

বাবার ঘাতক অটোরিকশা চালককে হাতেনাতে ধরেও শাস্তি বা জরিমানার আওতায় না এনে ক্ষমার এক বিরল দৃষ্টান্ত স্থাপন করলেন বাংলাদেশ ক্রিকেটের টপ অর্ডার ব্যাটসম্যান ইমরুল কায়েস। অথচ চাইলেই সেই চালকের বিরুদ্ধে তিনি আইনি পদক্ষেপ নিতে পারতেন। কিন্তু না! সেই পথে তিনি হাঁটেননি। বরং তার এই গর্হিত অন্যায়কেও তিনি ক্ষমাসুন্দর চোখে দেখেছেন।

বিজ্ঞাপন

গত ২৩ মার্চ মেহেরপুর-কাথুলি সড়কের ছহিউদ্দীন ডিগ্রি কলেজের সামনে আলমসাধুর ধাক্কায় (অটো রিক্সা) ইমরুল কায়েসের বাবা বানি আমিন বিশ্বাস গুরুতর আহত হলে তাকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। সেই যে ভর্তি হলেন, এরপর যখন বেরুলেন তখন তিনি পরপারের যাত্রী।

বাবার সেই ঘাতক এখন তার হাতের নাগালেই। চাইলে অনায়াসেই তাকে শাস্তির আওতায় আনতে পারেন। কিন্তু কোনো আইনানুগ পদক্ষেপ না নিয়ে দিলেন ক্ষমা করে।

বিজ্ঞাপন

বৃহস্পতিবার (২৮মে) সংবাদমাধ্যমকে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন ইমরুল কায়েস নিজেই।

তিনি জানিয়েছেন, 'আমি আমার বাবাকে হারিয়েছি। তো চিন্তা করে দেখলাম ওদেরকে বিপদে ফেললে তো আমি আমার বাবাকে ফিরে পাবো না। শুধু শুধু থানা-পুলিশের ঝামেলা করে কি লাভ। পাশাপাশি তাদের পরিবারের কথা চিন্তা করলাম। চিন্তা করে দেখলাম যে, ওরা গরিব মানুষ ওদেরকে কঠিন পরিস্থিতি ফেলে আমার তো কিছু হবে না আর আমি শান্তি পাবো না, আমার বাবা তো আর ফিরে আসবে না। তাই সব কিছু চিন্তা করেই ওদেরকে ক্ষমা করে দিয়েছি।'

সারাবাংলা/এমআরএফ/এসএস

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন