বিজ্ঞাপন

৮টি আন্তঃনগর ট্রেন চালু হবে রোববার থেকে

May 29, 2020 | 12:04 am

সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট

ঢাকা: মহামারি করোনাভাইরাস পরিস্থিতিতে যাত্রীবাহী ট্রেন চলাচল বন্ধ রয়েছে। তবে শীঘ্রই ধাপে ধাপে ট্রেন চালু করা হবে জানিয়েছে রেল কর্তৃপক্ষ। এর অংশ হিসেবে ট্রেনের অর্ধেক আসনের টিকিট বিক্রি করা হবে। শুরুতে ননস্টপ ট্রেনগুলো ছাড়া হবে। এর মধ্যে রয়েছে ঢাকা-চট্টগ্রাম রুটের সোনার বাংলা, সুবর্ণ, রাজশাহী রুটের বনলতা সহ ১৭টি আন্তঃনগর এক্সপ্রেস।

বিজ্ঞাপন

রেলের মহাপরিচালক শামসুজ্জামান সারাবাংলাকে জানান, রেল চালানোর প্রস্তুতি তাদের আছে। ৩১ মে (রোববার) থেকে চলা শুরু করবে রেল। শুরুতে আন্তঃনগর ট্রেন ছাড়া হবে। স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের যে নির্দেশনা সেটি কীভাবে ট্রেনের ক্ষেত্রে কার্যকর করা যায় তা নিয়েই এখন একটি বৈঠক হবে। এরপর বিস্তারিত বলা যাবে বলে জানান মহাপরিচালক।

রেলওয়ে সূত্র জানিয়েছে, ঢাকা থেকে বিভিন্ন গন্তব্যে ৩৭টি আন্তঃনগর ট্রেন চলে। আর রেলের পূর্ব ও পশ্চিমাঞ্চল মিলিয়ে আন্তঃনগর ট্রেনের সংখ্যা শতাধিক। এসব ট্রেন ধাপে-ধাপে খুলে দেওয়ার চিন্তা রেলওয়ের। এখন পর্যন্ত প্রস্তুতি অনুযায়ী ১৭টি ট্রেনের মধ্যে রোববার থেকে ৮টি ট্রেন চালু করা হবে।

বিজ্ঞাপন

এগুলো হচ্ছে ঢাকা–চট্টগ্রাম রুটের সোনার বাংলা ও সুবর্ণ এক্সপ্রেস। ঢাকা–সিলেটের কালনী এক্সপ্রেস। ঢাকা–পঞ্চগড়ের পঞ্চগড় এক্সপ্রেস। ঢাকা–রাজশাহীর বনলতা এক্সপ্রেস। ঢাকা–লালমনিরহাটের লালমনিরহাট এক্সপ্রেস। চট্টগ্রাম–সিলেট রুটের উদয়ন/পাহাড়িকা এক্সপ্রেস। ঢাকা–খুলনার চিত্রা এক্সপ্রেস ট্রেন।

এরপর ৩ জুন থেকে আরও ৯টি ট্রেন চালু করার প্রাথমিক সিদ্ধান্ত রয়েছে। এগুলো হচ্ছে তিস্তা এক্সপ্রেস (ঢাকা–দেওয়ানগঞ্জবাজার), বেনাপোল এক্সেপ্রেস (ঢাকা–বেনাপোল), নীলসাগর (ঢাকা–চিলাহাটি), রূপসা এক্সপ্রেস (খুলনা–চিলাহাটি), কপোতাক্ষ এক্সপ্রেস (খুলনা–রাজশাহী), মধুমতি এক্সপ্রেস (রাজশাহী–গোয়ালন্দঘাট), মেঘনা এক্সপ্রেস (চট্টগ্রাম–চাঁদপুর), কিশোরগঞ্জ এক্সপ্রেস (ঢাকা–কিশোরগঞ্জ), উপকূল এক্সপ্রেস (ঢাকা–নোয়াখালী)।

সারাবাংলা/এসএ/আইই

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন