বিজ্ঞাপন

টেলিফোনে স্পিচ থেরাপি সেবা দেবে ‘কথাবন্ধু’

June 3, 2020 | 7:26 pm

রাজনীন ফারজানা

করোনা পরিস্থিতিতে সামাজিক দূরত্ব নিশ্চিতের লক্ষ্যে সবাই যখন ঘরে বন্দী তখন বিপদে আছেন বিশেষ চাহিদা সম্পন্ন শিশুসহ প্রতিবন্ধকতা রয়েছে এমন ব্যক্তিরা। বিশেষ করে যাদের নানাধরনের থেরাপির প্রয়োজন হয় তারা এখন চাইলেই বাইরে যেয়ে থেরাপিস্টের পরামর্শ বা সেবা নিতে পারছেন না।

বিজ্ঞাপন

করোনা মহামারির এই সময়ে বিশেষ শিশুদের জন্য Speech & Language Therapy বিষয়ক টেলিথেরাপি সেবা দেবে "কথাবন্ধু"। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের যোগাযোগ বৈকল্য বিভাগের সহযোগিতায় এই বিশেষ সেবা চালু হয়েছে।

এই বিষয়ে কথাবন্ধুর উদ্যোক্তা ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের যোগাযোগ বৈকল্য বিভাগের চেয়ারপারসন শান্তা তাওহিদা বলেন, করোনাকালীন এই মহামারিতে বিশেষ চাহিদা সম্পন্ন শিশুদের প্রাত্যহিক রুটিনে অসামঞ্জস্যতা দেখা দিয়েছে। তারা স্কুলে যেতে পারছে না এমনকি নিয়মিত স্পিচ ও ল্যাঙ্গুয়েজ থেরাপি সেবা নিতে পাচ্ছে না। বিশেষ শিশুদের সেই অসুবিধার কথা বিবেচনা করে যোগাযোগ বৈকল্য বিভাগের স্পিচ এন্ড ল্যাংগুয়েজ থেরাপিস্টদের সমন্বয়ে চালু হল টেলিথেরাপি সেবা।

বিজ্ঞাপন

সম্মানিত অভিভাবকগণ ফোন করে পরামর্শ নিতে পারবেন এবং বিশেষ চাহিদা সম্পন্ন শিশুদের দৈনন্দিন রুটিনের সামষ্টিক সমস্যাসমূহ উল্লেখপূর্বক সমাধান পেতে পারেন। এর পাশাপাশি ভাষিক যোগাযোগের ক্ষেত্রে সীমাবদ্ধতা রয়েছে এমন সব বয়সী মানুষের স্পিচ থেরাপি সংক্রান্ত সেবা দেবে কথাবন্ধুর স্পিচ এন্ড ল্যাঙ্গুয়েজ প্যাথলজিস্টগণ।

'কথাবন্ধু'-র উপদেষ্টা হিসেবে আছেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সামাজিক বিজ্ঞান অনুষদের ডিন অধ্যাপক ড. সাদেকা হালিম। পরামর্শ দেবেন যোগাযোগ বৈকল্য বিভাগের সম্মানিত শিক্ষকগণ। প্রধান পরামর্শক হিসেবে কথাবন্ধুর সাথে আছেন যোগাযোগ বৈকল্য বিভাগের অধ্যাপক ড. হাকিম আরিফ, পরামর্শক হিসেবে আছেন বিভাগের প্রভাষক জনাব সোনিয়া ইসলাম এবং জনাব শারমিন আহমেদ।

বিজ্ঞাপন

টেলিফোনে স্পিচ থেরাপি সেবা দেবে ‘কথাবন্ধু’

কথাবন্ধু উদ্যোগ সম্পর্কে অধ্যাপক ড. সাদেকা হালিম বলেন, করোনা মহামারির কারণে সব বন্ধ থাকায় সামাজিক বিজ্ঞান অনুষদের যোগাযোগ বৈকল্য বিভাগের পক্ষ থেকে এই উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে। ডাউন সিনড্রোমে আক্রান্তসহ নানারকম বিশেষ চাহিদা সম্পন্ন শিশুরা যারা থেরাপিস্টের কাছে যেতে পারছেন না তাদের টেলিফোন ও ভিডিও কলের মাধ্যমে কথা বলা, এক্সারসাইজ ইত্যাদি অভ্যাস করানো হচ্ছে।

বিজ্ঞাপন

তিনি বলেন, অনেক বিশেষ চাহিদা সম্পন্ন শিশুর মা সিঙ্গেল প্যারেন্ট। দেখা যায় ডাউন সিনড্রোম বা অন্যান্য লক্ষ্মণ নিয়ে শিশুর জন্মের পর বাবা তাদের ছেড়ে গিয়েছেন বা অন্যত্র বিয়ে করেছেন। এমন মা ও তাদের সন্তানদের পাশে আছে কথাবন্ধু।

পরিস্থিতির উপর নির্ভর করবে মহামারি পরবর্তী সময়েও এই উদ্যোগ চালিয়ে যাওয়া হবে কিনা।

বিজ্ঞাপন

কথাবন্ধুর প্রধান পরামর্শক, যোগাযোগ বৈকল্য বিভাগের অধ্যাপক ড. হাকিম আরিফ বলেন, প্রতিকূল এই পরিস্থিতিতে সাধারণ মানুষই নানারকম কষ্টে আছেন। এমন সময়ে অটিজম, ডাউন সিনড্রোম, সেরেব্রাল পালসিতে আক্রান্ত শিশুসহ নানা বিশেষ চাহিদাসম্পন্ন শিশুদের চাহিদা পূরণ হচ্ছে না। তাই তারা সামাজিক দায়িত্ব পালনের জায়গা থেকে এই উদ্যোগের সঙ্গে আছেন।

এসব শিশুদের সাধারণত সামনাসামনি থেরাপি দেওয়া হয়। কিন্তু এখন যেহেতু সেটা সম্ভব হচ্ছে না তাই শিশুর চিকিৎসার ইতিহাস জেনে অভিভাবকদেরকে টেলিফোনের মাধ্যমে নির্দেশনা ও পরামর্শ দেওয়া হচ্ছে। তাদের পদ্ধতি শিখিয়ে দেওয়া হচ্ছে।

শিশুরা ছাড়াও স্ট্রোকের ফলে কথা বলতে সমস্যা বা কোন কারণে হঠাৎ করে কথা বলা বন্ধ হয়ে গেছে এমন প্রাপ্তবয়স্কদের জন্যও টেলিফোন সেবা দেবেন তারা। কথাবন্ধুর সঙ্গে আছেন চারজন পরামর্শক ও ২ জন বিশেষ পরামর্শক। এছাড়াও ১৮ জন স্পিচ এন্ড ল্যাঙ্গুয়েজ থেরাপিস্ট টেলিথেরাপি সেবা দেবেন। এছাড়াও যোগাযোগ বৈকল্য বিভাগের প্রাক্তন ও বর্তমান ছাত্ররাও জড়িত আছে।

টেলিফোনে স্পিচ থেরাপি সেবা দেবে ‘কথাবন্ধু’

এছাড়াও কথাবন্ধুদের পরামর্শ দেবেন স্পিচ থেরাপিস্ট জনাব সাদ সাইদুর রহমান (এভারকেয়ার হাসপাতাল) এবং জনাব রেহানা আখতার (পাইজার, BUP)।

কথাবন্ধুর হেল্পলাইন নম্বর: 01303159559, 01303159557, 01928325425, 01553821864

বিস্তারিত জানতে সংযুক্ত হতে পারেন 'কথাবন্ধু'-র ফেসবুক পাতায়।

https://www.facebook.com/groups/238652924077897/

সারাবাংলা/আরএফ/

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন