বিজ্ঞাপন

ম্যাচ পাতানোর অভিযোগে আইসিসি’র তদন্তে তিন লংকান ক্রিকেটার

June 4, 2020 | 7:11 pm

স্পোর্টস ডেস্ক

শ্রীলংকার ক্রীড়ামন্ত্রী সংবাদমাধ্যমের সামনে লজ্জা প্রকাশ করে জানিয়েছেন নিজ দেশের তিন ক্রিকেটারের বিরুদ্ধে ম্যাচ পাতানোর অভিযোগে তদন্ত চলছে। আইসিসি'র দুর্নীতি বিরোধী ইউনিট (আকসু) এই তিন লংকান ক্রিকেটারের বিরুদ্ধে অনুসন্ধান চালাচ্ছে বলে জানান সেদেশের ক্রীড়ামন্ত্রী দুল্লাস আলাহাপ্পেরুমা। বুধবার সংবাদমাধ্যমকে বিষয়টি নিশ্চিত করে দুল্লাস আলাহাপ্পেরুমা বলেন, 'আমি লজ্জিত যে আমাদের খেলাটার শৃঙ্খলা ও চারিত্রিক অধঃপতন হয়েছে।'

বিজ্ঞাপন

লংকান ক্রিকেটের যেন শনির দশা চলছে। কিছুদিন আগে মাদকসহ পুলিশের হাতে আটক হন পেসার শেহান মাধুশঙ্কা। আর এবার জানা গেল সেদেশের ক্রিকেটারদের ম্যাচ পাতানোর সঙ্গে জড়িত থাকার সংবাদ। অভিযুক্ত তিন ক্রিকেটারই জাতীয় দলের হয়ে খেলেছেন। তবে এই তিন ক্রিকেটার বর্তমান নাকি সাবেক সে ব্যাপারে কিছু জানাননি আলাহাপ্পেরুমা।

লংকান ক্রিকেট বোর্ড (এসএলসি) দৃঢ়ভাবে বিশ্বাস করে, বর্তমান দলের কেউ ফিক্সিংয়ের সঙ্গে জড়িত নন। সংবাদমাধ্যমকে দেওয়া এক বিবৃতিতে এই ব্যাপারটি নিশ্চিত করেছে এসএলসি। তারা জানায়, ‘শ্রীলংকার ক্রিকেট বোর্ড দৃঢ়ভাবে বিশ্বাস করে মাননীয় মন্ত্রী আইসিসি'র দুর্নীতি বিরোধী ইউনিটের তদন্তে যে তিন ক্রিকেটারের কথা বলেছেন, তারা শ্রীলংকার সাবেক ক্রিকেটার। বর্তমান দলের কেউ নন।'

বিজ্ঞাপন

এর আগে গত সপ্তাহে মাদকসহ পুলিশের হাতে আটক হওয়া পেসার শেহান মাধুশঙ্কার ব্যাপারটি জানার পরে দুঃখ প্রকাশ করেন ক্রীড়ামন্ত্রী। পুলিশের হাতে আটক হওয়ার পর মধুশঙ্কার সঙ্গে ক্রিকেট বোর্ডের কেন্দ্রীয় চুক্তিও বাতিল করেছে বোর্ড। সম্ভাবনাময় এই পেসারের জন্য দুঃখ প্রকাশ করেন দুল্লাস আলাহাপ্পেরুমা। তিনি বলেন, ‘এটা দুঃখজনক। তাকে নিয়ে উচ্চাশা ছিল দেশের।’ ২০১৮ সালে বাংলাদেশের বিপক্ষে ওয়ানডে অভিষেকেই হ্যাটট্রিক করে আলোচনায় এসেছিলেন তিনি। এরপর খেলেছেন দুটি টি-টোয়েন্টি।

সারাবাংলা/এসএস

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন