বিজ্ঞাপন

করোনা ‘পজিটিভ’দের শনাক্ত করবে ব্লু-টুথ ডিভাইস

June 29, 2020 | 4:39 pm

তথ্যপ্রযুক্তি ডেস্ক

নভেল করোনাভাইরাসের (কোভিড-১৯) সংক্রমণ হার কমিয়ে আনার অংশ হিসেবে সিঙ্গাপুরে ব্লু-টুথ কন্টাক্ট ট্রেসিং ডিভাইসের ব্যবহার শুরু হয়েছে। খবর বিবিসি।

বিজ্ঞাপন

'ট্রেস টুগেদার' নামের এই ব্লু-টুথ কন্টাক্ট ট্রেসিং ডিভাইসটি সিঙ্গাপুরের সরকারি কন্টাক্ট ট্রেসিং স্মার্টফোট অ্যাপ্লিকেশনের বিকল্প হিসেবে কাজ করবে। দেশটির অধিবাসীদের মধ্যে যারা অপেক্ষাকৃত বেশি বয়স্ক এবং স্মার্টফোন সুবিধার বাইরে রয়েছেন তাদের কথা মাথায় রেখে এই বিশেষ যন্ত্রটি তৈরি করা হয়েছে।

ইতোমধ্যেই, ট্রেস টুগেদারের প্রথম চালান থেকে কিছু পরিমাণ ব্লু-টুথ ডিভাইস সিঙ্গাপুরের চলাচলে অক্ষম ও পরিবার বিচ্যুত সিনিয়র সিটিজেনদের মধ্যে বিতরণ করা হয়েছে।

বিজ্ঞাপন

এদিকে বিবিসি জানিয়েছে, ব্লু-টুথ ডিভাইসটি কিউআর কোডের মাধ্যমে কাজ করবে। এর নির্ধারিত সীমানার মধ্যে যদি অন্য কোন ট্রেস টুগেদার অ্যাপ বা ব্লু-টুথ ডিভাইস থাকে, তাহলে স্বয়ংক্রিয়ভাবে তার তথ্য সেন্ট্রাল সার্ভারে চলে যাবে।

পরে, কন্টাক্ট ট্রেসিংয়ের দায়িত্বে নিয়োজিত কর্মকর্তা ব্যবহারকারীর আশেপাশে থাকা সম্ভাব্য সকল আক্রান্তের ব্যাপারে ডিভাইস ব্যবহারকারীকে সতর্ক করবেন।

অন্যদিকে, এই ডিভাইসটিতে কোনো রকম চার্জের প্রয়োজন হবে না। ৯ মাসের লাইফটাইমে অটোচার্জড একটি ব্যাটারি ডিভাইসটিতে সংযুক্ত থাকবে।

পাশাপাশি, ওই ডিভাইস ব্যবহারের মাধ্যমে নাগরিকদের স্বাভাবিক চলাফেরার ওপর নজরদারি রাখা হচ্ছে কি না - এ ব্যাপারে দেশটির নাগরিক অধিকার আন্দোলনের কর্মীরা প্রশ্ন তুলেছেন।

এ ব্যাপারে সিঙ্গাপুরের প্রযুক্তি মন্ত্রণালয়ের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, ওই ডিভাইস ব্যবহারে কোনো ধরনের নিরাপত্তা ঝুঁকি নেই। এন্ড টু এন্ড এনক্রিপশনের মাধ্যমে সকল ধরনের তথ্য মুছে ফেলা হয়। ব্যবহারকারীর তথ্য সেন্ট্রাল ডেটাবেজে যোগ করার জন্য সর্বোচ্চ ২৫ দিন পর্যন্ত তথ্য সংরক্ষণ করা হয়ে থাকে।

সারাবাংলা/একেএম

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন