বিজ্ঞাপন

বিশ্বকাপ সুপার লিগ পরীক্ষায় সতর্ক বাংলাদেশ

July 29, 2020 | 1:17 pm

স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট

২০২৩ ওয়ানডে বিশ্বকাপে জায়গা করে নিতে আইসিসি র‌্যাংকিংয়ের কোনো হিসেব নেই। কেননা তিন বছর পর ভারতে অনুষ্ঠেয় ২২ গজের এই বিশ্বযুদ্ধে অবতীর্ণ হতে প্রতিটি দলকেই ‘আইসিসি ক্রিকেট বিশ্বকাপ সুপার লিগ’ পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হয়ে তবেই আসতে হবে। বাংলাদেশও যার ব্যতিক্রম নয়!

বিজ্ঞাপন

তবে স্বাগতিক দেশ হওয়ায় ভারতকে এ নিয়ে ভাবতে হবে না। তারা সরাসরিই বৈশ্বিক এই আসরে অংশ নিতে পারবে।

১৩টি দলের এই প্রতিযোগিতায় টেস্ট খেলুড়ে ১২ দেশের সঙ্গে থাকছে ‘আইসিসি ওয়ার্ল্ড ক্রিকেট সুপার লিগ ২০১৫-১৭’ চ্যাম্পিয়ন নেদারল্যান্ডসও। ১৩ দলের প্রত্যেককেই এই বাছাইপর্বে খেলবে ৮টি করে সিরিজ। হোম অ্যান্ড অ্যাওয়ে পদ্ধতিতে ৪টি নিজেদের মাঠে আর অপর ৪টি গড়াবে প্রতিপক্ষের মাঠে। প্রতি সিরিজেই তিনটি করে ওয়ানডে ম্যাচ থাকছে। যার শুরুটা হচ্ছে ৩০ জুলাই ইংল্যান্ড-আয়ারল্যান্ড সিরিজের মধ্য দিয়ে।

বিজ্ঞাপন

এই ৮টি সিরিজে মোট ম্যাচ সংখ্যা থাকছে ২৪টি। প্রতি ম্যাচ জয়ের জন্য থাকছে ১০ পয়েন্ট, আর ড্র কিংবা নো রেজাল্ট হলে ৫ পয়েন্ট। ২০২৩ বিশ্বকাপের স্বাগতিক দেশ হিসেবে সন্দেহাতীতভাবেই খেলছে ভারত। সেটি যদি তারা সুপার লিগের পয়েন্ট তালিকায় ১৩ দলের মধ্যে ১৩ নম্বরেও থাকে। ভারত বাদে পয়েন্ট তালিকায় শীর্ষ সাতটি দল সরাসরি টিকেট পাবে।

টেবিলের তলানির বাকি যে পাঁচ দল, তাদেরও বিশ্বকাপ খেলার সম্ভাবনা যে একবারে শেষ হয়ে যাবে তা নয়। তারা অংশ নেবে আরেকটি বাছাইপর্বে। সেখানে এই পাঁচ দলের সঙ্গে আইসিসি'র সহযোগী আরও পাঁচটি দেশ থাকবে। ১০ দলের মধ্যে শীর্ষ ২টি দলের সুযোগ মিলবে বিশ্বকাপে খেলার।

তাই চোখ বন্ধ করে বলা যায় এই বিশ্বকাপে খেলতে টাইগারদের দুর্গম পথ পাড়ি দিয়ে তবেই আসতে হবে। বলার অপেক্ষা রাখে না গত ৫ বছর ধরে ওয়নাডে ফরম্যাটে ধারাবাহিকভাবেই ভালো খেলছে লাল সবুজের দল। কিন্তু তারপরেও আগে থেকেই সর্বোচ্চ সতর্কতা অবলম্বন করছে ২০১৫ বিশ্বকাপের কোয়ার্টারফাইনালিস্ট দলের নির্বাচকমন্ডলীর সদস্যরা। বিশেষ করে ছোট দলগুলোর বিরুদ্ধে কোনোভাবেই পয়েন্ট হারানোর পক্ষাপাতি তারা নন। কেননা তাদের সঙ্গে পা হড়কালেই বিপদ।

লিগ সামনে রেখে জাতীয় দলের প্রধান নির্বাচক মিনহাজুল আবেদীন নান্নু এই সতর্কতা উচ্চারণ করেছেন। তার মতে, ‘এটা খুব নতুন কিছু নয়। কেননা গত বিশ্বকাপেও আফগানিস্তান ও ওয়েস্ট ইন্ডিজ বাছাই পর্ব থেকেই বিশ্বকাপে এসেছিল। এখানে শুধু আমরা র‌্যাংকিংয়ের শীর্ষ দলের সঙ্গেই নয় নিচের দলগুলোর বিরুদ্ধেও খেলব। আমাদের নিশ্চিত করতে হবে যে তাদের বিরুদ্ধে যেন পয়েন্ট না হারাই। তাহলে আমাদের বিপদের কারণ হবে।’

আইসিসি'র করা নতুন এই নিয়মে দলগুলোকে র‌্যাংকিং ভাবনা নিগুঢ় মর্ম থেকে বাদ দিতে হচ্ছে, সেকথাও মনে করিয়ে দিলেন নান্নু, ‘র‌্যাংকিংয়ে দেখবেন আমরা ওয়ানডেতে আটে আছি। এটা আমাদের জায়গা নিশ্চিত করে দেবে না। তাই সামনে প্রতিটি ম্যাচই আমাদের জন্য গুরুত্বপূর্ণ।’

সারাবাংলা/এমআরএফ/এসএস

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন