বিজ্ঞাপন

টপলেস সূর্যস্নানে বাধা নয়, সমর্থন ফ্রান্স সরকারের

August 27, 2020 | 2:19 am

রোকেয়া সরণি ডেস্ক

সমুদ্র সৈকতে সূর্যস্নানের সময় টপলেস হলে তা নিয়ে প্রশ্ন তোলার অধিকার নেই পুলিশের।  ফ্রান্সের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী দেশটিতে সাম্প্রতিক এক ঘটনার জেরে এমন মত দিয়েছেন।

বিজ্ঞাপন

সম্প্রতি ফ্রান্সের সান্তা মারিয়া লা মের সমুদ্র সৈকতে সূর্যস্নানরত তিন নারীকে পুলিশ ‘শরীর ঢাকার’ নির্দেশ দেয়। ওই সৈকতে উপস্থিত একটি পরিবারের সদস্যরা নারীদের কারণে ‘অস্বস্তিবোধ’ করায় পুলিশ কর্মকর্তা এ নির্দেশ দেন বলে জানায় স্থানীয় কর্তৃপক্ষ। তবে আইনত কোনো নিষেধ না থাকা সত্ত্বেও পুলিশের এমন নির্দেশে সমালোচনার ঝড় ওঠে দেশটিতে। সামাজিক মাধ্যমে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর অযাচিত হস্তক্ষেপের তুমুল সমালোচনা হয়।

এর মধ্যেই ফ্রান্সের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী জেরাল্ড দারমানিন মন্তব্য করলেন, ওই স্থানীয় পুলিশ সদস্যরা ভুল ধারণার মধ্যে রয়েছেন। কেননা স্বাধীনতা একটি মূল্যবান জিনিস। সৈকতে মহিলাদের পোশাকের জন্য তিরষ্কার করা হয়, যার কোনো ভিত্তি নেই  এটাই স্বাভাবিক যে, প্রশাসন ভুলটি বুঝতে পেরেছে।

বিজ্ঞাপন

উল্লেখ্য, টপলেস সূর্যস্নান ফ্রান্সে আইনত অবৈধ নয়। তবে ফ্রান্সের স্থানীয় সরকার চাইলে যেকোনো অঞ্চলে পোশাকের আলাদা বিধি প্রণয়ন করারও ক্ষমতা রাখে। কিন্তু ভূমধ্যসাগরের সমুদ্র সৈকত সান্তা মারিয়া লা মারেতে ড্রেসকোড সংক্রান্ত এমন কোনো আইন নেই। ফলে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর এমন নির্দেশনা মোটেও গ্রহণযোগ্য নয় বলে জানান ফরাসি সরকারের শীর্ষস্থানীয়রা।

এ ঘটনায় স্থানীয় পুলিশ কর্তৃপক্ষ এক বিবৃতি প্রকাশ করেছে। বিবৃতিতে পুলিশ কর্মকর্তার কাজটিকে একটি 'মারাত্মক ভুল' বলে আখ্যায়িত করা হয়। এতে বলা হয়,  ওই পুলিশ সদস্যরা আসলে পরিস্থিতি সামাল দিতে চেয়েছিলেন। সেখানে একটি পরিবার সূর্যস্নানরত নারীদের ব্যাপারে অস্বস্তি প্রকাশ করেছিল।

বিজ্ঞাপন

সারাবাংলা/আইই

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন