বিজ্ঞাপন

নারায়ণগঞ্জে মসজিদে এসি বিস্ফোরণ: মৃতের সংখ্যা বেড়ে ১২

September 5, 2020 | 11:28 am

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট

নারায়ণগঞ্জ: নারায়ণগঞ্জের তল্লারবাগ বাইতুর মামুর মসজিদে এসি বিস্ফোরণের ঘটনায় মৃতের সংখ্যা বেড়ে ১২ জনে দাঁড়িয়েছে। শনিবার সকালে সর্বশেষ রাশেদ (৩০) নামে একজন মারা যান।

বিজ্ঞাপন

শেখ হাসিনা জাতীয় বার্ন অ্যান্ড প্লাস্টিক সার্জারি ইনস্টিটিউটের সমন্বয়ক ডা. সামন্ত লাল সেন ১২ জনের মৃত্যুর বিষয়টি সারাবাংলাকে নিশ্চিত করেছেন।

মৃত ব্যক্তিরা হলেন— রাশেদ (৩০), রিফাত (১৮), মোস্তফা কামাল (৩৪), জুবায়ের (১৮), সাব্বির (২১), কুদ্দুস ব্যাপারী (৭২), হুমায়ুন কবির (৭০), ইব্রাহিম (৪৩), মোয়াজ্জিন দেলোয়ার হোসেন (৪৮), জুনায়েদ (১৭), জামাল (৪০) ও জুবায়ের (৭)।

বিজ্ঞাপন

ডা. সামন্ত লাল সেন বলেন, ‘নারায়ণগঞ্জের বিস্ফোরণের ঘটনায় এ পর্যন্ত ১২ জন মারা গেছেন। আমাদের কাছে মোট ৩৭জন রোগী এসেছিলেন। বাকি যারা ভর্তি আছেন তাদের অবস্থাও আশঙ্কাজনক।’

তিনি আরও জানান, মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ফোনে ঘটনার জন্য দুঃখ প্রকাশ করেছেন এবং চিকিৎসার জন্য সব ধরনের ব্যবস্থা নেওয়ার নির্দেশ দিয়েছেন।

বিজ্ঞাপন

আহতদের মধ্যে কয়েকজনকে নিবিড় পর্যবেক্ষণ কেন্দ্রে (আইসিইউ) নেয়া হয়েছে। আহতদের অধিকাংশের শরীরে ৬০ থেকে ৯৫ শতাংশ পর্যন্ত দগ্ধ হয়েছে বলে চিকিৎসকরা জানিয়েছেন।

আরও পড়ুন:
‘মসজিদের জানালা ভেঙে বের হয়ে পচা পানিতে গড়াগড়ি খাচ্ছিলেন দগ্ধরা’
বাবার সঙ্গে নামাজ পড়তে গিয়ে প্রাণহীন দগ্ধ শরীরে ফিরল জুবায়ের

বিজ্ঞাপন

এদিকে, শেখ হাসিনা জাতীয় বার্ন ও প্লাস্টিক সার্জারি ইনস্টিটিউটে মৃত ও দগ্ধ রোগীদের দেখতে আসেন নারায়ণগঞ্জের জেলা প্রশাসক মো. জসিম উদ্দিন।

দগ্ধ ও নিহতদের দেখে বেরিয়ে যাওয়ার সময় তিনি সাংবাদিকদের বলেন, জেলা প্রশাসকের পক্ষ থেকে নিহতের পরিবারকে ২০ হাজার টাকা ও আহতদের ১০ হাজার টাকা করে দেওয়া হবে। এই ঘটনায় পাঁচ সদস্যের তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়েছে । যদি কারো গাফলতি থাকে অবশ্যই তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলেও জানান তিনি।

বিজ্ঞাপন

শুক্রবার রাত সাড়ে আটটার দিতে নারায়ণগঞ্জের তল্লারবাগ বাইতুর মামুর মসজিদে এসি বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটে।

সারাবাংলা/একে

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন