বিজ্ঞাপন

এশিয়া কাপ ও চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফি হকির দায়িত্ব বুঝে পেল কর্মকর্তারা

September 15, 2020 | 8:07 pm

স্পোর্টস করেসপন্ডেন্ট

ঢাকা: আগামী বছরে দুটি জায়ান্ট টুর্নামেন্ট যুব এশিয়ান কাপ ও এশিয়ান চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফির মতো গুরুত্বপূর্ণ দুটো টুর্নামেন্ট আয়োজনের দায়িত্বভার নিয়ে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত এসেছে। টুর্নামেন্টকে সামনে রেখে মাঠের প্রস্তুতি সেড়ে ফেলার নির্দেশনা এসেছে। অক্টোবরের মাঝামাঝি সময়ে যুবাদের নিয়ে ক্যাম্প শুরু করার নির্দেশনাও দেয়া হয়েছে।

বিজ্ঞাপন

আজ মঙ্গলবার (১৫ সেপ্টেম্বর) তেজগাঁওস্থ বাংলাদেশ বিমান বাহিনী ফ্যালকন হলে বাংলাদেশ হকি ফেডারেশনের বৈঠকে এই দুটি টুর্নামেন্টসহ কিছু গুরুত্বপূর্ণ বিষয় আলোচনা হয়। এসময় উপস্থিত ছিলেন ফেডারেশনের সভাপতি এয়ার চীফ মার্শাল মাসিহুজ্জামান সেরনিয়াবাত।

বৈঠকের আলোচনা সভায় দুই টুর্নামেন্টকে নিয়ে বলা হয়, আগামী ২১-৩০শে জানুয়ারী ২০২১ইং পর্যন্ত ঢাকায় অনুষ্ঠিতব্য যুব বিশ্বকাপের বাছাই পর্ব ‘আল আলাফাহ ইসলামী ব্যাংক বঙ্গবন্ধু জুনিয়র এশিয়া কাপ’ আয়োজনের বিষয়ে সার্বিক আলোচনা করা হয়। খেলাধুলার দীর্ঘ বিরতির পর উক্ত টুর্নামেন্ট সফলভাবে আয়োজনের লক্ষ্যে আগামী অক্টোবর মাসের মাঝামাঝি সময় হতে যুব ক্যাম্প শুরু করার সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

আর আগামী ১১-১৯শে মার্চ ২০২১ইং পর্যস্ত ঢাকায় অনুষ্ঠিতব্য এশিয়ান চ্যাম্পিয়নস ট্রফি আয়োজনের বিষয়েও বিস্তারিত আলোচনা করা হয়। আন্তর্জাতিক টুর্নামেন্টের মধ্যে চ্যাম্পিয়নস ট্রফি বাংলাদেশ প্রথমবারের মত আয়োজন করতে যাচ্ছে। ফলে এই চ্যালেঞ্জ মোকাবেলায় সকলকে দক্ষতার সাথে কার্যক্রম পরিচালনার জন্য সকলকে নির্দেশনা প্রদান করেন।

বিজ্ঞাপন

এ বিষয়ে ফেডারেশনের কর্মকর্তাগণ মত প্রকাশ করেন যে, বাংলাদেশ হকি ফেডারেশনের কর্মকর্তাদের ইতিপূর্বে বড় বড় আন্তর্জাতিক টুর্নামেন্টের আয়োজনের অভিজ্ঞতা রয়েছে। ফেডারেশনের কর্মকর্তাদের পূর্ব অভিজ্ঞতার আলোকে টুর্নামেন্টটি সফলভাবে সম্পন্ন করা সম্ভব বলে সভায় মত প্রকাশ করেন।

এই ‍দুটি টুর্নামেন্টের জন্য কর্মকর্তাদের দায়িত্বভার দিয়ে দেয়া হয়েছে।

আল আরাফাহ ইসলামী ব্যাংক বঙ্গবন্ধু যুব এশিয়া কাপের ম্যানেজার হিসেবে দায়িত্ব দেয়া হয়েছে তারেক এ এ আদেলকে, সহকারী ম্যানেজার হিসেবে থাকছেন জাফরুল আহসান বাবুল, কোচ আ না ম মামুন উর রশিদ, সহকারী কোচ মো: আলমগীর আলমকে দায়িত্ব দেয়া হয়েছে।

বিজ্ঞাপন

আর এশিয়ান চ্যাম্পিয়নস ট্রফির জন্য ম্যানেজার হিসেবে দায়িত্ব দেয়া হয়েছে জনাব বদরুল ইসলাম দিপুকে, সহকারী ম্যানেজার মামুনুর রশিদ, কোচ মাহবুব হারুন, সহকারী কোচ হিসেবে রাখা হয়েছে জহিরুল ইসলাম মিতুলকে।

এদিকে সভার শুরুতে বাংলাদেশ হকি ফেডারেশনের গঠনতন্ত্রের ২৬ এর ৩ ধারা মোতাবেক সাধারণ সম্পাদক জনাব একেএম মমিনুল হক সাঈদ এর সাধারণ সম্পাদকের পদ হতে অব্যহতির প্রদানের ব্যাপারে আদালতে একটি রিট হয়েছে বলে শুনা যায়। কিন্তু রিটের কপি ফেডারেশন এখন পর্যন্ত হাতে পায়নি, হাতে পাওয়ার পর পরবর্তী ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে বলে জানানো হয়।

বাংলাদেশ হকি ফেডারেশনের গঠনতন্ত্রের ধারা মোতাবেক পরবর্তী সিদ্ধান্ত গ্রহণ পর্যন্ত প্রথম যুগ্ম সম্পাদক জনাব মোহাম্মদ ইউসুফ ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদকের দায়িত্ব পালন করে যাবেন।

বিজ্ঞাপন

অন্যদিকে কোভিড-১৯ করোনাভাইরাস মহামারি চলাকালীন ফেডারেশনের কর্মকর্তাদের নিজ তহবিল হতে এবং যুব ও ক্রীড়া মন্ত্রণালয়ের আথিক অনুদানের প্রেক্ষিতে আর্থিকভাবে অস্বচ্ছল খেলোয়াড়দের আর্থিক প্রনোদনা দেয়া হয়। এ লক্ষ্যে যুব ও ক্রীড়া মন্ত্রণালয় ও হকি ফেডারেশনের যে সকল কর্মকর্তাগণ অনুদান প্রদান করেছেন তাদেরকে ধন্যবাদ জানানো হয়।

এছাড়াও কিশোরগঞ্জের হকি খেলোয়াড় নিয়ামুল হককে ফেডারেশনের মাননীয় সভাপতির নির্দেশক্রমে তার পায়ে সফল অপারেশন সম্পন্ন হয় বলে সভায় সকলকে অবহিত করা হয় এবং ময়মনসিংহের অপর সাবেক খেলোয়াড় রাহাত সারায়ার ও দিনাজপুরের সায়েম জটিল রোগে অসুস্থ অবস্থায় হাসপাতালে ভর্তি হলে ফেডারেশন চিকিৎসার জন্য আর্থিক সহযোগিতা প্রদান করে। অবস্থায় তাহার চিকিৎসার বাংলাদেশ হকি ফেডারেশন বহন করে।

করোনাকালীন সময়ে বিভিন্ন রোগে ফেডারেশনের বেশ কয়েকজন সাবেক কর্মকর্তা যেমন-এহতেশাম সুলতান, হাসান উদ্দিন আহমেদ শিমুল ইন্তেকাল করায় তাদের আত্মার মাগফেরাত কামনা করা হয়।

বিজ্ঞাপন

সারাবাংলা/জেএইচ

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন