বিজ্ঞাপন

‘ইন্ডাস্ট্রি নিয়ে সবাই উপহাস করছে!’, জয়ার সমর্থনে হেমা মালিনী

September 16, 2020 | 8:07 pm

এন্টারটেইনমেন্ট ডেস্ক

গত ১৪ জুন মুম্বাইয়ের বান্দ্রায় নিজের ফ্ল্যাটে ঝুলন্ত অবস্থায় পাওয়া যায় বলিউড তারকা সুশান্ত সিং রাজপুতকে। আর সেই ঝুলন্ত লাশ উদ্ধারের পর থেকে তার মৃত্যু নিয়ে শোরগোল পুরো ইন্ডাস্ট্রিতে। একটা মুত্যু যে বলিউডের পুরো বিনোদন ইন্ডাস্ট্রিকে এভাবে নাড়িয়ে দেবে, তা বোধহয় কেউ কল্পনাও করতে পারেননি! এই মৃত্যু রহস্য নিয়ে চলছে আলোচনা, বিতর্ক আর অভিযোগ। সঙ্গে মাদকচক্রের সংশ্লিষ্টতা। এই মাদককে ঘিরে একের পর এক মন্তব্যে কলুষিত হচ্ছে বলিউড সিনে ইন্ডাস্ট্রি।

বিজ্ঞাপন

মঙ্গলবার (১৪ সেপ্টেম্বর) লোকসভার অধিবেশনে বলিউডের মাদকচক্র নিয়ে একের পর এক কুৎসিত মন্তব্য করেন বিজেপি সাংসদ ভোজপুরি অভিনেতা রবি কিষাণ। তার এসব মন্তব্য শুনেই ক্ষেপে উঠেন সমাজবাদী পার্টির নেত্রী বলিউডের প্রবীণ অভিনেত্রী জয়া বচ্চন। মাদক চক্রে গুটি কয়েকজনের যোগসূত্র টেনে এনে গোটা ফিল্ম ইন্ডাস্ট্রিকে কখনওই দোষারোপ করা যায় না, এমন মন্তব্য করেন তিনি । পাশাপাশি, জয়ার বক্তব্য এই ফিল্ম ইন্ডাস্ট্রি থেকে অন্তত ৫ লক্ষ মানুষের পেট চলে । তাই বিজেপি সাংসদ রবি কিষাণ যে ভাবে ফিল্ম ইন্ডাস্ট্রির সঙ্গে মাদকের যোগ আছে বলে অভিযোগ তুলছেন, তাতে মনে হচ্ছে তিনি যে থালায় খাচ্ছেন, সেখানেই ছিদ্র করছেন।

‘ইন্ডাস্ট্রি নিয়ে সবাই উপহাস করছে!’, জয়ার সমর্থনে হেমা মালিনী

বিজ্ঞাপন

জয়া বচ্চনের মন্তব্যের রেশ ধরেই বিজেপি সাংসদ রবি কিষেণের পাশে দাঁড়িয়ে প্রবীণ এই অভিনেত্রীর বিরুদ্ধে পালটা আক্রমণ করলেন বলিউড অভিনেত্রী কঙ্গনা রানাওয়াত। বললেন, ‘কোন থালা দিয়েছেন জয়াজি আর ওর ইন্ডাস্ট্রি? হ্যাঁ, একটা থালা অবশ্য পেয়েছিলাম, যেখানে ২ মিনিটের রোলে আইটেম নম্বর আর রোমান্টিক দৃশ্যে অভিনয় করার সুযোগ মিলত, তাও আবার হিরোর সঙ্গে রাত কাটানোর পর। আমিই এই ইন্ডাস্ট্রিকে ফেমিনিজম শিখিয়েছি। নিজের থালা নিজেই সাজিয়েছি নারীপ্রধান দেশভক্তির সিনেমা দিয়ে। ওটা আমার নিজের থালা, আপনার না জয়াজি!..’

‘মাদকের নামে বলিউডকে অপমান করা হচ্ছে’ এমন অভিযোগে কঙ্গনাকে ‘কোণঠাসা’ করে জয়া বচ্চনের মন্তব্যকে সমর্থন জানিয়েছেন অনুভব সিনহা, তাপসী পান্নু, সোনম কাপুর, ফারহান আখতার, দিয়া মির্জা থেকে রিচা চাড্ডার মতো আরও অনেকে। কঙ্গনার এমন রণংদেহি মেজাজ এবং মন্তব্যের নিন্দা জানিয়েছেন অভিনেত্রী উর্মিলা মাতন্ডকর। এ বার মাদক-চক্র ইস্যুতে জয়ার সমর্থন জানালেন বলিউডের ‘ড্রিম গার্ল’ খ্যাত অভিনেত্রী হেমা মালিনী । যদিও রাজনৈতিক মতাদর্শের দিক থেকে জয়া এবং হেমা- দুজনই আলাদা। তবে বলিউড ইন্ডাস্ট্রির বিষয়ে একে অপরকে সমর্থন করলেন তারা ।

বিজ্ঞাপন

বুধবার (১৬ সেপ্টেম্বর) ভারতীয় একটি সংবাদমাধ্যমে জয়ার বক্তব্যের প্রেক্ষিতে দেয়া এক সাক্ষাৎকারে অভিনেত্রী হেমা মালিনী বললেন, ‘আমি এই ইন্ডাস্ট্রি থেকে আমার নাম, যশ, খ্যাতি, সম্মান- সব অর্জন করেছি। আমি সকলকে বলতে চাই, বলিউড সত্যিই সুন্দর এবং এটি একটি সৃজনশীল জায়গা। এটা শিল্প-সংস্কৃতির ইন্ডাস্ট্রি। আমার ভীষণ কষ্ট হয় যখন শুনি মানুষ এই ইন্ডাস্ট্রি সম্পর্কে খারাপ মন্তব্য করছে। মাদক চক্র নিয়ে এত কথা বলছে, কিন্তু পৃথিবীর কোথায় এটা হয় না? যদি সত্যিই দাগ লেগে থাকে, সেটা ধুয়ে-মুছে ফেলে আমাদের এগিয়ে যেতে হবে।’

‘ইন্ডাস্ট্রি নিয়ে সবাই উপহাস করছে!’, জয়ার সমর্থনে হেমা মালিনী

বিজ্ঞাপন

হেমা মালিনী আরও বললেন, ‘এখানে কত প্রবাদপ্রতিম শিল্পীদের জন্ম হয়েছে। ম্যাটনি আইডলরা দর্শকদের কাছে ঈশ্বরতুল্য। মানুষ সবসময় ভাবেন, এরা কি সত্যিই অভিনয় করেন! রাজ কাপুর, দেব আনন্দ, ধর্মেন্দ্র, অমিতাভ... এরা সব এমন ব্যক্তিত্ব, যারা বলিউডকে ভারতীয়দের কাছে অন্যমাত্রায় পৌঁছে দিয়েছিলেন। আমি এটা নিতে পারি না, যখন দেখি অন্য কেউ সেই জায়গাটাকে নিয়ে উপহাস করছে।’

বলিউডে স্বজনপ্রীতি প্রসঙ্গে হেমা মালিনী বললেন, ‘যদি এরকম কিছু এখানে ঘটেও থাকে, তার মানে এই নয় যে ইন্ডাস্ট্রির সবাই খারাপ। নেপোটিজমের স্বার্থে কোনও অভিনেতা-অভিনেত্রীর ছেলে-মেয়ে সিনেমায় এলেই সে সুপারস্টার হয়ে যায় না। ভাগ্য আর প্রতিভাই সবচেয়ে বড় কথা।’

বিজ্ঞাপন

সারাবাংলা/এএসজি

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন