বিজ্ঞাপন

রোমাঞ্চকর শেষ মুহূর্তের গোলে ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের প্রথম জয়

September 26, 2020 | 7:36 pm

স্পোর্টস ডেস্ক

ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগে ২০২০/২১ মৌসুমের শুরুটা সুখকর হয়নি ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের। ক্রিস্টাল প্যালেসের বিপক্ষে ৩-১ গোলের ব্যবধানে হেরেছিল রেড ডেভিলরা। তবে লিগে নিজেদের দ্বিতীয় ম্যাচে এসেই জয় ছিনিয়ে নিয়েছে ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড। ব্রাইটনের বিপক্ষে দ্য আমেরিকান এক্সপ্রেস কমিউনিটি স্টেডিয়ামে রোমাঞ্চকর ম্যাচে শেষ মুহূর্তের পেনাল্টি থেকে ব্রুনো ফার্নান্দেজের গোলে ৩-২ ব্যবধানে মৌসুমের প্রথম জয় তুলে নেয় রেড ডেভিলরা।

বিজ্ঞাপন

যদিও ম্যাচের প্রথমে গোল হজম করে পিছিয়ে পড়ে ওলে গানার সোলশায়ারের দল। ম্যাচের ৪০ মিনিটে বল নিয়ে রেড ডেভিলদের ডি বক্সে ঢুকে পড়েন ব্রাইটন ফুলব্যাক তারিক ল্যাম্পটে। আর তাকে থামানোর কোনো উপায় না পেয়ে ডি বক্সের ভেতরেই ফাউল করে বসেন ব্রুনো ফার্নান্দেজ। আর সঙ্গে সঙ্গে পেনাল্টির বাঁশি বাজিয়ে দেন রেফারি। স্পট কিক থেকে নেইল মাউপে গোল করে ব্রাইটনকে ১-০ গোলে এগিয়ে নেন।

রোমাঞ্চকর শেষ মুহূর্তের গোলে ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের প্রথম জয়

বিজ্ঞাপন

এর আগে অবশ্য একবার গোল করে ম্যাচে এগিয়ে গিয়েছিল ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড। ম্যাচের ৩৩ মিনিটে মার্কোস রাশফোর্ডের দুর্দান্ত এক গোল বাতিল হয়। অ্যান্থনি মার্শিয়াল ব্রাইটনের তিন খেলোয়াড়কে পাশ কাটিয়ে বল বাড়িয়ে দেন রাশফোর্ডের দিকে, ইংলিশ ফরোয়ার্ড দুর্দান্ত শটে বল জালে জড়ালেও অফসাইডের কারণে বাতিল হয়ে যায় গোলটি। এর ঠিক মিনিট তিনেক আগে সলি মার্চের নেওয়া দুর্দান্ত ফ্রিকিক গোলবারে লেগে ফিরে আসলে গোল বঞ্চিত হয়ে ব্রাইটন।

আর ম্যাচের ২১ মিনিটেই দুবার গোলপোস্টে বল লেগে গোল বঞ্চিত হয় ব্রাইটন। ম্যাচের ১০ মিনিটের মাথায় ব্রাইটন ফরোয়ার্ড লেওনার্দো ট্রসার্ডের ২২ গজ দূর থেকে বাঁ পায়ের দুর্দান্ত শট নেন, তবে গোলের প্রথম সুযোগটাই গোলপোস্ট রুখে দেয়। এরপর ম্যাচের ২১তম মিনিটে ১৮ গজ দূর থেকে আরও একটি শট নেন ট্রসার্ড, এবারও বাধা হয়ে দাঁড়ায় গোলপোস্ট।

বিজ্ঞাপন

রোমাঞ্চকর শেষ মুহূর্তের গোলে ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের প্রথম জয়

ম্যাচের ৪০ মিনিটে মাউপের করা গোলে পিছিয়ে পড়া ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড ম্যাচে ফেরে ৪৩তম মিনিটে। ব্রাইটনের ডি বক্সের বাঁ প্রান্ত থেকে ভাসানো ফ্রিকিক করেন ব্রুনো ফার্নান্দেজ, আর গোলপোস্টের ঠিক সামনে দাঁড়ানো হ্যারি মাগুয়ের শট নিতে গেলে ব্রাইটন ডিফেন্ডার লুইস ডাঙ্ক আত্মঘাতি গোল করে বসেন। আর তাতেই ম্যাচে ফেরে রেড ডেভিলরা। ম্যাচের প্রথমার্ধ শেষ হয় ১-১ গোলে সমতায় থেকে।

বিজ্ঞাপন

দ্বিতীয়ার্ধের শুরুতেই আবারও এগিয়ে যাওয়ার সুযোগ পায় ব্রাইটন, ৪৭ মিনিটে রেড ডেভিলদের ডি বক্সে কনোলিকে ফাউল করেন পল পগবা আর রেফারি বাঁশি দেন পেনাল্টির। তবে ভিএআর এর সহায়তায় পেনাল্টির সিদ্ধান্ত বাতিল করেন রেফারি। এর মিনিট আটেক পরে ব্রুনো ফার্নান্দেজের অ্যাসিস্ট থেকে গোল করে দলকে এগিয়ে নেন মার্কোস রাশফোর্ড। ম্যাচের ৫৫তম মিনিটে ২-১ গোলের ব্যবধানে এগিয়ে যায় রেড ডেভিলরা।

রোমাঞ্চকর শেষ মুহূর্তের গোলে ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের প্রথম জয়

বিজ্ঞাপন

এদিন দুর্দান্ত খেলতে থাকা ব্রাইটন ৬০ মিনিটে গোলপোস্টে লেগে বল ফিরে আসলে আবারও গোলবঞ্চিত হয় আর সেই সঙ্গে হাতছাড়া হয় ম্যাচে সমতায় ফেরার সুযোগও। ম্যাচের ৭৭ মিনিটে ৫ম বারের মতো গোলবারে লেগে বল ফিরে আসে ব্রাইটনের। ম্যাচের তখন যোগ করা অতিরিক্ত সময় চলছিল। ৯৪ মিনিটে ডেভিড ডি গিয়া দুর্দান্ত সেভ দিয়ে দলকে ম্যাচে রাখেন, তবে পরের মিনিটেই সলি মার্চের গোলে সমতায় ফেরে ব্রাইটন।

ম্যাচজুড়ে দুর্দান্ত ব্রাইটন জিততে না পারলেও শেষ মুহূর্তের গোলে ড্র করে এক পয়েন্টের আশা করছিল। তবে শেষ দিকে আরও ছয় মিনিট যোগ করে রেফারি। আর ম্যাচের ১০০তম মিনিটে মাগুয়েরের হেড মাউপের হাতে লাগলে রেফারি পেনাল্টির বাঁশি বাজান। আর স্পট কিক থেকে বল জালে জড়িয়ে দলের জয় নিশ্চিত করেন ব্রুনো ফার্নান্দেজ। আর সেই সঙ্গে নতুন মৌসুমে প্রিমিয়ার লিগে ৩-২ গোলের ব্যবধানে জয় পায় ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড।

সারাবাংলা/এসএস

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন