বিজ্ঞাপন

যৌনসন্ত্রাসের বিরুদ্ধে আইনের কঠোর প্রয়োগ চায় এনএফএস

October 9, 2020 | 1:51 pm

সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট

ঢাকা: নারী নির্যাতন-নিপীড়ন ও যৌনসন্ত্রাসের বিরুদ্ধে আইনের কঠোর প্রয়োগের দাবি জানিয়েছে সামাজিক সংগঠন ন্যাশনাল ফ্রেন্ডশিপ সোসাইটি (এনএফএস)।

বিজ্ঞাপন

শুক্রবার (৯ অক্টোবর) দুপুরে জাতীয় প্রেস ক্লাবের সামনে নারী নির্যাতন নিপীড়ন বন্ধে আইনের কঠোর প্রয়োগ চেয়ে যৌনসন্ত্রাসের বিরুদ্ধে এক মানববন্ধন থেকে এ দাবি করা হয়।

বক্তারা বলেন, এই দেশে করোনাভাইরাসের ভ্যাকসিনের চেয়ে ধর্ষণের ভ্যাকসিন বেশি জরুরি। দলমত নির্বিশেষে সবার আগে ধর্ষকদের শাস্তি নিশ্চিত করতে হবে। ধর্ষক নিরোধ করতে পারলে নারীর সম্ভ্রম রক্ষা হবে।

বিজ্ঞাপন

তারা বলেন, নারী নির্যাতন নিপীড়ন ও ধর্ষণ এখন জাতীয় সমস্যা। এই সমস্যা সমাধানে আইনের কঠোর প্রয়োগ ও শাস্তির বিকল্প নেই। ধর্ষকদের রাজনৈতিক ট্যাগ দেওয়া যাবে না। এদের অপরাধী ও যৌনসন্ত্রাসী হিসেবেই চিহ্নিত করতে হবে। রাজনৈতিক ট্যাগ দিলে তারা বিভিন্ন প্রভাবে ছাড়া পেয়ে যাবে। যৌনসন্ত্রাসীরা মা-মাটি-মানবতার শত্রু।

মানববন্ধনে বক্তারা বলেন, যৌনসন্ত্রাসীরা সমাজবিরোধী। এদের সামাজিকভাবে বয়কট করতে হবে। যৌনসন্ত্রাসীদের দল, ধর্ম ও ভৌগলিক কোনো সীমারেখা নেই। ওদের পরিচয় ওরা যৌনসন্ত্রাসী। নারী নির্যাতন ও ধর্ষণ রোধে সামাজিক আন্দোলন ও জনসচেতনতা আর জোরদার করতে হবে। তরুণ ও যুব সম্প্রদায়ের মাঝে নৈতিক মূল্যবোধের চর্চা বাড়াতে হলে দেশজ সাংস্কৃতিক চর্চা বাড়াতে হবে। আকাশ সংস্কৃতি রুখে দিতে হবে।

বিজ্ঞাপন

মানববন্ধনে উপস্থিত সাংবাদিক মানিক লাল ঘোষ বলেন, ধর্ষণ আগেও ছিল, এখনো হচ্ছে। মিডিয়ার কারণে আগের চেয়ে এখন বেশি সামনে আসে। এটাকে কেন্দ্র করে একটি মহল রাজপথে নেমেছে। মাঠ গরমের চেষ্টা করছে। তারা ধর্ষণের বিরুদ্ধে কঠোর আইন চাওয়ার পরিবর্তে সরকারের পদত্যাগ চাইছেন। প্রধানমন্ত্রীর ছবি পোড়াচ্ছেন। তাদের আসল উদ্দেশ্য ধর্ষণের বিচার চাওয়া নয়, তারা ঘোলা পানিতে মাছ শিকার করতে চায়।

তিনি আরও বলেন, শেখ হাসিনার সরকার জনবান্ধব সরকার, নারীবান্ধব সরকার। এই সরকার ধর্ষণের বিরুদ্ধে কঠোর আইন প্রণয়নের কথা বলছেন। সেই আইনেই সবার বিচার হবে। যারা ধর্ষকদের আড়াল করতে চায়, তাদের বিচার দাবি করেন মানিক লাল ঘোষ।

বিজ্ঞাপন

মানববন্ধনের অন্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন এনএফএস সভাপতি রাহাত হুসাইন, সাংবাদিক সমীরন রায়, সাধারণ সম্পাদক ইমরান হোসাইন, প্রচার সম্পাদক আহসান হাবিব সবুজসহ অন্যরা।

সারাবাংলা/ইউজে/টিআর

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন