বিজ্ঞাপন

নওগাঁর-৬ উপনির্বাচনে বিএনপি প্রার্থীর ভোট বর্জন

October 17, 2020 | 6:09 pm

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট

নওগাঁ: দলীয় এজেন্টদের ভোটকেন্দ্র থেকে বের করে দেওয়াসহ বিভিন্ন অভিযোগ এনে নওগাঁ-৬ আসনের উপনির্বাচনে ভোট বর্জনের ঘোষণা দিয়েছেন বিএনপি প্রার্থী শেখ রেজাউল ইসলাম।

বিজ্ঞাপন

শনিবার (১৭ অক্টোবর) দুপুরে উপনির্বাচনে ভোটগ্রহণ চলাকালে আত্রাইয়ে তার নিজ কার্যালয়ে সংবাদ সম্মেলন করে এই ঘোষণা দেন তিনি।

এসময় ভোট নিয়ে নানা অভিযোগ তুলে ধরে শেখ রেজাউল ইসলাম বলেন, ভোটে কোনো ধরনের নিয়ম মানা হচ্ছে না। বিএনপির এজেন্টদের কেন্দ্র থেকে বের করে দেওয়া হচ্ছে। আমরা বারবার পুলিশ-প্রশাসনের কাছে বারবার এসব বিষয়ে অভিযোগ করেছি। তাতে কোনো লাভ হয়নি।

বিজ্ঞাপন

তিনি বলেন, ‘এই নির্বাচন সরকারের আয়োজনে একটি প্রহসনের নির্বাচন। এই নির্বাচন সাজানো নির্বাচন। এই নির্বাচন আমরা মানি না। এজন্য বিএনপির প্রার্থী হিসেবে আমি এই নির্বাচন বর্জন করছি।’

এর আগে, শনিবার সকাল ৯টায় নওগাঁ-৬ নির্বাচনি আসনের উপনির্বাচনে ভোটগ্রহণ শুরু হয়। এই আসনে আওয়ামী লীগের প্রার্থী রানীনগর উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আনোয়ার হোসেন। তার বিপরীতে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন নওগাঁ জেলা বিএনপির আহ্বায়ক কমিটির সদস্য শেখ মোহাম্মদ রেজাউল ইসলাম।

বিজ্ঞাপন

রানীনগর ও আত্রাই উপজেলা নিয়ে গঠিত নওগাঁ-৬ আসনে মোট ভোটার ৩ লাখ ৬ হাজার ৭২৫ জন। ১০৪টি কেন্দ্রে ইলেকট্রনিক ভোটিং মেশিনের (ইভিএম) মাধ্যমে ভোট নেওয়া হয় এই নির্বাচনে।

এদিকে, আজ নওগাঁ-৬-এর পাশাপাশি একযোগে ঢাকা-৫ আসনের উপনির্বাচনেও ভোট নেওয়া হচ্ছে। এই আসনে বিএনপির প্রার্থী সালাহউদ্দিন আহম্মেদও দুপুর ১২টার দিকে অভিযোগ করে বলেন, ৯৫ ভাগ কেন্দ্র থেকে বিএনপির এজেন্টদের বের করে দেওয়া হয়েছে। এজন্য ৯০ থেকে ৯৫ ভাগ কেন্দ্রে তাদের এজেন্ট নেই।

বিজ্ঞাপন

তবে শেষ দেখার ঘোষণা দিয়ে বিএনপি প্রার্থী বলেন, তারা যেভাবে ত্রাস সৃষ্টি করেছে, এতে করে জনগণ তাদের ভোট দিতে পারছে না। তবুও আমি শেষ পর্যন্ত দেখব এবং শেষ পর্যন্ত থাকব।

সারাবাংলা/এমআই

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন