বিজ্ঞাপন

‘শেখ হাসিনাকে নিয়ে কটূক্তিকারীদের রাজনীতি করার অধিকার নেই’

October 17, 2020 | 6:34 pm

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট

বগুড়া: আওয়ামী লীগ সভাপতি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে ‘বাংলার অহংকার’ আখ্যা দিয়েছেন আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক এস এম কামাল হোসেন। শেখ হাসিনাকে নিয়ে যারা কটূক্তি করে, তাদের এ দেশে রাজনীতি করার অধিকার নেই বলেও মন্তব্য করেছেন তিনি।

বিজ্ঞাপন

এস এম কামাল বলেন, একটি চক্র বাংলাদেশকে অস্থিতিশীল করার চক্রান্তে লিপ্ত রয়েছে। এরা ধর্ষকের বিচার চায় না, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার পদত্যাগ চায়। যারা বাংলাদেশের অহংকার প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে নিয়ে কটূক্তি করে, তাদের এ দেশে রাজনীতি করার অধিকার নেই। যারা সাত মাথায় (বগুড়া শহরের কেন্দ্রস্থল) দাঁড়িয়ে শেখ হাসিনাকে নিয়ে কটূক্তি করবে, তাদের দাঁতভাঙা জবাব দিতে হবে।

শনিবার (১৭ অক্টোবর) বগুড়া জেলা শহরের সাত মাথায় মুজিব মঞ্চে পৌর আওয়ামী লীগের আয়োজনে এক বিক্ষোভ সমাবেশে তিনি এসব কথা বলেন। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে নিয়ে কটূক্তি ও দেশব্যাপী ধর্ষণের বিরুদ্ধে এই সমাবেশে প্রধান অতিথি ছিলেন আওয়ামী লীগের রাজশাহী বিভাগের দায়িত্বপ্রাপ্ত এই সাংগঠনিক সম্পাদক।

বিজ্ঞাপন

সমাবেশে এস এম কামাল বলেন, শেখ হাসিনা বাংলাদেশের অহংকার, বিশ্বনেতা। তিনি মানুষের জন্য, দেশের কল্যাণের জন্য রাজনীতি করেন। তিনি সন্ত্রাস, দুর্নীতি, মাদক ও জঙ্গিবাদের বিরুদ্ধে যুদ্ধ ঘোষণা করেছেন। নিজের জন্য কিছু করেননি। সারাজীবন এ দেশের মানুষের জন্য নিজের জীবনকে উৎসর্গ করে কাজ করে যাচ্ছেন। তিনি সারাবিশ্বের জন্য অনুকরণীয়। তাই তাদের বুঝিয়ে দিতে হবে— শেখ হাসিনাকে নিয়ে রাজনৈতিক সমালোচনা করা যাবে, কিন্তু কোনো কটূক্তি করা যাবে না।

বিএনপি-জামায়াত জোট সরকারের প্রসঙ্গ টেনে আওয়ামী লীগের এই সাংগঠনিক সম্পাদক বলেন, আওয়ামী লীগ সরকার দেশ ও দেশের মানুষের পক্ষে লড়াই করে। আর বিএনপি দেশকে পিছিয়ে দেওয়ার রাজনীতি করে। বিএনপি-জামায়াতের আমলে যেসব ধর্ষণ-নির্যাতনের ঘটনা ঘটেছে, তার কোনোটিরই বিচার হয়নি। কোনো আসামিই গ্রেফতার হয়নি। কিন্তু বর্তমান সরকারের আমলে যে ঘটনাই ঘটুক না কেন, সে ঘটনার জড়িতদের গ্রেফতার করে বিচারের আওতায় নিয়ে আসা হয়েছে।

বিজ্ঞাপন

তিনি বলেন, পঁচাত্তরে একটি কুচক্রী মহল বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানে সপরিবারে হত্যা করে আওয়ামী লীগকে ধ্বংস করতে চেয়েছিল। ওই সময় বঙ্গবন্ধুকন্যা শেখ হাসিনা ও শেখ রেহানা দেশের বাইরে থাকায় প্রাণে বেঁচে যান। আজ বঙ্গবন্ধুর জ্যেষ্ঠ কন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বেই বাংলাদেশ অন্ধকার থেকে আলোর পথে ধাবিত হয়েছে। বঙ্গবন্ধুর সোনার বাংলা গড়ার স্বপ্ন বাস্তবায়ন করতে তিনি দিনরাত অক্লান্ত পরিশ্রম করে যাচ্ছেন।

এস এম কামাল আরও বলেন, দেশের এক কোটি মানুষকে ১০ টাকা কেজির চাল খাওয়ার ব্যবস্থাও করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। সেই প্রধানমন্ত্রীকে নিয়ে যারা কটূক্তি করে, তাদের দাঁতভাঙা জবাব দেওয়া হবে। প্রতিটি এলাকায় আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীদের সচেতন থাকতে হবে, যেন কেউ আওয়ামী লীগ ও দেশের বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্র না করতে পারে।

বিজ্ঞাপন

বিক্ষোভ সমাবেশে সভাপতিত্ব করেন পৌর আওয়ামী লীগের সভাপতি ও জেলা ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি রফি নেওয়াজ খান রবিন। বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন বগুড়া জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মজিবর রহমান মজনু, সাধারণ সম্পাদক রাগেবুল আহসান রিপু, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আসাদুর রহমান দুলু। জেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সহসভাপতি অ্যাডভোকেট মকবুল হোসেন মুকুলসহ জেলা ও পৌর আওয়ামী লীগের নেতারা সমাবেশে বক্তব্য রাখেন।

সারাবাংলা/টিআর

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন