বিজ্ঞাপন

পরিবহনে চাঁদা বন্ধ, সার্ভিস চার্জ নেবে মালিক শ্রমিক সংগঠন

October 29, 2020 | 10:59 am

সাব্বির আহমেদ, সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট

ঢাকা: পরিবহন খাতে চাঁদা প্রথা বিলুপ্ত ঘোষণা করেছে দেশের শীর্ষ মালিক ও শ্রমিক নেতারা। এখন চাঁদার পরিবর্তে সংগঠন পরিচালনা ব্যয় হিসেবে একটি সার্ভিস চার্জ নির্ধারণ করেছেন তারা। কারা এই সার্ভিস চার্জ নেবে, কিভাবে নেবে তা জানিয়ে একটি নির্দেশিকা প্রকাশ করেছেন তারা।

বিজ্ঞাপন

গত ২৭ অক্টোবর বাংলামোটরে সারাবাংলার সঙ্গে বিশেষ সাক্ষাৎকারে একথা জানান- সড়ক পরিবহন মালিক সমিতির সাধারণ সম্পাদক খন্দকার এনায়েত উল্ল্যাহ।

তিনি বলেন, ‘এখন থেকে আর কোথাও কেউ চাঁদা তুলতে পারবে না। চাঁদা তুললে তাকে পুলিশে ধরিয়ে দিতে হবে। মালিক-শ্রমিক নেতারা প্রায় ছয় মাস আগে পুলিশ প্রধানের সঙ্গে বৈঠক করে এই বিষয়ে একমত হয়েছেন।’

বিজ্ঞাপন

তিনি আরও বলেন, ‘জায়গা ভেদে সার্ভিস চার্জ কোথাও ২০ টাকা আর কোথাও ৩০ টাকা। এই টাকা নেওয়া হচ্ছে শুধু সার্ভিস চার্জ হিসেবে। শ্রমিক ও মালিক সংগঠন পরিচালানা করতে এই ব্যয় লাগে।’

দেশে পরিবহন খাতের শীর্ষ তিন সংগঠন রয়েছে। এগুলো হলো বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন মালিক সমিতি, সড়ক পরিহন শ্রমিক ফেডারেশন ও বাস ট্রাক অনাস অ্যাসোসিয়েশন।

বিজ্ঞাপন

যৌথভাবে তারা চাঁদা আদায় বন্ধে একমত হয়ে কিছু সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। চাঁদা বন্ধ করে এখন সার্ভিস চার্জ আদায় করা হচ্ছে। যা ব্যয় হচ্ছে তাদের সংগঠন পরিচালনা করতে। শ্রমিক সংগঠন নিচ্ছে ২০ টাকা আর মালিক সংগঠন নিচ্ছে ৩০ টাকা সার্ভিস চার্জ।

এর আগে দিনে দেশে কোটি টাকা চাঁদা উঠতো পরিবহন খাত থেকে এমন অভিযোগ ছিল।

বিজ্ঞাপন

বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন মালিক সমিতির মহাসচিব খন্দকার এনায়েত উল্লাহ জানান, কোথাও চাঁদা তোলা যাবে না। সারাদেশের সংগঠনের সব শাখায় নির্দেশিকা তারা পাঠিয়ে দিয়েছেন। কেউ কোথায় চাঁদা নিলে তাকে ধরিয়ে দিতে হবে। এরই মধ্যে পুলিশের অ্যাকশন শুরু হয়েছে। পুলিশ আটকও করেছে। এ অভিযান চলছে।’

সারাবাংলা/এসএ/এমআই

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন