বিজ্ঞাপন

আগ্রাসী চট্টগ্রামকেই দেখবে বরিশাল

November 29, 2020 | 5:12 pm

স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট

বঙ্গবন্ধু টি-টোয়েন্টি কাপে রীতিমত উড়ছে গাজী গ্রুপ চট্টগ্রাম। টুর্নামেন্টের প্রথম দুই ম্যাচে যে দুটি জয় এল তা ছিল দারুণ বীররোচিত এবং যার পরতে পরতে ছড়ানো ছিল আগ্রাসন। কী ব্যাটিং, কী বোলিং, কী ফিল্ডিং- এমন আগ্রাসী ক্রিকেট খেলেই মিঠুনরা প্রথমটি ম্যাচে ৯ উইকেটে উড়িয়ে দিল বেক্সিমকো ঢাকাকে। দ্বিতীয় ম্যাচেও একই ধরণ অব্যাহত থাকল। আর তাতে আউটক্লাস হল (৯ উইকেটে হার) টুর্নামেন্টের সবচেয়ে দামি ও তারকাবহুল দল জেমকন খুলনা। এবার তৃতীয় ম্যাচে তাদের সামনে ফরচুন বরিশাল।

বিজ্ঞাপন

তো এই ম্যাচে তামিম ইকবালদের বিপক্ষে তারা কেমন ক্রিকেট খেলবেন? রোববার (২৯ নভেম্বর) ম্যাচের আগের দিন মিরপুর জাতীয় ক্রিকেট একাডেমির মাঠে দলের প্রতিনিধি হয়ে সংবাদ মাধ্যমের সামনে আসা তাইজুল ইসলামকে ঠিক এই প্রশ্নটিই করা হয়েছিল। প্রত্ত্যুত্তরে দলের অভিজ্ঞ এই বাঁহাতি স্পিনার যে ইঙ্গিত দিলের তাতে এটা স্পষ্ট যে, এই ম্যাচেও খেলার ধরণে কোন পরিবর্তন হবে না। অর্থাৎ মুশফিক,মাহমুদউল্লাহদের মত তামিমদের বিপক্ষেও ব্যাটিং-বোলিং আগ্রাসন চলবে।

তার মুখেই শুনুন, ‘আশা তো করব বড় একটা জয়ের কিন্তু আসলে এটা হবে কি হবে না এটা বলা খুব কঠিন। কিন্তু আমাদের দলের এখন যে আত্মবিশ্বাস লেভেলটা আছে, আমাদের প্লেয়ারা যেভাবে খেলছে তো আশা করব এভাবেই আমরা শেষ করার। আর আমরা যে চাইলেই হবে তা না, সবকয়টা দলই ভালো। এরাও তো খেলবে, তো আমরা চেস্টা করব ওরকম কিছু করার।’

বিজ্ঞাপন

তবে চট্টগ্রাম উড়তে থাকলেও বরিশালের অবস্থা কিন্তু খুব একটা সন্তোষজন নয়। কারণটিও তো সঙ্গত। টি-টোয়েন্টিতে প্রায় অনভিজ্ঞ একটি দল নিয়ে ৫ দলের প্রায় এক মাসের টুর্নামেন্টের অথৈ সাগার দিচ্ছেন অধিনায়ক তামিম ইকবাল। শুরুটাই যাদের হয়েছিল নড়বড়ে। ২৪ নভেম্বর উদ্বোধনী দিনের সন্ধ্যায় যারা জেমকন খুলনার কাছে হেরে গিয়েছিলেন ৫ উইকেটের ব্যবধানে। গতকাল গতকাল রাজশাহীর বিপক্ষে ১৩৩ রানের জয়ের লক্ষ্যে খেলতে নেমেও বিস্তর কাঠকড়ি পোড়াতে হয়েছে। জয়ের বন্দরে নোঙর ফেলতে উইকেট খোয়াতে হয়েছে ৫টি। দলের এমন নড়বড়ে অবস্থায় এমতাবস্থায় শক্তিশালী চট্টগ্রাম বধে তারা কতটা আত্মবিশ্বাসী?

আগ্রাসী চট্টগ্রামকেই দেখবে বরিশাল

বিজ্ঞাপন

এমন প্রশ্নের জবাবে দলের অফিস্পিনিং অলরাউন্ডার মেহেদি হাসান মিরাজ জানালেন, ‘ক্রিকেট খেলায় সবকিছুই হতে পারে। চিটাগাং ভালো ক্রিকেট খেলছে। ভালো টাচে আছে। খেলোয়াড়ও ভালো, টিমও ভালো। কিন্তু আমার কাছে মনে হয় আমরা যে প্রক্রিয়ায় আছি, সেভাবে যদি খেলতে থাকি অবশ্যই অনেক কিছুই হতে পারে। আর ক্রিকেট খেলা আপনারা জানেন অনেক কিছু হতে পারে। ভালো টিমও হেরে যেতে পারে আবার জেতা ম্যাচও হেরে যায় হারা ম্যাচও জিতে যায়। আগে থেকে কোনো কিছু প্রেডিক্ট করা সম্ভব না। ওরাই জিতবে বা আমরা হারবো অথবা আমরাই জিতবো বা ওরাই হারবো। এটা বলা যায় না। দিনশেষে যারা মাঠে ভালো খেলবে, একশতে একশ দিতে পারবে, ভুল কম করবে। তারাই জিতবে।’

এদিকে নিজেদের তৃতীয় ম্যাচের আগে বেশ বড়সড় ধাক্কাই খেয়েছে গাজী গ্রুপ চট্টগ্রাম। আগামীকাল থেকে টুর্নামেন্টের শেষ অবধি মুমিনুল হককে তারা পাচ্ছে না। গতকাল জেমকন খুলনার বিপক্ষে ম্যাচে ফিল্ডিংয়ের সময় তিনি ডান হাতের বৃদ্ধাঙ্গুলে গুরুতর চোট পেয়েছেন। স্ক্যান রিপোর্টে আঙুলে ফ্র্যাকচার ধরা পড়ায় আগামী চার সপ্তাহ তাকে থাকতে হবে মাঠের বাইরে। বলার অপেক্ষাই থাকছে না এতে করে টুর্নামেন্ট শেষ হয়ে গেছে টাইগার টেস্ট দলপতির। এমন এক বিচুর্ণ মানসিকতার মধ্য দিয়ে নিজেদের তৃতীয় নামতে হচ্ছে বঙ্গবন্ধু টি-টোয়েন্টিতে উড়তে থাকা দলটিকে।

বিজ্ঞাপন

সোমবার (২৯ ৩০ নভেম্বর) মিরপুর শের ই বাংলা জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামে চট্টগ্রাম-বরিশালের ম্যাচটি শুরু হবে বাংলাদেশ সময় দুপুর দেড়টায়।

সারাবাংলা/এমআরএফ/এসএইচএস

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন